বাংলাদেশের নদীর তালিকা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
বাংলাদেশের মানচিত্রে প্রধান নদীসমূহ
বর্ষাকালে পদ্মা নদী

দক্ষিণ এশিয়ায় অন্তর্গত বাংলাদেশ একটি নদীমাতৃক দেশ। শাখা-প্রশাখাসহ প্রায় ৮০০ নদ-নদী বিপুল জলরাশি নিয়ে ২৪,১৪০ কিলোমিটার জায়গা দখল করে দেশের মধ্য দিয়ে প্রবাহিত হয়েছে। বাংলাদেশের অধিকাংশ এলাকাই শত শত নদীর মাধ্যমে বয়ে আসা পলি মাটি জমে তৈরি হয়েছে। বাংলাদেশের প্রধান প্রধান নদ-নদীসমূহের তালিকা নিম্নে প্রদান করা হলঃ

বাংলাদেশের প্রধান নদনদীসমূহ[সম্পাদনা]

নদীমাতৃক বাংলাদেশে অসংখ্য নদনদীর মধ্যে অনেকগুলো আকার এবং গুরুত্বে বিশাল। এসব নদীকে বড় নদী হিসেবে উল্লেখ করা হয়।বৃহৎ নদী হিসেবে কয়েকটিকে উল্লেখ করা যায় এমন নদীসমূহ হচ্ছে: পদ্মা, মেঘনা, যমুনা, ব্রহ্মপুত্র, কর্ণফুলি, শীতলক্ষ্যা, গোমতী ইত্যাদি।

পাউবো নির্ধারিত অন্যান্য নদী[সম্পাদনা]

বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ড বা "পাউবো" বাংলাদেশের নদীগুলোকে সংখ্যাবদ্ধ করেছে এবং প্রতিটি নদীর একটি পরিচিতি নম্বর দিয়েছে। এর ফলে তাদের হিসাব অনুযায়ি বাংলাদেশে নদীর সংখ্যা এখন ৪০৫টি। পাউবো কর্তৃক নির্ধারিত দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের নদী (১০২টি) , উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের নদী (১১৫টি), উত্তর-পূর্বাঞ্চলের নদী (৮৭টি), উত্তর-কেন্দ্রীয় অঞ্চলের নদী (৬১টি), পূর্ব-পাহাড়ি অঞ্চলের নদী (১৬টি) এবং দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলের নদী (২৪টি) হিসেবে বিভাজন করে তালিকাভুক্ত করা হয়েছে।[১]

দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের নদী[সম্পাদনা]

উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের নদী[সম্পাদনা]

উত্তর-পূর্বাঞ্চলের নদী[সম্পাদনা]

উত্তর-কেন্দ্রীয় অঞ্চলের নদী[সম্পাদনা]

পূর্ব-পাহাড়ি অঞ্চলের নদী[সম্পাদনা]

দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলের নদী[সম্পাদনা]

অন্যান্য নদী[সম্পাদনা]

উপরে উল্লেখিত ৪০৫টি নদী ছাড়াও বাংলাদেশে আরও চার শতাধিক নদী রয়েছে। সেসবের কিছু নদীর নাম নিচে দেয়া হলও।

বাংলাদেশ-ভারত-মায়ানমার আন্তঃসীমান্ত নদীর তালিকা[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. মানিক মোহাম্মদ রাজ্জাক, বাংলাদেশের নদনদী: -বর্তমান গতিপ্রকৃতি, কথাপ্রকাশ, ঢাকা, ফেব্রুয়ারি, ২০১৫, পৃষ্ঠা ৭-৮, ISBN 984-70120-0436-4.
  2. "আন্তঃসীমান্ত_নদী"বাংলাপিডিয়া। ১৬ জুন ২০১৪। সংগৃহীত : ১৬ জুন ২০১৪