নকশীকাঁথা এক্সপ্রেস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
নকশীকাঁথা এক্সপ্রেস
সংক্ষিপ্ত বিবরণ
পরিষেবা ধরনমেইল ট্রেন
বর্তমান পরিচালকবাংলাদেশ রেলওয়ে
যাত্রাপথ
শুরুখুলনা রেলওয়ে স্টেশন
শেষগোয়ালন্দ ঘাট রেলওয়ে স্টেশন
ভ্রমণ দূরত্ব?
যাত্রার গড় সময়৯ ঘণ্টা
পরিষেবার হারদৈনিক
রেল নং২৫/২৬
যাত্রাপথের সেবা
আসন বিন্যাসআছে
ঘুমানোর ব্যবস্থানাই
অটোরেক ব্যবস্থানাই
খাদ্য সুবিধানাই
পর্যবেক্ষণ সুবিধাআছে
বিনোদন সুবিধাআছে
মালপত্রের সুবিধাআছে
কারিগরি
ট্র্যাক গেজ১,৬৭৬ মিলিমিটার (৫ ফুট ৬ ইঞ্চি)

নকশীকাঁথা এক্সপ্রেস (ট্রেন নাম্বার-২৫/২৬) বাংলাদেশ রেলওয়ের অধীনে চলা একটি মেইল ট্রেন[১] ট্রেনটি খুলনা থেকে গোয়ালন্দ ঘাট যেতে যশোর জেলা, ঝিনাইদহ জেলা, চুয়াডাঙ্গা জেলা, কুষ্টিয়া জেলারাজবাড়ী জেলাকে সংযুক্ত করেছে।

যাত্রাপথ[সম্পাদনা]

নকশীকাঁথা এক্সপ্রেস (খুলনা-গোয়ালন্দ ঘাট)ও (গোয়ালন্দ ঘাট-খুলনা) রেলপথে চলাচল করে এবং যাত্রাপথে থাকা প্রায় সকল স্টেশনে যাত্রাবিরতি দেয়।

স্টেশন তালিকা[সম্পাদনা]

নকশীকাঁথা এক্সপ্রেস যেসকল রেলওয়ে স্টেশন দিয়ে চলাচল করে নিম্নে কিছু স্টেশনের নাম উল্লেখ করা হলো:

সময়সূচী[সম্পাদনা]

  • নকশীকাঁথা এক্সপ্রেস খুলনা থেকে গোয়ালন্দ ঘাটের উদ্দেশ্যে ছাড়ে ভোর ২টায়, গোয়ালন্দ ঘাট পৌঁছায় সকাল ১১ টায়।
  • গোয়ালন্দ ঘাট থেকে খুলনার উদ্দেশ্যে ছাড়ে দুপুর ১২টা ৪০ মিনিটে, খুলনা পৌঁছায় রাত ১০টায়।

সম্পর্কিত নিবন্ধ[সম্পাদনা]

বাংলাদেশের মেইল ও কমিউটার ট্রেনের তালিকা

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. ব্যুরো, যশোর। "খুলনাগামী নকশীকাঁথা ট্রেন লাইনচ্যুত"DailyInqilabOnline। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০২-১৭