বগুড়া এক্সপ্রেস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বগুড়া এক্সপ্রেস
সংক্ষিপ্ত বিবরণ
পরিষেবা ধরনমেইল ট্রেন
বর্তমান পরিচালকবাংলাদেশ রেলওয়ে
যাত্রাপথ
শুরুসান্তাহার রেলওয়ে স্টেশন
শেষলালমনিরহাট রেলওয়ে স্টেশন
ভ্রমণ দূরত্ব?
পরিষেবার হারদৈনিক
রেল নং১৯/২০
যাত্রাপথের সেবা
আসন বিন্যাসআছে
ঘুমানোর ব্যবস্থানাই
স্বয়ংক্রিয় আলনা ব্যবস্থানাই
খাদ্য সুবিধানাই
পর্যবেক্ষণ সুবিধাআছে
বিনোদন সুবিধাআছে
মালপত্রের সুবিধাআছে
কারিগরি
ট্র্যাক গেজ১,০০০ মিলিমিটার (৩ ফুট   ইঞ্চি)
সান্তাহার-কাউনিয়া লাইন
হতে লালমনিরহাট জংশন,পার্বতীপুর-লালমনিরহাট-বুড়িমারি লাইন
কাউনিয়া
হতে পার্বতীপুর, বুড়িমারি-লালমনিরহাট-পার্বতীপুর লাইন
আনন্দনগর
পীরগাছা
চৌধুরানী
হাসানগঞ্জ
বামনডাঙ্গা
নলডাঙ্গা
কামারপাড়া
কূপতলা
গাইবান্ধা
ত্রিমোহনী
আনন্দবাজার
বাদিয়াখালি রোড
কাঁছিপাড়া
ভরাটখালি (যমুনা নদীর উপর ফেরি ঘাট পর্যন্ত সম্প্রসারিত)
বোনাড়পাড়া
বালাশিঘাট
যমুনা নদীতে ফেরি (বর্তমানে গমনপথের অংশ নয়)
বাহাদুরাবাদ ঘাট
মহিমাগঞ্জ
শালমারা
সোনাতলা
ভেলুপাড়া
সৈয়দ আহমেদ কলেজ
শুকানপুকুর
গাবতলী
বগুড়া
কাহালু
পাঁচপীর মাজার
তালোরা
আলতাফনগর
নসরতপুর
আদমদীঘি
সান্তাহার
হতে চিলাহাটি-পার্বতীপুর-সান্তাহার-দর্শনা লাইন

সূত্র: বাংলাদেশ রেলওয়ে মানচিত্র

বগুড়া এক্সপ্রেস [১] বাংলাদেশ রেলওয়ের একটি মেইল ট্রেন। বগুড়া এক্সপ্রেস সান্তাহার থেকে লালমনিরহাট যাওয়ার পথে বগুড়া, গাইবান্ধা,রংপুরলালমনিরহাট জেলাকে সংযুক্ত করে।

যাত্রাপথ[সম্পাদনা]

বগুড়া এক্সপ্রেস সান্তাহার থেকে লালমনিরহাট রেলপথে চলাচল করে এবং যাত্রাপথে থাকা প্রায় সকল স্টেশনে যাত্রাবিরতি দেয়।

স্টেশন তালিকা[সম্পাদনা]

বগুড়া এক্সপ্রেস যেসকল স্টেশন দিয়ে চলাচল করে নিম্নে তা উল্লেখ করা হলো:

সম্পর্কিত নিবন্ধ[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "লালমনিরহাটে স্টেশনে বগুড়া এক্সপ্রেস ট্রেনের ইঞ্জিনে আগুন"ক্রাইম পেট্রোল বাংলাদেশ। ২০১৭-১২-০৫। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০২-০৪ 
  2. রিপোর্টার, স্টাফ (২০১৯-০৩-১০)। "বগুড়া ট্রেনের সময়সূচি, কখন, কোথায়, কোন ট্রেন যাবে | MorningRinger"। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০২-০৪