হরভজন সিং

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

হরভজন সিং এর পুরো নাম হরভজন সিং প্লাহা। (জন্ম: ৩রা জুলাই ১৯৮০, জলন্ধর, পাঞ্জাব, ভারত)। তিনি একজন ভারতীয় ক্রিকেটার। বিশেষত তিনি একজন বোলার। অফ স্পিন এর দ্বারা ২য় সর্বোচ্চ উইকেট পেয়েছেন তিনি, শ্রীলঙ্কান মুত্তিয়া মুরালিধরন এর পরেই তার স্থান । তিনি প্রথম টেস্ট ও একদিনের খেলা খেলে ছিলেন ১৯৯৮ তে। তার নিয়ম- শৃঙ্খলা এবং বোলিং একশন ক্রিকেট কর্তাদের কাছে বিশেষ দৃষ্টি আকর্ষণ করেছিল।[১]

নিজস্ব জীবন[সম্পাদনা]

হরভজন পাঞ্জাবের মধ্যবিত্য পরিবারে জন্মেছেন। তিনি ছিলেন সরদার সরদেভ সিং এর একমাত্র ছেলে। তার পিতা ছিলেন একজন বাবসায়ি । তার ৫ বোন ছিল। প্রথম জীবনে তিনি একজন ব্যাটসম্যান হিসেবে শিক্ষা পেয়েছিলেন। তার প্রথম শিক্ষক চ্রন জিত সিং ভুলার এর কাছ থেকে। পরে তিনি বোলার হিসেবে জীবন শুরু করেন। তার নাম ছিল বাল। তিনি হাওড়ার শিবপুরে পড়াশুনা করেছেন। আর ছেলেবেলা কেটেছে আমার গ্রাম মানিকপাড়া তে। স্কুল জীবন কেটেছে মানিকপাড়া হাই স্কুলে।

খেলোয়াড়ী জীবন[সম্পাদনা]

১০-১৪ জুন, ২০১৫ তারিখে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ সফরে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার খান সাহেব ওসমান আলী স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত বৃষ্টিবিঘ্নিত একমাত্র টেস্টের প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশ দলের বিপক্ষে তিনি ৩/৬৪ লাভ করেন। মমিনুল হকের উইকেট নিয়ে হরভজন সিং ওয়াসিম আকরামের সমকক্ষ হন ও পরবর্তীতে ইমরুল কায়েসকে আউট করে নবম সর্বোচ্চ উইকেট সংগ্রহকারী হন। স্পিনারদের মধ্যে কেবলমাত্র মুত্তিয়া মুরালিধরন (৮০০), শেন ওয়ার্ন (৭০৮) ও অনিল কুম্বলে (৬১৯) তার সামনে রয়েছেন।[২]

রেকর্ড[সম্পাদনা]

টেস্ট[সম্পাদনা]

ম্যাচে ১০ বা তার বেশি উইকেট নেবার রেকর্ড রয়েছে তার নামে। ৫ বার এই কীর্তি রয়েছে তার নামে।

১০ বা তার বেশি উইকেট
সাল বিপক্ষ মাঠ ম্যাচের ফল
২০০১  অস্ট্রেলিয়া ইডেন গার্ডেন্স ভারত ১1১ রানে জিতেছে
২০০১  অস্ট্রেলিয়া এম. এ. চিদাম্বরম স্টেডিয়াম ভারত ২ উইকেটে জিতেছে
২০০৪  অস্ট্রেলিয়া এম. চিন্নাস্বামী স্টেডিয়াম অস্ট্রেলিয়া 217 রানে জিতেছে
২০০৫  শ্রীলঙ্কা সরদার প্যাটেল স্টেডিয়াম ভারত 259 রানে জিতেছে
২০০৮  শ্রীলঙ্কা গালে আন্তর্জাতিক স্টেডিয়াম ভারত ১৭০ রানে জিতেছে

[৩]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. http://content-aus.cricinfo.com/ci/content/player/২৯২৬৪.html[স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  2. Jeswant, Bishen। "Rainy draws and sparkling debuts, Bangladesh v India, only Test, Fatullah, 5th day"Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ জুন ১৪, ২০১৫ 
  3. "Records"