নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়ন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
নাঙ্গলমোড়া
ইউনিয়ন
গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের সীল.svg ৫নং নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়ন পরিষদ
নাঙ্গলমোড়া বাংলাদেশ-এ অবস্থিত
নাঙ্গলমোড়া
নাঙ্গলমোড়া
বাংলাদেশে নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়নের অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২২°৩২′৪৮″ উত্তর ৯১°৫১′১″ পূর্ব / ২২.৫৪৬৬৭° উত্তর ৯১.৮৫০২৮° পূর্ব / 22.54667; 91.85028স্থানাঙ্ক: ২২°৩২′৪৮″ উত্তর ৯১°৫১′১″ পূর্ব / ২২.৫৪৬৬৭° উত্তর ৯১.৮৫০২৮° পূর্ব / 22.54667; 91.85028 উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
দেশ বাংলাদেশ
বিভাগচট্টগ্রাম বিভাগ
জেলাচট্টগ্রাম জেলা
উপজেলাহাটহাজারী উপজেলা উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
সরকার
 • চেয়ারম্যানলায়ন মোহাম্মদ সিরাজুল হক ব‍াবুল
আয়তন
 • মোট১.৮৭ কিমি (০.৭২ বর্গমাইল)
জনসংখ্যা (২০১১)
 • মোট৮,৮২৫
 • জনঘনত্ব৪৭০০/কিমি (১২০০০/বর্গমাইল)
সাক্ষরতার হার
 • মোট৬৯.৪৭%
সময় অঞ্চলবিএসটি (ইউটিসি+৬)
পোস্ট কোড৪৩৩৩ উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
ওয়েবসাইটপ্রাতিষ্ঠানিক ওয়েবসাইট Edit this at Wikidata
মানচিত্র

নাঙ্গলমোড়া বাংলাদেশের চট্টগ্রাম জেলার হাটহাজারী উপজেলার অন্তর্গত একটি ইউনিয়ন

আয়তন[সম্পাদনা]

নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়নের আয়তন ৪৬২ একর[১] (১.৮৭ বর্গ কিলোমিটার)। এটি আয়তনের দিক থেকে বাংলাদেশের সবচেয়ে ছোট ইউনিয়ন।[২]

জনসংখ্যা[সম্পাদনা]

২০১১ সালের পরিসংখ্যান অনুযায়ী নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়নের লোকসংখ্যা ৮,৮২৫ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৪,৫৩১ জন এবং মহিলা ৪,২৯৪ জন।[৩]

অবস্থান ও সীমানা[সম্পাদনা]

হাটহাজারী উপজেলার উত্তর-পূর্ব দিকে নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়নের অবস্থান। উপজেলা সদর থেকে এ ইউনিয়নের দূরত্ব প্রায় ১১ কিলোমিটার। এ ইউনিয়নের দক্ষিণে ছিপাতলী ইউনিয়ন, পশ্চিমে গুমানমর্দন ইউনিয়ন, উত্তরে হালদা নদীফটিকছড়ি উপজেলার জাফতনগর ইউনিয়ন এবং পূর্বে হালদা নদীরাউজান উপজেলার নওয়াজিশপুর ইউনিয়ন অবস্থিত।

প্রশাসনিক কাঠামো[সম্পাদনা]

নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়ন হাটহাজারী উপজেলার আওতাধীন ৫নং ইউনিয়ন পরিষদ। তৎকালীন গুমানমর্দন ইউনিয়নের নাঙ্গলমোড়া মৌজা নিয়ে এ ইউনিয়ন গঠিত। এটি জাতীয় সংসদের ২৮২নং নির্বাচনী এলাকা চট্টগ্রাম-৫ এর অংশ। এ ইউনিয়নের প্রশাসনিক কার্যক্রম হাটহাজারী মডেল থানার আওতাধীন।

ইতিহাস ও নামকরণ[সম্পাদনা]

প্রাচীন কালে হালদা নদীতে একটি সমুদ্রগামী জাহাজের নোঙ্গর পাওয়া গিয়েছিল । অনেকের ধারণা, নোঙ্গর হত 'নাঙ্গলমোড়া' গ্রামের উৎপত্তি হয়েছিল। এখানে আরো উল্লেখ্য যে, প্রাচীন কালে বর্তমান হালদা নদী বেশ প্রশস্ত ও গভীর ছিল। বড় বাণিজ্যিক যাত্রাবাহী জাহাজ এ নদী দিয়ে যাতায়াত করত। কোন এক সময় বিরাট এক জাহাজের নোঙ্গর এ নদীতে ছিঁড়ে পড়ে যায়। নদী ক্রমে ক্রমে ভরাট হওয়ার কারণের স্থানীয় জনগণ ছিঁড়ে পাওয়া নোঙ্গরের খোঁজ পায় কিংবা মাটি খননের সময় নজরে আসে। সে হতে প্রাপ্ত নোঙ্গর দেখার জন্য প্রতিদিন বহু লোকের সমাগম হত। পরস্পর জান ও জাতি পরিস্থিতি হিসাবে নোঙ্গর হতে লোক মুখে নাঙ্গল পরে নাঙ্গলমোড়া গ্রামের উৎপত্তি। উপরোক্ত ঘটনার ঐতিহ্যবাহী তথ্য মাহাবুব উল আলমের চট্টগ্রামের ইতিহাস গ্রন্থে আছে। ১৯৭২ সাল পর্যন্ত নাঙ্গলমোড়া গুমানমর্দন ইউনিয়নের একটি ওয়ার্ড ছিল। প্রাচীন কালে যোগাযোগের একমাত্র মাধ্যম নদী হওয়ার কারণে গুমানমর্দন ইউনিয়ন পরিষদের কার্যালয় নাঙ্গলমোড়ায় অবস্থিত ছিল। ১৯৭৩ সালে নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়ন পরিষদের মর্যাদা লাভ করে।[৪]

শিক্ষা ব্যবস্থা[সম্পাদনা]

নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়নের সাক্ষরতার হার ৬৯.৪৭%।[১] এ ইউনিয়নে ১টি ফাজিল মাদ্রাসা, ১টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ২টি নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ২টি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও ১টি কিন্ডারগার্টেন রয়েছে।

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান[সম্পাদনা]

মাদ্রাসা

[৫]

মাধ্যমিক বিদ্যালয়
নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়
প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • দক্ষিণ নাঙ্গলমোড়া ইসলামিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • নাঙ্গলমোড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়

[৬]

কিন্ডারগার্টেন
  • নাঙ্গলমোড়া আইডিয়াল গ্রামার স্কুল

যোগাযোগ ব্যবস্থা[সম্পাদনা]

নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়নে যোগাযোগের প্রধান সড়ক হাটহাজারী-নাঙ্গলমোড়া সড়ক। প্রধান যোগাযোগ মাধ্যম সিএনজি চালিত অটোরিক্সা।

ধর্মীয় উপাসনালয়[সম্পাদনা]

নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়নে ১২টি মসজিদ, ৭টি ঈদগাহ ও ১টি মন্দির রয়েছে।[৩]

খাল ও নদী[সম্পাদনা]

নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়নের উত্তর-পূর্ব পাশ দিয়ে বয়ে চলেছে হালদা নদী[৩]

হাট-বাজার[সম্পাদনা]

নাঙ্গলমোড়া ইউনিয়নের প্রধান হাট/বাজার হল নাঙ্গলমোড়া বাজার।[৩]

দর্শনীয় স্থান[সম্পাদনা]

কৃতী ব্যক্তিত্ব[সম্পাদনা]

  • আনোয়ারা বেগম –– যুগ্ম সচিব, সংস্থাপন মন্ত্রণালয়, ঢাকা।
  • আবুল কালাম –– অধ্যক্ষ, গাছবাড়িয়া সরকারি কলেজ, চন্দনাইশ, চট্টগ্রাম।
  • নুরুল আজম চৌধুরী –– স্বত্বাধিকারী, জেন্টল পার্ক।
  • নুরুল ইসলাম –– পরিচালক, স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক লিমিটেড।
  • নুরুল হুদা –– চেয়ারম্যান, চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ড।
  • শফিউল আলম –– অবসরপ্রাপ্ত যুগ্ম সচিব, সংস্থাপন মন্ত্রণালয়, ঢাকা।
  • শফিউল আলম –– স্বত্বাধিকারী, রাজধানী হোটেল, ঢাকা।
  • সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী –– শিল্পপতি।

[৩]

জনপ্রতিনিধি[সম্পাদনা]

  • বর্তমান চেয়ারম্যান: লায়ন মোহাম্মদ সিরাজুল হক বাবুল[৭]
চেয়ারম্যানগণের তালিকা
ক্রম নং চেয়ারম্যানের নাম মেয়াদকাল
০১ মোহাম্মদ আবু তাহের ১৯৭৪-১৯৭৭
০২ মোহাম্মদ মাহাবুবুল আলম ১৯৭৮- ১৯৮২
০৩ মোহাম্মদ আবু তাহের ১৯৮৩-১৯৯২
০৪ আ ফ ম মাহমুদুর রহমান ১৯৯৩-১৯৯৭
০৫ আলহাজ্ব মোহাম্মদ কামাল উদ্দিন চৌধুরী ১৯৯৭-২০১৬
০৬ লায়ন মোহাম্মদ সিরাজুল হক বাবুল ২০১৬-বর্তমান

[৮]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]