লুপিটা ইয়ংও

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
লুপিটা ইয়ংও
Lupita Nyong'o
Lupita Nyong'o May 2017.jpg
২০১৭ সালের মে মাসে ইয়ংও
জন্ম
লুপিটা আমোন্ডি ইয়ংও

(1983-03-01) ১ মার্চ ১৯৮৩ (বয়স ৩৭)
নাগরিকত্বকেনিয়া
মেক্সিকো
মাতৃশিক্ষায়তনইয়েল বিশ্ববিদ্যালয় (এমএফএ)
পেশাঅভিনেত্রী
কর্মজীবন২০০৫-বর্তমান
বাসস্থানব্রুকলিন, নিউ ইয়র্ক, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র
পিতা-মাতাপিটার আনিয়াং ইয়ংও (পিতা)
ডরোথি ওগাডা বুয়ু ইয়ংও (মাতা)

লুপিটা আমোন্ডি ইয়ংও (ইংরেজি: Lupita Amondi Nyong'o; আধ্বব: [luˈpiːtɑː ˈɲɔːŋɔ]; জন্ম: ১ মার্চ ১৯৮৩)[১] হলেন একজন কেনীয়-মেক্সিকান অভিনেত্রী। তিনি কেনীয় রাজনীতিবিদ পিটার আনিয়াং ইয়ংওর কন্যা। ইয়েল স্কুল অব ড্রামা থেকে অভিনয়ের উপর স্নাতকোত্তর লাভের পর তিনি স্টিভ ম্যাকুইনের ঐতিহাসিক নাট্যধর্মী চলচ্চিত্র টুয়েলভ ইয়ার্স আ স্লেইভ (২০১৩) চলচ্চিত্রে প্যাটসি চরিত্রে অভিনয় করে সমাদৃত হন এবং শ্রেষ্ঠ পার্শ্ব অভিনেত্রীর জন্য একাডেমি পুরস্কার অর্জন করেন। তিনি প্রথম কেনীয় ও মেক্সিকান অভিনেত্রী হিসেবে অস্কার জয় করেন।[২][৩]

ইয়ংওর ব্রডওয়ে মঞ্চে অভিষেক হয় এক্লিপসড (২০১৫) নাটকে এতিম কিশোরী চরিত্রে এবং এই কাজের জন্য তিনি শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী বিভাগে টনি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন।[৪] তিনি স্টার ওয়ার্স ত্রয়ীতে মাজ কানাটা চরিত্রে অভিনয় করেন, দ্য জাঙ্গল বুক (২০১৬) চলচ্চিত্রে রাক্সা চরিত্রে কণ্ঠ দেন এবং মার্ভেল সিনেম্যাটিক ইউনিভার্সের সুপারহিরো চলচ্চিত্র ব্ল্যাক প্যান্থার (২০১৮)-এ নাকিয়া চরিত্রে অভিনয় করেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Lupita Nyong'o"বায়োগ্রাফি (ইংরেজি ভাষায়)। এঅ্যান্ডই টেলিভিশন নেটওয়ার্কস। সংগ্রহের তারিখ ১ মার্চ ২০১৯ 
  2. পোন্তে, তেরেসা (২ মার্চ ২০১৪)। "Three Mexicans win Oscars"শিকাগো নাউ। সংগ্রহের তারিখ ১ মার্চ ২০১৯ 
  3. "Oscar Winner Lupita Nyong'o Is 'the Pride of Africa'"। এবিসি নিউজ। ৩ মার্চ ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ১ মার্চ ২০১৯ 
  4. "Tony Award Nominations"। টনি পুরস্কার। ৩ মে ২০১৬। মে ৬, ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ মার্চ ২০১৯ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]