বিশ্ব ঐতিহ্যবাহী স্থান

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ওয়ার্ল্ড হেরিটেজের প্রতীক

বিশ্ব ঐতিহ্যবাহী স্থান বা ইউনেস্কো বিশ্ব ঐতিহ্যবাহী স্থান বিশেষ ধরণের (বন, পাহাড়, হ্রদ, মরুভূমি, স্মৃতিস্তম্ভ, দালান, প্রাসাদ বা শহর) একটি স্থান যা আন্তর্জাতিক বিশ্ব ঐতিহ্য প্রকল্প কর্তৃক প্রস্তুতকৃত তালিকার মধ্যে স্থান পেয়েছে। ইউনেস্কো নিয়ন্ত্রিত বিশ্ব ঐতিহ্য কমিটি এই প্রকল্প পরিচালনা করে থাকে যার সদস্য সংখ্যা ২১। সদস্য দেশগুলো জেনারোল এসেম্বলি অফ স্টেট পার্টিস কর্তৃক একটি নির্দিষ্ট সময়ের জন্য নির্বাচিত হয়। এই সদস্য দেশগুলোকে প্রকল্পের স্টেট পার্টি বলা হয়।[১] এই কমিটিটি জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের অনুরুপ।

এই প্রকল্পের কাজ হলো অনন্য সাধারণ সাংস্কৃতিক ও প্রাকৃতিক গুরুত্ববিশিষ্ট স্থানসমূহের নাম লিপিবদ্ধ করা এবং তাদের শ্রেণীকরণের জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা। কিছু বিশেষ শর্তসাপেক্ষে এই স্থানগুলোর রক্ষণাবেক্ষণের জন্য বিশ্ব ঐতিহ্য ফান্ড অর্থ সাহায্য দিয়ে থাকে। ২০০৬ সাল পর্যন্ত এ ধরণের মোট ৮৩০টি স্থানের নাম লিপিবদ্ধ করা হয়েছে। এর মধ্যে ৬৪৪টি সাংস্কৃতিক, ১৬২টি প্রাকৃতিক এবং ২৪টি মিশ্র শ্রেণীর। মোট ১৩৮টি রাষ্ট্রে এই স্থানগুলো অবস্থিত। ইউনেস্কোর নীতি অনুসারে প্রতিটি ঐতিহ্যবাহী স্থানের একটি পরিচয়বাহী নম্বর দেয়া হয়। বর্তমানে এই নম্বরের সংখ্যা ১২০০ ছাড়িয়ে গেছে যদিও স্থানের সংখ্যা আরও কম। প্রতিটি ঐতিহ্যবাহী স্থানের সমুদয় সম্পত্তি ও জমির মালিক ঐ স্থানটি যে দেশে অবস্থিত সেই দেশ। তবে এই স্থানগুলো রক্ষার দায়িত্ব বর্তায় আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের। তাই বিশ্ব ঐতিহ্যবাহী স্থান প্রকল্পের আওতাভুক্ত সকল রাষ্ট্রই প্রতিটি স্থান রক্ষার ব্যাপারে ভূমিকা রাখতে পারে।

নির্বাচন মানদণ্ড[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "About World Heritage"। World Heritage। সংগৃহীত 2006-10-14 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]