মুতাজিলা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সরাসরি যাও: পরিভ্রমণ, অনুসন্ধান

মুতাজিলা (আরবি: المعتزلة‎‎) হল ইসলামি ধর্মতত্ত্বের একটি শাখা। এটি কারণ ও যুক্তি আলোচনার উপর ভিত্তি করে প্রতিষ্ঠিত। ৮ম থেকে ১০ শতাব্দীতে বসরাবাগদাদে এর প্রাধান্য ছিল। কুরআনকে আল্লাহর সৃষ্ট বলার কারণে তারা বেশি আলোচিত। তাদের মতে কুরআন আল্লাহর সাথে একই অস্তিত্বে ছিল না বরং তা আল্লাহর সৃষ্ট।

উমাইয়া যুগে মুতাজিলা আন্দোলনের আবির্ভাব হয় এবং আব্বাসীয় যুগে এটি সর্বোচ্চ পর্যায়ে পৌঁছায়। ওয়াসিল ইবনে আতাকে মুতাজিলা মতবাদের জনক হিসেবে ধরা হয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  • 'Abd al-Jabbar (১৯৬৫)। 'Abd al-Karim 'Uthman (ed.)., সম্পাদক। Sharh al-Usul al-Khamsa (Arabic ভাষায়)। Cairo: Maktabat Wahba। 
  • Abu al-Hasan al-Ash'ari (১৯৬৯)। M. M. 'Abd al-Hamid (ed.)., সম্পাদক। Maqalat al-Islamiyin wa Ikhtilaf al-Musallin (Arabic ভাষায়)। Cairo: Maktabat al-Nahdah al-Misriyah। 
  • Cooperson, Michael (২০০৫)। Al-Ma'mun (Makers of the Muslim World)। Oxford, England: Oneworld Publications। আইএসবিএন 1-85168-386-0 
  • Craig, W. L. (২০০০)। The Kalam Cosmological Argument। USA: Wipf & Stock Publishers। আইএসবিএন 1-57910-438-X 
  • Ess, J. V. (২০০৬)। The Flowering of Muslim Theology। USA: Harvard University Press। আইএসবিএন 0-674-02208-4 
  • Gimaret, D. (১৯৭৯)। "Les Usul al-Hamsa du Qadi 'Abd al-Jabbar et leurs commentaires"। Annales Islamologiques15: 47–96। 
  • Jackson, S. A. (২০০২)। On the Boundaries of Theological Tolerance in Islam: Abu Hamid al-Ghazali’s Faysal al-Tafriqa (Studies in Islamic Philosophy, V.1)। Oxford: Oxford University Press। আইএসবিএন 0-19-579791-4 
  • Jackson, S. A. (২০০৫)। Islam and the Blackamerican: Looking Toward the Third Resurrection। New York: Oxford University Press। আইএসবিএন 0-19-518081-X 
  • Martin, R. C.; M. R. Woodward; D. S. Atmaja (১৯৯৭)। Defenders of Reason in Islam: Mu'tazilism from Medieval School to Modern Symbol। Oxford, England: Oneworld Publications। আইএসবিএন 1-85168-147-7 
  • Nawas, J. A. (১৯৯৪)। "A Rexamination of Three Current Explanations for al-Ma'mun's Introduction of the Mihna"। International Journal of Middle East Studies26 (4): 615–629। doi:10.1017/S0020743800061134 
  • Nawas, J. A. (১৯৯৬)। "The Mihna of 218 A.H./833 A. D. Revisited: An Empirical Study"। Journal of the American Oriental Society116 (4): 698–708। doi:10.2307/605440জেস্টোর 605440 
  • Walzer, R. (১৯৬৭)। "Early Islamic Philosophy"। in A. H. Armstrong (ed.).। The Cambridge History of Later Greek and Early Medieval Philosophy। UK: Cambridge University Press। আইএসবিএন 0-521-04054-X 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]