ম্যাজিস্ট্রেট

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

ম্যাজিস্ট্রেট হচ্ছেন আইন প্রয়োগ ও বিচারিক দায়িত্বপালনকারী একজন সরকারী কর্মকর্তা। প্রাচীন রোমে ম্যাজিস্ট্রেট ছিলেন একজন অন্যতম উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা যার নির্বাহী ও বিচারিক উভয় ধরনের ক্ষমতাই ছিল। ২০০৭ সালে বিচার বিভাগ পৃথকীকরনের পর বাংলাদেশে বর্তমানে ম্যাজিস্ট্রেটগণ সাধারণত ফৌজদারী অভিযোগ আমলে গ্রহণ ও বিচার করেন।

যুক্তরাজ্য[সম্পাদনা]

ইংল্যান্ডওয়েলস-এ ম্যাজিস্ট্রেটগণ জাস্টিস অফ পিস নামে পরিচিত যারা গৌণ অপরাধের বিচার করেন। ম্যাজিস্ট্রেটদের দন্ড দেয়ার ক্ষমতা ছয় মাস বা বার মাসের কারাদন্ডের মধ্যে সীমাবদ্ধ।[১] ব্রিটেনে ম্যাজিস্ট্রেট হতে হলে কোন আইনগত শিক্ষাগ্রহণ দরকার নেই। বর্তমানে ব্রিটেনে প্রায় ২১,৫০০ জন ম্যাজিস্ট্রেট আছে।[১]

বাংলাদেশ[সম্পাদনা]

ম্যাজিস্ট্রেটগণ বাংলাদেশে হাকিম নামেও অভিহিত। ২০০৭ সালে বিচার বিভাগ পৃথকিকরণের পর বাংলাদেশে ম্যাজিস্ট্রেটদেরকে দুই ভাগে ভাগ করা হয়ঃ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট[২] ও বিচারিক ম্যাজিস্ট্রেট।[৩] ২০০৭ সালে সংশোধিত ফৌজদারী কার্যবিবিধি অনুসারে ম্যাজিস্ট্রেট বলতে শুধুমাত্র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেটই বোঝানো হয়। বিভিন্ন ধাপের বিচারিক ম্যাজিস্ট্রেটগণ হচ্ছেনঃ

  1. চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট/মুখ্য মহানগর হাকিম
  2. অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট/অতিরিক্ত মুখ্য মহানগর হাকিম
  3. ১ম শ্রেণীর ম্যাজিস্ট্রেট/মহানগর ম্যাজিস্ট্রেট(সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট/মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট)
  4. ২য় শ্রেণীর ম্যাজিস্ট্রেট(জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট)
  5. ৩য় শ্রেণীর ম্যাজিস্ট্রেট

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Magistrates, Courts and Tribunals Judiciary.
  2. Executive Magistrates, ধারা ১০, ফৌজদারী কার্যবিধি, ১৮৯৮।
  3. Judicial Magistrates, ধারা ১১, ফৌজদারী কার্যবিধি, ১৮৯৮।