পটুয়াখালী সরকারী মহিলা কলেজ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
পটুয়াখালী সরকারী মহিলা কলেজ
ঠিকানা, ,
২২°২১′৪৩″ উত্তর ৯০°২০′৪৪″ পূর্ব / ২২.৩৬১৮১৮° উত্তর ৯০.৩৪৫৬৫৪° পূর্ব / 22.361818; 90.345654স্থানাঙ্ক: ২২°২১′৪৩″ উত্তর ৯০°২০′৪৪″ পূর্ব / ২২.৩৬১৮১৮° উত্তর ৯০.৩৪৫৬৫৪° পূর্ব / 22.361818; 90.345654
শিক্ষাঙ্গনপটুয়াখালী সদর,বরিশাল

পটুয়াখালী সরকারী মহিলা কলেজ বরিশাল বিভাগের পটুয়াখালী জেলার একটি শীর্ষস্থানীয় এবং ঐতিহ্যবাহী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। ১৯৬৬ সালে মহিলা কলেজ প্রতিষ্ঠিত হয়।[১][২][৩]

প্রতিষ্ঠার পটভূমি[সম্পাদনা]

১৯৫৬ সালে ভোলায় একটি ও পিরোজপুরে দুটি আসনে উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। হোসেন শহীদ সোহরায়ার্দী বরিশাল, পিরোজপুর ও ভোলায় জনসভা করেন। স্থানীয় এমএলএ ও নেতৃবৃন্দের দাবির প্রেক্ষিতে তিনি পিরোজপুর, পটুয়াখালী ও ভোলায় একটি করে কলেজ এবং বরিশালে একটি মহিলা কলেজ প্রতিষ্ঠার অঙ্গীকার করেন। এই অঙ্গীকার পূরণের প্রয়াসে ১৯৫৬ সালে পটুয়াখালী কলেজের সাংগঠনিক কমিটি গঠন করা হয়। ১৯৫৭ সালের ৫ জুন পটুয়াখালী কলেজের যাত্রা শুরু হয়। পটুয়াখালী কলেজের প্রথম কার্যক্রম শুরু হয় শহরের বর্তমান পটুয়াখালী সরকারি মহিলা কলেজের জায়গায়। তখন মহিলা কলেজ প্রতিষ্ঠিত হয়নি। ১৯৬৬ সালে মহিলা কলেজ প্রতিষ্ঠিত হয়।

অবকাঠামো[সম্পাদনা]

বিভাগ সমুহ[সম্পাদনা]

অন্যান্য অবকাঠামোগত সুযোগ সুবিধাসমূহ[সম্পাদনা]

আধুনিক জ্ঞান বিজ্ঞান চর্চার জন্য রয়েছে সমকালীন গ্রন্থসমৃদ্ধ, গ্রন্থাগার, কম্পিউটার ল্যাব ও বিজ্ঞান গবেষণাগার। শিক্ষার্থীর শারীরিক, মানসিক ও সাংস্কৃতিক বিকাশের জন্য রয়েছে ক্রীড়া সামগ্রী, সাংস্কৃতিক আয়োজন।

বহি:সংযোগ[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. সিরাজ উদ্দীন আহমেদ। বরিশাল বিভাগের ইতিহাস (দ্বিতীয় খন্ড)। ঢাকা: ভাস্কর প্রকাশনী। 
  2. "বরিশালে সব দিক থেকে এগিয়ে মেয়েরা ॥ অকৃতকার্য সাড়ে ১৫ হাজার পরীক্ষার্থী"web.archive.org। ২০১৫-০৬-০১। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০৮-০৮ 
  3. "AmaderBarisal.com - বরিশাল বোর্ডে সেরা বিশে পটুয়াখালীর তিন কলেজ"www.amaderbarisal.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০৮-০৮ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]