বিরাট কোহলি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বিরাট কোহলি
Virat Kohli portrait.jpg
২০১৮ সালে কোহলি
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামবিরাট কোহলি
জন্ম (1988-11-05) ৫ নভেম্বর ১৯৮৮ (বয়স ৩১)
দিল্লি, ভারত
ডাকনামচিকু[১]
উচ্চতা৫ ফুট ৯ ইঞ্চি (১.৭৫ মিটার)
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি মিডিয়াম পেস
ভূমিকাব্যাটসম্যান
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ২৬৮)
২০ জুন ২০১১ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ
শেষ টেস্ট২০ ডিসেম্বর ২০১৭ বনাম ইংল্যান্ড
ওডিআই অভিষেক
(ক্যাপ ১৭৫)
১৮ আগস্ট ২০০৮ বনাম শ্রীলঙ্কা
শেষ ওডিআই২৩ জানুয়ারি ২০১৭ বনাম অস্ট্রেলিয়া
ওডিআই শার্ট নং১৮
টি২০আই অভিষেক
(ক্যাপ ৩১)
১২ জুন ২০১০ বনাম জিম্বাবুয়ে
শেষ টি২০আই৩১ মার্চ ২০১৬ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
২০০৬-বর্তমানদিল্লি
২০০৮-বর্তমানরয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট ওডিআই টি২০আই এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ৭৭ ২৩৩ ৬৭ ১০৯
রানের সংখ্যা ৬,৬১৩ ১১,৪০৬ ২,২৬৩ ৮,৮৬২
ব্যাটিং গড় ৫৩.৭৬ ৫৯.৭০ ৫০.২৮ ৫৪.০৩
১০০/৫০ ২৫/২০ ৪২/৫৪ ০/২০ ৩২/২৮
সর্বোচ্চ রান ২৪৩ ১৮৩ ৯০* ২৪৩
বল করেছে ১৬৩ ৬৪১ ১৪৬ ৬৩১
উইকেট
বোলিং গড় ১৬৬.২৫ ৪৯.৫০ ১১০.০০
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট -
সেরা বোলিং - ১/১৫ ১/১৩ ১/১৯
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ৭২/– ১১৪/– ৩৪/– ১০৩/–
উৎস: ইএসপিএন ক্রিকইনফো, ৩০ জুন ২০১৯

বিরাট কোহলি (পাঞ্জাবী: ਵਿਰਾਟ ਕੋਹਲੀ; এই শব্দ সম্পর্কেউচ্চারণ ; জন্ম: ৫ নভেম্বর, ১৯৮৮) দিল্লিতে জন্মগ্রহণকারী ভারতের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার।বাবার নাম প্রেম কোহলি। তিনি মাঝারি সারির ডানহাতি ব্যাটসম্যানরূপে পরিচিত। তবে, মাঝে-মধ্যে উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান হিসেবেও ব্যাটিংয়ে নেমে থাকেন তিনি। এছাড়াও, ডানহাতে মিডিয়াম পেস বোলিং করে থাকেন।[২] মালয়েশিয়ায় অনুষ্ঠিত ২০০৮ সালের আইসিসি অনূর্ধ্ব-১৯ ক্রিকেট বিশ্বকাপের শিরোপা বিজয়ী ভারতীয় দলের অধিনায়ক ছিলেন তিনি এবং এর কয়েকমাস পরে ১৯ বছর বয়সে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ভারতের হয়ে ওয়ান ডে তে অভিষেক হয়েছিল তাঁর। তিনি শীঘ্রই ওয়ানডে তে মিডল অর্ডারে নিয়মিত হিসাবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেছিলেন এবং ২০১১ সালের বিশ্বকাপ ভারততের জয়ই দলের সদস্য ছিলেন। তিনি ২০১১ সালে টেস্ট অভিষেক করেছিলেন এবং ২০১৩ সালের মধ্যে অস্ট্রেলিয়া ও দক্ষিণ আফ্রিকার টেস্টে শতরান করে নিজেকে একজন টেস্টে ক্রিকেটার প্রমাণ করেছিলেন।[৩]

২০১৩ সালে প্রথমবার তিনি ওয়ান ডে ব্যাটসম্যানদের আইসিসি র‌্যাঙ্কিংয়ের প্রথম স্থানে পৌঁছে যান,[৪] টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটেও কোহলি সাফল্য এসেছে এবং আইসিসি ওয়ার্ল্ড টি-টোয়েন্টিতে দু-দুবার তিনি ম্যান অফ দ্য টুর্নামেন্ট হয়েছিলেন (২০১৪ এবং ২০১৬ সালে)। ২০১৪ সালে মহেন্দ্র সিং ধোনির টেস্ট অবসর গ্রহণের পর কোহলি ওয়ানডে দলের সহ-অধিনায়ক নিযুক্ত হয়ে টেস্ট অধিনায়কত্বের দায়িত্ব পান। ২০১৭ সালের প্রথম দিকে, ধোনি অধিনায়ক পদ থেকে পদত্যাগ করার পরে তিনি ওয়ানডেতেও অধিনায়ক হন। ওয়ানডে ক্রিকেটে সবচেয়ে দ্রুততম ব্যাটসম্যান হিসেবে ১০,০০০ এবং ১১,০০০ রানের রেকর্ডটি তারই করা, যথাক্রমে ২০৫ ও ২২২ রান করে ছিলেন।[৫][৬] বর্তমানে, ভারতের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সকল স্তরে মহেন্দ্র সিং ধোনি’র পরিবর্তে তিনি অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি বর্তমানে বিশ্বের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান হিসাবে বিবেচিত।[৭] এছাড়াও তিনি ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল) রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর হয়ে খেলেন, এবং ২০১৩ সাল থেকে দলের অধিনায়ক ছিলেন। অক্টোবর ২০১৭ সাল থেকে তিনি বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় ওয়ান ডে ব্যাটসম্যান এবং টেস্ট র‌্যাঙ্কিংয়ে বর্তমানে ২ য় অবস্থানে রয়েছেন।[৮] ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের মধ্যে কোহলির সেরা টেস্ট রেটিং (৯৩৭ পয়েন্ট), ওয়ানডে রেটিং (৯১১ পয়েন্ট) এবং টি ২০ রেটিং (৮৯৭ পয়েন্ট) রয়েছে।

পরবর্তীকালে, তিনি অনেক পুরস্কারে পুরস্কৃত হয়েছেন, যেমন ২০১৩ সালে 'অর্জুন' পুরষ্কার, ২০১৭ সালে 'পদ্মশ্রী'[৯] এবং ২০১৮ সালে ভারতের সর্বোচ্চ ক্রীড়া সম্মান "রাজীব গান্ধী খেলরত্ন" পেয়েছিলেন।[১০] ইএসপিএন দ্বারা কোহলি বিশ্বের অন্যতম বিখ্যাত অ্যাথলেট [১১] এবং ফোর্বসের অন্যতম মূল্যবান অ্যাথলেট ব্র্যান্ড হিসাবে স্থান পেয়েছেন।[১২] ২০১৮ সালে, টাইম ম্যাগাজিন কোহলিকে বিশ্বের অন্যতম ১০০ প্রভাবশালী ব্যক্তি মধ্যে একজনের আখ্যা দিয়েছিল।[১৩] ২০১৭ এবং ২০১৮ সাল, পর পর দু বছর কোহলি, স্যার গারফিল্ড সোবার্স ট্রফি (আইসিসির বর্ষসেরা ক্রিকেটার) অর্জন করেছিলেন। আইসিসির টেস্ট প্লেয়ার অফ ২০১৮; ২০১২, ২০১৭ এবং ২০১৮ সালের আইসিসি ওয়ান ডে খেলোয়াড় এবং উইজডেন বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় ক্রিকেটার ২০১৬, ২০১৭ এবং ২০১৮ সালে।[১৪]

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

৫ নভেম্বর, ১৯৮৮ তারিখে প্রেমসরোজ কোহলি দম্পতির সন্তান বিরাট কোহলি দিল্লিতে জন্মগ্রহণ করেন।[১৫] বাবা পেশায় আইনজীবি ছিলেন ও ২০০৬ সালে মৃত্যুবরণ করেন।[১৫] তার বিকাশভাবনা নামের বড় দুই ভাই-বোন রয়েছে।[১৬] বিশাল ভারতী ও স্যাভিয়ের কনভেন্টে পড়াশোনা করেন কোহলি।

খেলোয়াড়ী জীবন[সম্পাদনা]

১৮ আগস্ট, ২০০৮ তারিখে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষিক্ত হন কোহলি। একদিবসীয় ক্রিকেটে নিয়মিত অংশগ্রহণ করা স্বত্বেও তিনি টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে ২০১১ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে কিংস্টনে। ২০১১/১২ মৌসুমে অস্ট্রেলিয়া সফরে ভারতীয় দলের ব্যাপক বিপর্যয় ঘটে। সেখানে জ্যেষ্ঠ খেলোয়াড়গণ ব্যর্থ হলেও কোহলি অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে অ্যাডিলেডে তার প্রথম শতক করেন।[১৭]

এছাড়াও, বাংলাদেশ-ভারত-শ্রীলঙ্কায় যৌথভাবে অনুষ্ঠিত ২০১১ সালের বিশ্বকাপ ক্রিকেটের শিরোপা বিজয়ী দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি।

ক্রিকেটের বাইরে[সম্পাদনা]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

ভোগ পুরস্কারে অনুষ্কা শর্মা ও বিরাট কোহলি।

২০১৩ সাল থেকে কোহলি বলিউডের অভিনেত্রী অনুষ্কা শর্মার সাথে প্রেমের সম্পর্কে জড়ান৷[১৮] তাদের সম্পর্ক নিয়ে গণমাধ্যমে গুঞ্জন শুনা যেত।[১৯] তারা ২০১৭ সালের ১১ ডিসেম্বর ইতালিতে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন।[২০][২১][২২]

কোহলি স্বীকার করেন যে তিনি কুসংস্কারে বিশ্বাসী। তিনি হাতে একটি কালো রিস্টব্যান্ড পড়তেন। এর পূর্বে তিনি যে গ্লোভস পড়ে রান পেয়েছিলেন সেই গ্লোভস জোড়া পড়ে মাঠে নামতেন।

বাণিজ্যিক বিনিময়ে[সম্পাদনা]

কোহলির দ্বিতীয় প্রিয় খেলা হল ফুটবল।[২৩] ২০১৪ সালে তিনি ইন্ডিয়ান সুপার লীগের ক্লাব এফসি গোয়ার সহ-মালিকানা গ্রহণ করেন। তিনি বলেন যে তিনি তার "ফুটবলের প্রতি আগ্রহ" থেকে ক্লাবটিতে বিনিয়োগ করেন এবং চান "ভারতে ফুটবল বিকাশ লাভ করুক"।[২৪] তিনি আরও বলেন, "এটি আমার কাছে ভবিষ্যতের জন্য একটি ব্যবসায়িক বিনিয়োগ। ক্রিকেট আজীবন খেলে যেতে পারব না, তাই আমি অবসরের পর সকল সুযোগ জিইয়ে রাখছি।"[২৩]

আর্থিক প্রতিপত্তি[সম্পাদনা]

কোহলির মোট সম্পদের পরিমাণ ৩৮২ কোটি রুপি। ফোর্বস সাময়িকীর চোখে ব্র্যান্ডমূল্যে কোহলি এগিয়ে আছেন লিওনেল মেসির চেয়েও। মেসির অবস্থান নয়ে, কোহলির সাত। বছরে তার আয় ১২১ কোটি রুপির মতো। আইপিএল খেলার বিনিময়ে প্রতি বছর রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর কাছ থেকে 16 কোটি রুপি বেতন নেন। বান্দ্রায় ৯ কোটি রুপির ফ্ল্যাট আছে। কোহলি ১৮ ব্র্যান্ডের প্রচার করেন। এক দিনের বিজ্ঞাপনের জন্য কোহলি প্রায় পাঁচ কোটি রুপি নেন।[তথ্যসূত্র প্রয়োজন]

সম্মাননা[সম্পাদনা]

২০১২ সালে আইসিসির বর্ষসেরা একদিনের ক্রিকেটার হিসেবে আইসিসি পুরস্কার লাভের মর্যাদা লাভ করেন কোহলি।[২৫] ২০১৬ সালে উইজডেন কর্তৃক বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় ক্রিকেটারের মর্যাদা পান।

২০১৪ সালে মার্টিন ক্রো টেস্ট ক্রিকেটের তরুণ চার ফ্যাবের অন্যতম হিসেবে জো রুট, কেন উইলিয়ামসনস্টিভ স্মিথের সাথে তাকেও অন্তর্ভূক্ত করেন।[২৬][২৭]

কোহলি ২০১৭ এবং ২০১৮ সালে জিতেছেন বর্ষসেরা ক্রিকেটারের স্যার গারফিল্ড সোবার্স ট্রফি। এর মধ্যে ২০১৮ সালে একই সঙ্গে আইসিসি বর্ষসেরা টেস্ট এবং ওয়ানডে ক্রিকেটার হয়েছেন যা ইতঃপূর্বে আর কেউ হতে পারেন নি।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Kohli will take Indian cricket places"। Rediff। সংগ্রহের তারিখ ২৪ ডিসেম্বর ২০১৫ 
  2. Virat Kohli profile, সংগ্রহের তারিখ ১৬ এপ্রিল ২০০৮ 
  3. "India vs South Africa 2013: Post-Tendulkar era begins, Virat Kohli shines"। Zee News। ১৮ ডিসেম্বর ২০১৩। ১৮ মে ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১২ মে ২০১৫ 
  4. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; odirank নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  5. "The Kohli v Tendulkar comparison"। ২৪ অক্টোবর ২০১৮। 
  6. "Virat Kohli becomes fastest batsman to score 11,000 runs in ODIs" 
  7. "ICC player rankings"ESPNCricinfo 
  8. "Virat Kohli receives Padma Shri Award at Rashtrapati Bhavan"The Indian Express। ৩১ মার্চ ২০১৭। ৩০ আগস্ট ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৭ 
  9. "Virat Kohli, Mirabai Chanu bask in Khel Ratna glory - Times of India ►"The Times of India। সংগ্রহের তারিখ ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮ 
  10. "ESPN's World Fame 100"। ESPN। ১৩ জুলাই ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৩ জুলাই ২০১৬ 
  11. "Virat Kohli ranked 7th biggest brand in world sports by Forbes"। ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  12. Diesel, Vin। "virat kohli"Time। সংগ্রহের তারিখ ৫ জুন ২০১৮ 
  13. http://m.wisdenindia.com/full-story.php?category=Wisden%20Cricketers’%20Almanack%202018&id=296545&[স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  14. Ganguly, Arghya (৩ মার্চ ২০০৮), "Virat changed after his father's death: Mother", Times of India, সংগ্রহের তারিখ ৪ মার্চ ২০১২ 
  15. "Being aggressive comes naturally: Virat Kohli – Young turk speaks about his likes and Dislikes", The Telegraph, Calcutta, India, ৭ মার্চ ২০১১, সংগ্রহের তারিখ ১৩ মার্চ ২০১২  Authors list-এ |প্রথমাংশ1= এর |শেষাংশ1= নেই (সাহায্য)
  16. "Virat Kohli | Cricket Players and Officials"। ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৯ জুলাই ২০১২ 
  17. Nath, Deepika (২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১১)। "Cricketer Virat Kohli – India's latest sex symbol?"দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৪ মার্চ ২০১২ 
  18. "Virat Kohli swears by girlfriend Anushka, abuses HT journalist" (ইংরেজি ভাষায়)। হিন্দুস্তান টাইমস। সংগ্রহের তারিখ ১২ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  19. "It's official: Anushka Sharma and Virat Kohli are married"দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউন (ইংরেজি ভাষায়)। ১১ ডিসেম্বর ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ১২ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  20. "Virat Kohli officially announces marriage to Anushka Sharma, Twitter goes berserk"হিন্দুস্তান টাইমস (ইংরেজি ভাষায়)। ১১ ডিসেম্বর ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ১২ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  21. "CONFIRMED: Anushka Sharma and Virat Kohli get hitched in Italy!"বলিউড হাঙ্গামা (ইংরেজি ভাষায়)। ১১ ডিসে ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ১২ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  22. "ISL: Virat Kohli starts a new innings as FC Goa co-owner" (ইংরেজি ভাষায়)। মিড ডে। সংগ্রহের তারিখ ১২ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  23. "Virat Kohli: 25, Cricket star, co-owner of ISL team FC Goa" (ইংরেজি ভাষায়)। দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস। সংগ্রহের তারিখ ১২ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  24. "Virat Kohli wins ICC one-day player of the year award" (ইংরেজি ভাষায়)। ইন্ডিয়া টুডে। সংগ্রহের তারিখ ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১২ 
  25. "Test cricket's young Fab Four"। ESPNcricinfo। 
  26. "Virat Kohli, Joe Root, Steven Smith, Kane Williamson 'Fab Four' of Tests: Martin Crowe" (ইংরেজি ভাষায়)। দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস। 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]


পূর্বসূরী
কুমার সাঙ্গাকারা
বর্ষসেরা একদিনের আন্তর্জাতিক খেলোয়াড়
২০১২
উত্তরসূরী
কুমার সাঙ্গাকারা