শাহী বাংলা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(বাংলা সালতানাত থেকে পুনর্নির্দেশিত)
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বাংলা সালতানাত
শাহী বাংলা
شاه بنگاله

 

১৩৫২–১৫৭৬
 

 

১৫০০ খ্রিষ্টাব্দে বাংলা সালতানাত, বাংলা ও বিহার, আসাম ও আরাকানের অংশবিশেষ নিয়ে গঠিত।
রাজধানী গৌড়, পান্ডুয়া, সোনারগাঁও[১]
ভাষাসমূহ ফারসি (সরকারি), বাংলা (সরকারি), আরবি(ধর্মীয়), মৈথিলী, বিহারী, অসমীয়া
ধর্ম ইসলাম(সরকারি), হিন্দুধর্ম, বৌদ্ধধর্ম
সরকার রাজতন্ত্র
ইতিহাস
 -  মধ্য যুগ ১৩৫২
 -  প্রাক আধুনিক ১৫৭৬
মুদ্রা টঙ্কা
বর্তমানে অংশ  বাংলাদেশ
 মায়ানমার (রোসাঙ্গ)
 ভারত (পশ্চিম বাংলা,বিহার,ঝাড়খণ্ড,ত্রিপুরা,আসাম, মেঘালয়,সিক্কিম,মিজোরাম)
   নেপাল (মেচী অঞ্চল)
সতর্কীকরণ: "মহাদেশের" জন্য উল্লিখিত মান সম্মত নয়
National emblem of Bangladesh.svg

এটি একটি ধারাবাহিক নিবন্ধশ্রেণীর অংশ যার বিষয়:

বাংলাদেশের ইতিহাস

প্রাচীন ইতিহাস
প্রাচীন ইতিহাস
গুপ্ত সাম্রাজ্য
গুপ্তোত্তর কাল
পাল সাম্রাজ্য
সেন রাজবংশ
মধ্যযুগীয় ইতিহাস
মুসলিম শাসন প্রতিষ্ঠা
তুর্কী শাসন
ইলিয়াস শাহী শাসন
হুসেন শাহী যুগ
আফগান শাসন
মুগল শাসন
ইংরেজ শাসন প্রতিষ্ঠা
ঔপনিবেশিক যুগ
ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির শাসন
বৃটিশ বিরোধী সশস্ত্র আন্দোলন
নবজাগরণ
বঙ্গভঙ্গ
দেশ বিভাগ
বাংলাদেশের মুক্তি সংগ্রাম
পূর্ব পাকিস্তানে বৈষম্য
স্বাধীনতা যুদ্ধ
স্বাধীন বাংলাদেশ
১৯৭২ - ১৯৭৫
১৯৭৬ - ১৯৯০
১৯৯১ - ২০০৬

প্রবেশদ্বার আইকন বাংলাদেশ প্রবেশদ্বার


বাগেরহাটের ষাট গম্বুজ মসজিদ। বর্তমানে ইউনেস্কো কর্তৃক বিশ্ব ঐতিহ্য স্থান ঘোষিত হয়েছে।
গৌড়ের প্রাচীন প্রবেশদ্বার
রাজশাহীর সোনা মসজিদ
গৌড়ের ফিরোজ মিনার।
দিনাজপুরে অবস্থিত শামসউদ্দিন আহমাদ শাহর প্রাসাদের ধ্বংসাবশেষ।

বাংলা সালতানাত বা শাহী বাংলা (ফার্সি: شاهی بنگاله‎‎, শাহী বাঙ্গালাহ[২]) ছিল মধ্যযুগের বাংলায় একটি মুসলিম স্বাধীন রাষ্ট্র।[৩][৪][৫] যা ১৩শ থেকে ১৬শ শতক পর্যন্ত টিকে ছিলো।[৬] ১৩৪২ সালে গৌড়ে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। আধুনিক বাংলাদেশ, পূর্ব ভারতপশ্চিম বার্মাতে এর প্রভাব বর্তমান রয়েছে। তুর্কি, আরব, পারসিয়ান, বাঙালিহাবশি বংশোদ্ভূত বেশ কিছু রাজবংশ এর শাসনভার লাভ করে। ১৬ শতকের শেষের দিকে সালতানাত ভেঙে যায় এবং মোগল সাম্রাজ্য ও আরাকানি মারুক ইউ এর রাজ্যের অংশে পরিণত হয়। ইউরোপবাসীরা বাংলাকে পৃথিবীর সবচেয়ে ধনী বাণিজ্য দেশ হিসেবে গন্য করতো।[৭] মুঘল সাম্রাজ্য আমলে বিশ্বের মোট উৎপাদনের (জিডিপির) ১২ শতাংশ উৎপন্ন হত সুবাহ বাংলায়,[৮][৯][১০] যা সে সময় সমগ্র ইউরোপের জিডিপির চেয়ে বেশি ছিল।[১১][১২]

ইতিহাস[সম্পাদনা]

১৩৪২ সালে স্থানীয় সেনাপতি শামসউদ্দিন ইলিয়াস শাহ নিজেকে লখনৌতির রাজা ঘোষণা করেন। তিনি সোনারগাও এর ফখরুদ্দিন মোবারক শাহ সহ স্বাধীন সুলতান্দের জয় করার মাধ্যমে নিজের শাসন সংহত করেন এবং ১৩৫২ সালে নিজেকে বাংলার সুলতান ঘোষণা করেন।[১৩]

ঘাঘরার যুদ্ধে সুলতান নাসিরউদ্দিন নুসরাত শাহ বাবরের কাছে পরাজিত হন। এর পর ধীরে ধীরে বাংলা মোগল সাম্রাজ্যের অংশে পরিণত হয়।

সুলতানগণ[সম্পাদনা]

ইলিয়াস শাহি রাজবংশ (১৩৫২-১৪১৪)[সম্পাদনা]

নাম শাসনকাল নোট
শামসউদ্দিন ইলিয়াস শাহ ১৩৫২–১৩৫৮ সোনারগাঁও, সপ্তগ্রামগৌড়ের সমন্বয়ে গঠিত বাংলার প্রথম স্বাধীন শাসক হন।
সিকান্দার শাহ ১৩৫৮–১৩৯০ তার উত্তরাধিকারী গিয়াসউদ্দিন আজম শাহ কর্তৃক নিহত
গিয়াসউদ্দিন আজম শাহ ১৩৯০–১৪১১
সাইফউদ্দিন হামজা শাহ ১৪১১–১৪১৩
মুহাম্মদ শাহ বিন হামজা শাহ ১৪১৩ দিনাজপুরের জমিদার রাজা গণেশের আদেশে তার পিতার দাস শিহাবউদ্দিন বায়েজিদ শাহ কর্তৃক নিহত।

বায়েজিদ শাহি রাজবংশ(১৪১৩-১৪১৪)[সম্পাদনা]

নাম শাসনকাল নোট
শিহাবউদ্দিন বায়েজিদ শাহ ১৪১৩–১৪১৪
প্রথম আলাউদ্দিন ফিরোজ শাহ ১৪১৪ শিহাবউদ্দিন বায়েজিদ শাহর পুত্র। রাজা গণেশ কর্তৃক নিহত।

রাজা গণেশের পরিবার (১৪১৪-১৪৩৫)[সম্পাদনা]

নাম শাসনকাল নোট
রাজা গণেশ ১৪১৪–১৪১৫
জালালউদ্দিন মুহাম্মদ শাহ ১৪১৫–১৪১৬ রাজা গণেশের পুত্র। তিনি ইসলাম গ্রহণ করেন।
রাজা গণেশ ১৪১৬–১৪১৮ দ্বিতীয় দফা
জালালউদ্দিন মুহাম্মদ শাহ ১৪১৮–১৪৩৩ দ্বিতীয় দফা
শামসউদ্দিন আহমাদ শাহ ১৪৩৩–১৪৩৫

পুনপ্রতিষ্ঠিত ইলিয়াস শাহি রাজবংশ (১৪৩৫-১৪৮৭)[সম্পাদনা]

নাম শাসনকাল নোট
নাসিরউদ্দিন মাহমুদ শাহ ১৪৩৫–১৪৫৯
রুকনউদ্দিন বারবাক শাহ ১৪৫৯–১৪৭৪
শামসউদ্দিন ইউসুফ শাহ ১৪৭৪–১৪৮১
দ্বিতীয় সিকান্দার শাহ ১৪৮১
জালালউদ্দিন ফাতেহ শাহ ১৪৮১–১৪৮৭

হাবশি শাসন (১৪৮৭-১৪৯৪)[সম্পাদনা]

নাম শাসনকাল নোট
শাহজাদা বারবাক ১৪৮৭
সাইফউদ্দিন ফিরোজ শাহ ১৪৮৭–১৪৮৯
দ্বিতীয় মাহমুদ শাহ ১৪৮৯–১৪৯০
শামসউদ্দিন মোজাফফর শাহ ১৪৯০–১৪৯৪

হোসেন শাহি রাজবংশ (১৪৯৪-১৫৩৮)[সম্পাদনা]

নাম শাসনকাল নোট
আলাউদ্দিন হোসেন শাহ ১৪৯৪–১৫১৮
নাসিরউদ্দিন নুসরাত শাহ ১৫১৮–১৫৩৩
দ্বিতীয় আলাউদ্দিন ফিরোজ শাহ ১৫৩৩
গিয়াসউদ্দিন মাহমুদ শাহ ১৫৩৩–১৫৩৮

সুরি সাম্রাজ্যের অধীন বাংলার গভর্নর (১৫৩২-১৫৫৫)[সম্পাদনা]

নাম শাসনকাল নোট
শের শাহ ১৫৩২–১৫৩৮ ১৫৪০ সালে মোগলদের পরাজিত করে দিল্লীর শাসক হন।
খিজির খান ১৫৩৮–১৫৪১
কাজি ফাজিলাত ১৫৪১–১৫৪৫
মুহাম্মদ খান শুর ১৫৪৫–১৫৫৪
শাহবাজ খান ১৫৫৫

মুহাম্মদ শাহ রাজবংশ (১৫৫৪-১৫৬৪)[সম্পাদনা]

নাম শাসনকাল নোট
মুহাম্মদ খান শুর ১৫৫৪–১৫৫৫ স্বাধীনতা ঘোষণা করেন এবং শামসউদ্দিন মুহাম্মদ শাহ নাম ধারণ করেন।
খিজির খান শুরি ১৫৫৫–১৫৬১
গিয়াসউদ্দিন জালাল শাহ ১৫৬১–১৫৬৪
তৃতীয় গিয়াসউদ্দিন শাহ ১৫৬৪

কররানী রাজবংশ (১৫৬৪-১৫৭৬)[সম্পাদনা]

নাম শাসনকাল নোট
তাজ খান কররানী ১৫৬৪–১৫৬৬
সুলায়মান খান কররানী ১৫৬৬–১৫৭২
বায়েজিদ খান কররানী ১৫৭২
দাউদ খান কররানী ১৫৭২–১৫৭৬

প্রতিষ্ঠিত শহর[সম্পাদনা]

অর্থনীতি[সম্পাদনা]


সংস্কৃতি[সম্পাদনা]

বৈদেশিক সম্পর্ক[সম্পাদনা]

সাইফউদ্দিন হামজা শাহর পোষা জিরাফ, সালতানাতের সাথে চীনের মিং রাজবংশের সুসম্পর্কের নিদর্শন হিসেবে সম্রাট ইয়ংগেলকে এটি উপহার দেয়া হয়।

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Sonargaon - Banglapedia"en.banglapedia.org 
  2. "History"। Banglapedia। ২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৭Shah-i-Bangalah, Shah-i-Bangaliyan and Sultan-i-Bangalah 
  3. Wink, André (২০০৩)। Indo-Islamic society: 14th - 15th centuries (ইংরেজি ভাষায়)। BRILL। আইএসবিএন 978-9004135611 
  4. Uhlig, Siegbert (২০০৩)। Encyclopaedia Aethiopica। পৃষ্ঠা 151। 
  5. Embree, Ainslie (১৯৮৮)। Encyclopedia of Asian history। Asia Society। পৃষ্ঠা 149। 
  6. Wink, André (১৯৯১)। Indo-Islamic society: 14th - 15th centuries (ইংরেজি ভাষায়)। BRILL। আইএসবিএন 9789004135611 
  7. Nanda, J. N., 1920- (২০০৫)। Bengal : the unique state। New Delhi: Concept Pub. Co। আইএসবিএন 8180691497ওসিএলসি 184985854 
  8. মুহাম্মদ শাহ আলম (২০১৬)। Poverty From The Wealth of Nations: Integration and Polarization in the Global Economy since 1760স্প্রিঙ্গার সায়েন্স+বিজনেস মিডিয়া। পৃষ্ঠা ৩২। আইএসবিএন 978-0-333-98564-9 
  9. খন্দকার, হিশাম (৩১ জুলাই ২০১৫)। "Which India is claiming to have been colonised?"দ্য ডেইলি স্টার (উপ-সম্পাদকীয়)। 
  10. ম্যাডিসন, অ্যাঙ্গাস (২০০৩)। Development Centre Studies The World Economy Historical Statistics: Historical Statistics। ওইসিডি পাবলিশিং। পৃষ্ঠা ২৫৯–২৬১। আইএসবিএন 9264104143 
  11. লরেন্স হ্যারিসন, পিটার এল. বার্জার (২০০৬)। Developing cultures: case studies। রৌটলেজ। পৃষ্ঠা ১৫৮। আইএসবিএন 9780415952798 
  12. Andaya, Barbara Watson,। A history of early modern Southeast Asia, 1400-1830। Andaya, Leonard Y.। Cambridge। পৃষ্ঠা ১১৪। আইএসবিএন 9780521889926ওসিএলসি 867916742 
  13. Chakrabarti, Kunal.। Historical dictionary of the Bengalis। Chakrabarti, Shubhra, 1954-। Lanham [Maryland]। আইএসবিএন 9780810880245ওসিএলসি 861692768 

গ্রন্থপঞ্জি[সম্পাদনা]

  • The Bengal Sultanate: Politics, Economy and Coins, A.D. 1205-1576, Syed Ejaz Hussain (2003)
  • The Rise of Islam and the Bengal Frontier, Richard M. Eaton (1996)
  • Sultans and Mosques: The Early Muslim Architecture of Bangladesh, Perween Hasan (2007)
  • Yegar, Moshe (২০০২)। Between Integration and Secession: The Muslim Communities of the Southern Philippines, Southern Thailand, and Western Burma/Myanmar। Lanham, MD: Lexington Books। পৃষ্ঠা 23–24। আইএসবিএন 978-0-7391-0356-2 
  • Hussain, Syed Ejaz (2003). The Bengal Sultanate: Politics, Economy and Coins, A.D. 1205–1576. Manohar. আইএসবিএন ৯৭৮-৮১-৭৩০৪-৪৮২-৩.
  • The Grammar of Sultanate Mosque in Bengal Architecture, Nujaba Binte Kabir (2012)