ব্রজমোহন কলেজ

স্থানাঙ্ক: ২২°৪২′৪৪″ উত্তর ৯০°২১′১৮″ পূর্ব / ২২.৭১২১° উত্তর ৯০.৩৫৫১° পূর্ব / 22.7121; 90.3551
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সরকারি ব্রজমোহন কলেজ
সরকারি বি. এম কলেজ
সরকারি বি এম কলেজ, বরিশাল.png
নীতিবাক্যসত্য, প্রেম ও পবিত্রতা
ধরনসরকারি কলেজ
স্থাপিত১৮৮৯
প্রতিষ্ঠাতামহাত্মা অশ্বিনীকুমার দত্ত
অধ্যক্ষপ্রফেসর ড. মোহাম্মদ গোলাম কিবরিয়া
শিক্ষায়তনিক ব্যক্তিবর্গ
২২
প্রশাসনিক ব্যক্তিবর্গ
১৯৮
শিক্ষার্থী২৭০০০ (প্রায়)
অবস্থান,
শিক্ষাঙ্গনশহরে (৬০ একর)
সংক্ষিপ্ত নামবিএম কলেজ
অধিভুক্তিবাংলাদেশ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়
ওয়েবসাইটঅফিসিয়াল ওয়েবসাইট

ব্রজমোহন কলেজ বা বি.এম কলেজ বাংলাদেশের অন্যতম শীর্ষস্থানীয় ও প্রাচীন ঐতিহ্যবাহী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। এটি বাংলাদেশের দক্ষিণাংশে বরিশাল শহরে অবস্থিত। ১৮৮৯ সালে প্রখ্যাত সমাজসেবক, রাজনীতিবিদ ও শিক্ষানুরাগী অশ্বিনীকুমার দত্ত কলেজটি প্রতিষ্ঠা করেন। তখন কলেজটি কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় এর অধিভুক্ত ছিল। সেসময়ে এ কলেজের মান এতই উন্নত ছিল যে অনেকে একে দক্ষিণ বাংলার অক্সফোর্ড বলে আখ্যায়িত করেন। [১] ১৯৬৫ সালে কলেজটির জাতীয়করণ করা হয় ও বর্তমানে কলেজটি বাংলাদেশ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় এর অধিভুক্ত। কলেজটিতে স্নাতক (সম্মান) শ্রেণীতে ২২টি বিষয়ে ও স্নাতকোত্তর শ্রেণীতে ২১টি বিষয়ে পাঠদান করে থাকে,সর্বশেষ ২০১৪ সালের ১০ই জানুয়ারি প্রফেসর বিপ্লব কুমার ভট্টাচার্য এর নেতৃত্বে প্রফেসর নাসিম হায়দার এর সহযোগীতায় পরিসংখ্যান বিভাগে অনার্স কোর্স চালু করা হয়। প্রফেসর বিপ্লব কুমার ভট্টাচার্য ছিলেন পরিসংখ্যান বিভাগের প্রতিষ্ঠাতা বিভাগীয় প্রধান। মাত্র ১১ জন ছাত্র নিয়ে এর যাত্রা শুরু হয়।কলেজে ছাত্রদের জন্য ৩টি (মুসলিম হোস্টেল, মহাত্মা অশ্বিনীকুমার হোস্টেল, কবি জীবনানন্দ দাশ হিন্দু হোস্টেল) এবং মেয়েদের জন্য চারতলা ভবনের ১টি হোস্টেল (বনমালী গাঙ্গুলী মহিলা হোস্টেল) রয়েছে। কলেজের কেন্দ্রীয় লাইব্রেরিতে মোট বইয়ের সংখ্যা ৪০,০০০। এখানে ১টি বাণিজ্য ভবন, ৩টি কলা ভবন, একটি অডিটোরিয়াম, ৪টি বিজ্ঞান ভবন ও ৩টি খেলার মাঠ রয়েছে। এছাড়া দুই প্রান্তে দুটি দিঘি কলেজের সৌন্দর্যকে করে তুলেছে মনোমুগ্ধকর

ইতিহাস[সম্পাদনা]

ব্রজমোহন কলেজ, প্রধান ভবন

রাজনৈতিক দলসমূহ[সম্পাদনা]

শিক্ষা-সহায়ক কার্যক্রম[সম্পাদনা]

  • বাংলাদেশ রোভার স্কাউট
  • বাংলাদেশ জাতীয় ক্যাডেট কোর (সুন্দরবন রেজিমেন্ট)
  • উত্তরণ সাংস্কৃতিক সংগঠন।
  • সাংস্কৃতিক পরিষদ।
  • ব্রজমোহন থিয়েটার।
  • বাঁধন (ব্লাড ডোনেশন)
  • সন্ধানী (ব্লাড ডোনেশন)

উল্লেখযোগ্য প্রাক্তন শিক্ষার্থী[সম্পাদনা]

চিত্রশালা[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "বিএম কলেজ - আমাদের বরিশাল"। ১৬ জুন ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৮ এপ্রিল ২০১৫