সিদ্ধেশ্বরী কালী মন্দির

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সিদ্ধেশ্বরী কালীমন্দির
সিদ্ধেশ্বরী কালীদেবীর মূর্তি

সিদ্ধেশ্বরী কালী মন্দির বাংলাদেশের ঢাকার ১৪ সিদ্ধেশ্বরী লেনে অবস্থিত একটি হিন্দু মন্দির।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

সিদ্ধেশ্বরীর মন্দিরটি কখন ও কিভাবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল তা সঠিকভাবে জানা যায় না। কিন্ত্তু উনিশ শতকের শেষের দিকে ও বিংশ শতকের শুরুর দিকে মন্দিরটি বিখ্যাত হয়।

জানা যায় যে "সিদ্ধেশ্বরী" নাম থেকে মন্দিরটির নামকরণ হয়। চাঁদ রায় নামের এক ব্যক্তি মন্দিরটি প্রতিষ্ঠা করেন বলে মনে করা হয়।[১]

স্থাপত্যশিল্প বিষয়ক তাৎপর্য[সম্পাদনা]

গঠনকৌশলের দিক দিয়ে সিদ্ধেশ্বরীর মন্দিরটি অত্যন্ত ঐতিহাসিক। মন্দিরটির কেন্দ্রে মা কালীর মূর্তি রয়েছে এবং সুন্দর স্তম্ভ দ্বারা মন্দিরটি সম্প্রসারণ করা হয়েছে।

বর্তমান অবস্থা[সম্পাদনা]

এটি সরু রাস্তা এবং ঘনবসতিপূর্ণ অঞ্চলে অবস্থিত। সিদ্ধেশ্বরীর পাশে মালিবাগের কেন্দ্র অবস্থিত। মন্দিরের উঠোনে একটি "রক্তচন্দন" বৃক্ষ আছে। মন্দিরের কাছে ছিল একটি পুরাতন পুকুর এবং কয়েকটি পুরাতন মন্দির।

মন্দিরে বিভিন্ন উৎসবের আয়োজন করা হয়। শারোদীয় দূর্গাপুজার সময় বছরের পর বছর ধরে দেবীমার প্রতিমার সামনে দূর্গাপূজা হয়ে আসছে। জনগণ এখানে প্রতিবছর জাকজমকের সাথে দূর্গাপূজোর আয়োজন করে।বিজয়া দশমীতে পূজা করার পর হিন্দুরা দেবী মা এর মূর্তি পুকুরে বিসর্জন দেয়। এভাবে বছরজুড়ে চলে বিভিন্ন পূজা ও উৎসব।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

আরও পড়ুন[সম্পাদনা]

  • মুনতাসীর মামুন, ঢাকা স্মৃতি বিস্মৃতির নগরী, মুনিরুল হক অনন্য কর্তৃক প্রকাশিত, পৃষ্ঠা ২৬৪-২৬৫, আইএসবিএন ৯৮৪-৪১২-১০৪-৩.