৬ মে

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
১০ ১১ ১২ ১৩ ১৪ ১৫ ১৬
১৭ ১৮ ১৯ ২০ ২১ ২২ ২৩
২৪ ২৫ ২৬ ২৭ ২৮ ২৯ ৩০
৩১  

৬ মে গ্রেগরীয় বর্ষপঞ্জী অনুসারে বছরের ১২৬তম (অধিবর্ষে ১২৭তম) দিন। বছর শেষ হতে আরো ২৩৯ দিন বাকি রয়েছে।

ঘটনাবলী[সম্পাদনা]

  • ১৫৪২ - প্রথম খ্রিস্টান মিশনারি ফ্রান্সিস খ্যাভিয়ের গোয়ায় আসেন।
  • ১৭৩৩ - প্রথম আর্ন্তজাতিক বক্সিং ম্যাচে বব হুইটেকার টিটু ডি কার্নিকে হারায়।
  • ১৭৫৭ - দীর্ঘ ৭ বছর প্রাগযুদ্ধ শেষে অস্ট্রীয়রা বিজয় লাভ করে।
  • ১৭৬৩ - আমেরিকান আদিবাসী নেতা পন্টিয়াক নিউ ইয়র্কে বৃটিশদের বিপক্ষে যুদ্ধ ঘোষণা করেন।
  • ১৭৭৫ - ব্রিটিশ রাজের হাতে মহারাজ নন্দনকুমার গ্রেফতার হন।
  • ১৮৩১ - ভারত উপমহাদেশের উত্তর-পশ্চিম সীমান্ত প্রদেশের বালাকোট উপত্যাকায় মুক্তি বা আজাদী আন্দোলনের নেতা সাইয়েদ আহমাদ ব্রেলভী ইংরেজ ও শিখ বাহিনীর সাথে এক লড়াইয়ে শতাধিক মুজাহিদসহ শহীদ হন।
  • ১৮৩৫ - জেমস গর্ডন ব্যানাট বিখ্যাত নিউইয়র্ক হেরাল্ড পত্রিকার প্রথম সংখ্যা প্রকাশ করেন।
  • ১৮৪০ - ইংল্যান্ডে প্রথম ডাকটিকেট চালু হয় ।
  • ১৮৫৭ - ব্রিটিশ কর্তৃপক্ষ বেঙ্গল নেটিভ ইনফ্যান্ট্রিকে বিলুপ্ত করে। মঙ্গল পাণ্ডেকে সিপাহি বিপ্লবের প্রথম শহীদ হিসেবে বিবেচনা করা হয়।
  • ১৮৮৯ - প্যারিসের আইফেল টাওয়ার সকলের জন্য আনুষ্ঠানিকভাবে উন্মুক্ত করা হয়।
  • ১৯১০ - বাবার মৃত্যুর পর পঞ্চম জর্জ ব্রিটেনের রাজা মনোনীত হন।
  • ১৯১১ - পিকাসোর আঁকা ৩ কোটি ডলার মূল্যমানের ছবি প্রাগ ন্যাশনাল গ্যালারি থেকে চুরি হয়।
  • ১৯৩৯ - জার্মানী ও ইতালী সামরিক ও রাজনৈতিক মৈত্রী ঘোষণা করে, যা বার্লিন-রোম অক্ষ নামে পরিচিত।
  • ১৯৪০ - উইন্সটন চার্চিল বৃটেনের প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হন।
  • ১৯৪৫ - দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ পর জর্মানী ফ্রান্সের রাইমে নিঃশর্ত আত্মসমর্পণ করে।
  • ১৯৫৪ - রজার ব্যানিস্টারই প্রথম ৪মিনিটে এক মাই দূরত্ব দৌড়ে অতিক্রম করেন।
  • ১৯৬৫ - ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে অস্ট্রেলিয়ার দুই ওপেনার বিল লরি ও সিম্পসন ৩৮২ রান করেন।
  • ১৯৭৫ - মার্কিন প্রেসিডেন্ট ফোর্ড ভিয়েৎনাম যুদ্ধ সমাপ্তি ঘোষণা করেন।
  • ১৯৮৮ - গ্রায়েম হিক উরচেস্টার এর হয়ে সমারসেটের বিপক্ষে একাই ৪০৫ রান করেন।
  • ১৮৮৯ - প্যারিসের আইফেল টাওয়ার সকলের জন্য আনুষ্ঠানিকভাবে উন্মুক্ত করা হয়।
  • ১৯৯১ - পিকাসোর আঁকা তিন কোটি ডলার মূল্যমানের চারটি ছবি চেকোস্লোভিয়ার প্রাগস্থ ন্যাশনাল গ্যালারি থেকে চুরি হয়ে যায়।
  • ১৯৯৪ - ব্রিটিশ রাণী এলিজাবেথ ও ফরাসি প্রেসিডেন্ট ফ্রান্সিস মিতেরাঁ দুই দেশের মধ্যে চ্যানেল টানেল উদ্বোধন করেন।
  • ১৯৯৪ - চীন-জাপান পারমাণবিক নিরাপত্তা চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়।
  • ১৯৯৭ - প্রয়াত গ্রেট পপ তারকা মাইকেল জ্যাকসন এবং বিখ্যাত ব্যান্ড দল বি গিস কে “রক এন্ড রোল” এর হল অব ফেইমে অন্তর্ভুক্ত করা হয়।
  • ১৯৯৯ - সাবেক যুগোশ্লাভিয়ার বেলগ্রেডে ন্যাটোর ‘ভুলবশত’ চীনা দূতাবাসের উপর বোমা নিক্ষেপে দুইজন চীনা নাগরিক নিহত ও বিশজন আহত হন।
  • ২০০১ - সিরিয়া সফরের সময় প্রথম কোন পোপ হিসেবে পোপ পল ২ মসজিদে প্রবেশ করেন।
  • ২০০২ - দীর্ঘ ১৯ মাস গৃহবন্দী থাকার পর মিয়ানমারের নেত্রী নোবেল বিজয়ী অংসান সুচি মুক্তিলাভ করেন।

জন্ম[সম্পাদনা]

  • ১৭৫৮ - ম্যাক্সিমিলিয়েন দ্য রোবসপিয়ের, তিনি ছিলেন ফরাসি আইনজীবী ও রাজনীতিবিদ।
  • ১৮৫৬ - সিগমুন্ড ফ্রয়েড, প্রখ্যাত অষ্ট্রীয় মনোবিজ্ঞানী। (মৃ.২৩/০৯/১৯৩৯)
  • ১৮৫৬ - এডুইন পিয়ারি, তিনি ছিলেন একজন মার্কিন মেরু অভিযাত্রী।
  • ১৮৬১ - মতিলাল নেহেরু, ভারতের বিখ্যাত আইনজীবী ও ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহেরুর পিতা। (মৃ.৬/০২/১৯৩১)
  • ১৮৬৮ - গ্যাস্টোন লেরোউক্স, তিনি ছিলেন ফরাসি সাংবাদিক ও লেখক।
  • ১৮৭১ - ভিক্টোর গ্রিগ্নারড, তিনি ছিলেন নোবেল পুরস্কার বিজয়ী ফরাসি রসায়নবিদ ও শিক্ষাবিদ।
  • ১৮৭২ - উইলেম ডে সিটার, নেদারল্যান্ডের একজন বিখ্যাত গণিতবিদ, পদার্থবিজ্ঞানী ও জ্যোতির্বিজ্ঞানী। (মৃ. ১৯৩৪)
  • ১৮৭২ - জামাল পাশা, উসমানীয় সামরিক নেতা। (মৃ. ১৯২২)
  • ১৯০৪ - হ্যারি মারটিনসোন, তিনি ছিলেন নোবেল পুরস্কার বিজয়ী সুইডিশ লেখক ও কবি।
  • ১৯১৫ - অরসন ওয়েলস, মার্কিন চলচ্চিত্র পরিচালক, অভিনেতা, লেখক এবং প্রযোজক। (মৃ. ১৯৮৫)
  • ১৯১৬ - রবার্ট হেনরী, মার্কিন পদার্থবিজ্ঞানী। (মৃ. ১৯৯৭)
  • ১৯১৮ - জায়েদ বিন সুলতান আল নাহিয়ান, আবুধাবির আমির এবং সংযুক্ত আরব আমিরাতের প্রথম রাষ্ট্রপতি। (মৃ. ২০০৪)
  • ১৯২৯ - পল লাউটারবার, একজন মার্কিন রসায়নবিদ। (মৃ. ২০০৭)
  • ১৯৩২ - আলাউদ্দিন আল আজাদ, বাংলাদেশী বাংলাদেশের খ্যাতিমান ঔপন্যাসিক, প্রাবন্ধিক, কবি, নাট্যকার, গবেষক ও অধ্যাপক। (মৃ. ২০০৯)
  • ১৯৪৩ - আন্দ্রিয়াস বাডের, তিনি ছিলেন জার্মান সন্ত্রাসী ও সহ-প্রতিষ্ঠিত রেড আর্মি দল।
  • ১৯৫০ - জেফ্রি ডেভার, মার্কিন রহস্য ও অপরাধ সাহিত্য লেখক।
  • ১৯৫১ - স্যামুয়েল ডো, তিনি ছিলেন লাইবেরিয়া সার্জন, রাজনীতিবিদ ও ২১ তম প্রেসিডেন্ট।
  • ১৯৫৩ - টনি ব্লেয়ার, তিনি ব্রিটিশ রাজনীতিবিদ ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী।
  • ১৯৬১ - জর্জ ক্লুনি, মার্কিন অভিনেতা, চলচ্চিত্র নির্মাতা ও সমাজকর্মী।
  • ১৯৭৫ - অ্যালান রিচার্ডসন, অবসরগ্রহণকারী ইংরেজ ক্রিকেটার।
  • ১৯৮১ - ভারতের পেস বোলার লক্ষ্মী রতন শুক্লা। তিনি তিনটি এক দিনের ম্যাচ খেলেন।
  • ১৯৮৩ - দানি আলভেস, ব্রাজিলিয়ান ফুটবলার।
  • ১৯৮৭ - মোন গেউন-ইয়উং, তিনি দক্ষিণ কোরিয়ার অভিনেত্রী।
  • ১৯৮৭ - ড্রিস মের্টেনস, বেলজিয়ামের একজন পেশাদার ফুটবলার।
  • ১৯৮৯ - ডোমিনিকা কিবুল্কোভা, তিনি স্লোভাকিয়ান টেনিস খেলোয়াড়।
  • ১৯৯২ - তাকাশি উসামি, তিনি জাপানি ফুটবলার।
  • ১৯৯৪ - মাতেও কোভাচিচ, ক্রোয়েশীয় পেশাদার ফুটবলার।

মৃত্যু[সম্পাদনা]

  • ১৫৪০ - জুয়ান লুইস ভিভেস, স্প্যানিশ পণ্ডিত। (জ. ১৪৯২)
  • ১৫৮৯ - তানসেন, উত্তর ভারতের সর্বশ্রেষ্ঠ সঙ্গীতজ্ঞ, আকবরের সভার নবরত্নের অন্যতম।
  • ১৭৫৮ - ম্যাক্সিমিলিয়েন দ্য রোবসপিয়ের, ফরাসি বিপ্লবের নেতা, জঁ-জাক রুসোর অনুরাগী, জ্যাকোবিন টেররের নেতা। (মৃ. ১৭৯৪)
  • ১৮৩১ - সাইয়েদ আহমাদ ব্রেলভী, তিনি ছিলেন ভারতের একজন মুসলিম সংস্কার আন্দোলনকারী ছিলেন এবং “নবী মুহাম্মদের পথ” (তারিকাহ মুহাম্মাদিয়াহ), একটি বিপ্লবী ইসলামী আন্দোলন, এর প্রতিষ্ঠাতা।
  • ১৮৫৯ - আলেকজান্ডার ফন হুমবোল্‌ড্‌ট্, জার্মান অভিযাত্রী ও বিজ্ঞানী। (জ. ১৭৬৯)
  • ১৮৭৭ - জোহান লুডভিগ রুনেবেরগ, তিনি ছিলেন সুইডিশ বংশোদ্ভূত ফিনিশ কবি ও স্তবগান লেখক।
  • ১৯১৯ - এল. ফ্রাঙ্ক বাউম, তিনি ছিলেন আমেরিকান সাংবাদিক ও লেখক।
  • ১৯৩০ - রজতকুমার সেন, ব্রিটিশ বিরোধী স্বাধীনতা আন্দোলনের বিপ্লবী নেতা।
  • ১৯৪৯ - মোরিস মাতরলাঁক, বেলজীয় নাট্যকার, কবি এবং প্রবন্ধকার। (জ. ১৮৬২)
  • ১৯৫১ - এলি কারতঁ, প্রভাবশালী ফরাসি গণিতবিদ। (জ. ১৮৬৯)
  • ১৯৫২ - মারিয়া মন্টেসরি, ইতালীয় চিকিৎসক এবং শিক্ষাবিদ, নিজের নামে প্রতিষ্ঠা করা শিক্ষা দর্শন - "মন্টেসরি শিক্ষাপদ্ধতি"র জন্য সুপরিচিত। (জ.৩১/০৮/১৮৭০)
  • ১৯৫২ - রেবতী মোহন বর্মণ, বিংশ শতাব্দীর বাঙালি লেখক।
  • ১৯৬৩ - মন্টি উলি, মার্কিন অভিনেতা। (জ. ১৮৮৮)
  • ১৯৭৩ - বৈজ্ঞানিক ও শিক্ষাবিদ ডা: সতীশরঞ্জন খাস্তগীর।
  • ১৯৯২ - মারলেনে ডিট্রিশ, জার্মান অভিনেত্রী ও গায়িকা ছিলেন। (জ. ১৯০১)
  • ২০০২ - পিম ফরটুয়ন, তিনি ছিলেন ডাচ সমাজবিজ্ঞানী, শিক্ষাবিদ ও রাজনীতিবিদ।
  • ২০১১ - কাজী নূরুজ্জামান, বীর উত্তম খেতাব প্রাপ্ত বাংলাদেশি মুক্তিযোদ্ধা, সেক্টর কমান্ডার।
  • ২০১৩ - গিউলিও অ্যান্ডরেওটি, তিনি ছিলেন ইতালীয় সাংবাদিক ও রাজনীতিবিদ ও ৪১ তম প্রধানমন্ত্রী।
  • ২০১৫ - নভেরা আহমেদ, বাংলাদেশি ভাস্কর। (জ. ১৯৩৯)

ছুটি ও অন্যান্য[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]