বলাকা কমিউটার

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বলাকা কমিউটার
সংক্ষিপ্ত বিবরণ
পরিষেবা ধরনকমিউটার ট্রেন
প্রথম পরিষেবা৩১ ডিসেম্বর ২০১৫
বর্তমান পরিচালকবাংলাদেশ রেলওয়ে
যাত্রাপথ
শুরুজারিয়া ঝাঞ্জাইল রেলওয়ে স্টেশন
শেষরেলওয়ে স্টেশন
ভ্রমণ দূরত্ব৬ ঘণ্টা
পরিষেবার হারদৈনিক
রেল নং৪৯/৫০
যাত্রাপথের সেবা
শ্রেণীহ্যাঁ
আসন বিন্যাসআছে
ঘুমানোর ব্যবস্থানাই
অটোরেক ব্যবস্থানাই
খাদ্য সুবিধানাই
পর্যবেক্ষণ সুবিধাআছে
বিনোদন সুবিধাআছে
মালপত্রের সুবিধাআছে
কারিগরি
ট্র্যাক গেজ১,০০০ মিলিমিটার (৩ ফুট   ইঞ্চি)

বলাকা কমিউটার (ট্রেন নাম্বার-৪৯/৫০) বাংলাদেশ রেলওয়ে পরিচালিত একটি যাত্রীবাহী ট্রেন। জারিয়া ঝাঞ্জাইল থেকে ঢাকা যাত্রাপথে ময়মনসিংহ জেলাগাজীপুর জেলাকে সংযুক্ত করেছে।[১]

উদ্বোধন[সম্পাদনা]

পুর্বধলাবাসীসহ সীমানত্মবর্তী দুর্গাপুর, কলমাকান্দা ও ধোবাউড়া উপজেলার জনগনের বহুল প্রতীড়্গিত ও প্রত্যাশিত জারিয়ার সাথে রাজধানী ঢাকার সরাসরি রেলযোগাযোগ অবশেষে স্থাপিত হয়েছে। পুর্বধলার জারিয়া রেলস্টেশন থেকে ঢাকার কমলাপুর স্টেশনে চলাচলকারী বলাকা এক্সপ্রেস ট্রেনটি বুধবার বিকেলে উদ্বোধন করেন পূর্বধলা থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য ওয়ারেসাত হোসেন বেলাল (বীর প্রতীক) এম. পি।[২]

যাত্রাপথ[সম্পাদনা]

বলাকা কমিউটার জালিয়া ঝাঞ্জাইল থেকে >গৌরীপুর > ময়মনসিংহ> গাজীপুর> ঢাকা মিটারগেজ রেলপথে চলাচল করে এবং যাত্রাপথে থাকা প্রায় সকল স্টেশনে যাত্রাবিরতি দেয়।

সময়সূচি[সম্পাদনা]

বলাকা কমিউটার ট্রেনের সময়সূচি নিম্নে উল্লেখ করা হলো: (বাংলাদেশ রেলওয়ের ৫২তম সময়সূচি অনুযায়ী)

  • ঢাকা থেকে ছাড়ে ভোর ৪টা ৪৫ মিনিটে, জারিয়া ঝাঞ্জাইল পৌঁছায় সকাল ১০টা ১৫ মিনিটে।
  • জারিয়া ঝাঞ্জাইল থেকে ছাড়ে দুপুর ১২টায়, ঢাকা পৌঁছায় বিকাল ৫টা ৪০ মিনিটে।

সম্পর্কিত নিবন্ধ[সম্পাদনা]

বাংলাদেশের মেইল ও কমিউটার ট্রেনের তালিকা

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]