প্যাট্রিশিয়া ক্লার্কসন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
প্যাট্রিশিয়া ক্লার্কসন
Patricia Clarkson World Premiere The Party Berlinale 2017 01.jpg
স্থানীয় নাম
Patricia Clarkson
জন্ম
প্যাট্রিশিয়া ডেভিস ক্লার্কসন

(১৯৫৯-১২-২৯)২৯ ডিসেম্বর ১৯৫৯
বাসস্থাননিউ ইয়র্ক সিটি, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র
যেখানের শিক্ষার্থীফোর্ডহ্যাম বিশ্ববিদ্যালয় (স্নাতক)
ইয়েল বিশ্ববিদ্যালয় (এমএফএ)
পেশাঅভিনেত্রী
কার্যকাল১৯৮৫-বর্তমান
পিতা-মাতাআর্থার ক্লার্কসন (পিতা)
জ্যাকুলিন ব্রেচেল (মাতা)

প্যাট্রিশিয়া ডেভিস ক্লার্কসন (ইংরেজি: Patricia Davies Clarkson; ২৯ ডিসেম্বর ১৯৫৯) হলেন একজন মার্কিন অভিনেত্রী। তিনি স্বাধীন চলচ্চিত্র থেকে শুরু করেন মূলধারার স্টুডিও চলচ্চিত্রসহ বিভিন্ন ধরনের চলচ্চিত্রে কেন্দ্রীয় ও পার্শ্ব চরিত্রে অভিনয় করেন। অভিনয়ের স্বীকৃতি হিসেবে তিনি দুটি প্রাইমটাইম এমি পুরস্কার অর্জন করেন এবং একটি একাডেমি পুরস্কার, দুটি গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কার, চারটি স্ক্রিন অ্যাক্টরস গিল্ড পুরস্কার, ও একটি টনি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন।

ক্লার্কসন ২০০৩ সালে নাট্যধর্মী দ্য স্টেশন এজেন্ট ছবিতে অভিনয় করে সমাদৃত হন এবং স্ক্রিন অ্যাক্টরস গিল্ড পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন এবং পিসেস অব এপ্রিল ছবিতে অভিনয় করে সেরা পার্শ্ব অভিনেত্রী বিভাগে গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কারএকাডেমি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন। তিনি এইচবিওর ধারাবাহিক সিক্স ফিট আন্ডার-এ ২০০২ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত অতিথি চরিত্রে অভিনয় করেন এবং দুটি প্রাইমটাইম এমি পুরস্কার অর্জন করেন। ২০০০-এর দশকে তিনি গুড নাইট, অ্যান্ড গুড লাক (২০০৫), লার্স অ্যান্ড দ্য রিয়্যাল গার্ল (২০০৭) ও এলিজি (২০০৮) চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন।[১]

২০১০ সালে ক্লার্কসন থ্রিলারধর্মী শাটার আইল্যান্ড-এ এবং মূলধারার হাস্যরসাত্মক ইজি এ (২০১০) ও ফ্রেন্ডস উইথ বেনিফিটস-এ পার্শ্ব ভূমিকায় অভিনয় করেন। পরবর্তী বছরগুলোতে তিনি দ্য মেজ রানার (২০১৪) ও এর অনুবর্তী পর্বে খল চরিত্র আভা পেইজ ভূমিকায় অভিনয় করেন। ২০১৪ সালে তিনি ব্রডওয়ে মঞ্চে দ্য এলিফ্যান্ট ম্যান নাটকে অভিনয় করে শ্রেষ্ঠ চরিত্রাভিনেত্রী বিভাগে টনি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন। ২০১৭ সালে তিনি স্যালি পটারের নাট্যধর্মী দ্য পার্টি চলচ্চিত্রে অভিনয় করে শ্রেষ্ঠ পার্শ্ব অভিনেত্রী বিভাগে ব্রিটিশ ইন্ডিপেন্ডেন্ট ফিল্ম পুরস্কার লাভ করেন এবং নেটফ্লিক্সের হাউজ অব কার্ডস ধারাবাহিকে অতিথি চরিত্রে অভিনয় করেন। ২০১৮ সালে অ্যামি অ্যাডামসের সাথে এইচবিওর মিনিধারাবাহিক শার্প অবজেক্টস-এ অভিনয় করে শ্রেষ্ঠ টিভি পার্শ্ব অভিনেত্রী বিভাগে গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেছেন।

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

সমালোচনামূলক সফলতা[সম্পাদনা]

ক্লার্কসন ২০০৩ সালে একাধিক স্বাধীন চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন, তন্মধ্যে রয়েছে দ্য ব্যারোনেস অ্যান্ড দ্য পিগ, লার্স ফন ট্রায়ারের পরীক্ষণমূলক নাট্যধর্মী ডগভিল,[২] দ্য স্টেশন এজেন্ট, পিসেস অব এপ্রিল এবং ডেভিড গর্ডন গ্রিন পরিচালিত অল দ্য রিয়াল গার্লসদ্য ব্যারোনেস অ্যান্ড দ্য পিগ, দ্য স্টেশন এজেন্ট, পিসেস অব এপ্রিল, এবং অল দ্য রিয়াল গার্লস - এই চারটি চলচ্চিত্রের উদ্বোধনী প্রদর্শনী হয় সানড্যান্স চলচ্চিত্র উৎসবেদ্য স্টেশন এজেন্ট ছবিতে তাকে একজন শিল্পী চরিত্রে দেখা যায়, যার মডেল প্রশিক্ষণ শখের দোকানে কর্মরত এক ব্যক্তির (পিটার ডিংকলেজ) সাথে বন্ধুত্ব হয়। এই ছবিতে তার কাজের জন্য তিনি সানড্যান্স হতে বিশেষ জুরি পুরস্কার লাভ করেন এবং সেরা অভিনেত্রী বিভাগে স্ক্রিন অ্যাক্টরস গিল্ড পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন।[৩] পিসেস অব এপ্রিল ছবিতে তিনি ক্যান্সারে আক্রান্ত মায়ের চরিত্রে অভিনয় করেন, যিনি তার থেকে দূরে সরে যাওয়া কন্যার (কেটি হোমস) সাথে থ্যাংকসগিভিং উপলক্ষ্যে সাক্ষাতের উদ্দেশ্যে রওনা দেন। এই ছবিতে অভিনয়ের জন্য তিনি সেরা পার্শ্ব অভিনেত্রী বিভাগে গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কারএকাডেমি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন।[৪]

২০০৯ সালে ট্রাইবেকা চলচ্চিত্র উৎসবে হোয়াটেভার ওয়ার্কস-এর উদ্বোধনী প্রদর্শনে ক্লার্কসন।

২০০৩ সালে সমালোচনামূলক সফলতার পর ক্লার্কসন ক্রীড়াভিত্তিক প্রামাণ্যনাট্যচিত্র মিরাকল (২০০৪)-এ অভিনয় করেন। একজন হকি কোচ সম্পর্কিত এই চলচ্চিত্রে তিনি কার্ট রাসেলের বিপরীতে শ্রেষ্ঠাংশে অভিনয় করেন। পরের বছর সাংবাদিক এডওয়ার্ড আর. মুরো ও জোসেফ ম্যাকার্থির মধ্যকার বিবাদ নিয়ে জর্জ ক্লুনির ঐতিহাসিক নাট্যধর্মী গুড নাইট, অ্যান্ড গুড লাক (২০০৫) ছবিতে তাকে একজন সংবাদ প্রতিবেদকের (রবার্ট ডাউনি জুনিয়র) স্ত্রীর ভূমিকায় দেখা যায়।[৫] একই বছর তিনি স্বাধীন নাট্য চলচ্চিত্র দ্য ডাইং গাউল-এ একজন হলিউডের স্টুডিও নির্বাহীর স্ত্রী চরিত্রে অভিনয় করেন।[৬] ২০০৬ সালে অতিপ্রাকৃত ভীতিপ্রদ চলচ্চিত্র দ্য উডস-এ তিনি মেয়েদের বোর্ডিং স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা চরিত্রে অভিনয় করেন। ছবিটির চিত্রায়ন হয়েছিল ২০০৩ সালে।[৭] এছাড়া ২০০৬ সালে তিনি অল দ্য কিংস মেন ছবিতে স্যাডি বার্ক চরিত্রে অভিনয় করেন।[৮]

২০০৭ সালে তিনি প্রণয়ধর্মী হাস্যরসাত্মক নো রিজারভেশন্স-এ পার্শ্ব চরিত্রে এবং হাস্যরসাত্মক-নাট্যধর্মী লার্স অ্যান্ড দ্য রিয়াল গার্ল-এ সেক্স-ডলের প্রতি আকৃষ্ট একজন রোগীর চিকিৎসা প্রদানকারী মনোরোগ বিশেষজ্ঞ চরিত্রে অভিনয় করেন।[৯] পরের বছরগুলোতে তিনি বেন কিংসলির বিপরীতে নাট্যধর্মী এলিজি (২০০৮) এবং উডি অ্যালেনের দুটি চলচ্চিত্র - ভিকি ক্রিস্টিনা বার্সেলোনা (২০০৮) ও হোয়াটেভার ওয়ার্কস (২০০৯)-এ পার্শ্ব ভূমিকায় অভিনয় করেন।[১০] ২০০৮ সালে প্রযোজক জেরাল্ড পিয়ারি ক্লার্কসনকে প্রামাণ্যচিত্র ফর দ্য লাভ অব মুভিজ: দ্য স্টোরি অব আমেরিকান ফিল্ম ক্রিটিসিজম-এ কণ্ঠ দেওয়ার জন্য অনুরোধ করেন। পিয়ারি বলেন, "তিনি এর বর্ণনা করতে রাজি হয়েছিলেন... এবং তিনি খুবই সুন্দর, খুবই সহযোগিতামূলক, ও খুবই প্রস্তুত এবং খুবই বুদ্ধিদীপ্ত ছিলেন। এবং তার এই চলচ্চিত্রে কাজ করার একটি বড় কারণ ছিল তিনি নিয়মিত সমালোচনা পড়েন, এবং চলচ্চিত্র সমালোচনার প্রতি তার শ্রদ্ধাবোধ রয়েছে।"[১১] ২০০৯ সালের ১৭ই জানুয়ারি তিনি মাহালিয়া জ্যাকসন থিয়েটার ফর দ্য পারফরমিং আর্টস পুনঃউন্মোচনের লক্ষ্যে নিউ অরলিন্সে যান। তিনি রবার্ট লাইয়ালের পরিচালনায় নিউ অরলিন্স অপেরার কনসার্টে প্লাসিডো ডোমিঙ্গা প্রধানের দায়িত্ব পালন করেন।[১২] ২০০৯ সালের ৯ই মে তাকে স্যাটারডে নাইট লাইভ-এর ডিজিটাল স্বল্পদৈর্ঘ্য "মাদারলাভার"-এ অতিথি ভূমিকায় দেখা যায়। এতে তার সাথে আরও ছিলেন অ্যান্ডি স্যামবার্গ, জাস্টিন টিম্বারলেক, ও সুজান সার‍্যান্ডন। তিনি তার করা এই চরিত্রে পুনরায় ২০১১ সালের ২১শে মে অপর একটি ডিজিটার স্বল্পদৈর্ঘ্য থ্রি-ওয়ে (দ্য গোল্ডেন রুল)"-এ কাজ করেন।

মূলধারায় সাফল্য[সম্পাদনা]

২০১৭ সালে বার্লিনালেতে স্যালি পটারে সাথে ক্লার্কসন।

ক্লার্কসন ২০১৭ সালে স্যালি পটার পরিচালিত নাট্যধর্মী দ্য পার্টি চলচ্চিত্রের অভিনয়শিল্পী তালিকায় ছিলেন এবং তার কাজের জন্য শ্রেষ্ঠ পার্শ্ব অভিনেত্রী বিভাগে ব্রিটিশ ইন্ডিপেন্ডেন্ট ফিল্ম পুরস্কার অর্জন করেন।[১৩] একই বছর তিনি এমিলি মর্টিমার ও বিল নাইয়ির সাথে দ্য বুকশপ চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন।[১৪] তিনি নেটফ্লিক্সের রাজনৈতিক নাট্যধর্মী ধারাবাহিক হাউজ অব কার্ডস-এ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বাণিজ্য অধিদপ্তরের কর্মকর্তা জেন ডেভিস চরিত্রে অভিনয় করেন।[১৫]

২০১৮ সালে তিনি বিজ্ঞান কল্পকাহিনীমূলক জোনাথন ছবিতে অভিনয় করেন। এতে দুই ভাইয়ের একটি শরীর নিয়ে বেঁচে থাকা চিত্রিত হয়।[১৬] তার অভিনীত মনস্তাত্ত্বিক ভীতিপ্রদ ডেলিরিয়াম ছবিটি সরাসরি ডিভিডি-তে মুক্তি দেওয়া হয়।[১৭] তিনি মনস্তাত্ত্বিক নাট্যধর্মী মিনি ধারাবাহিক শার্প অবজেক্টস (২০১৮)-এ মিজুরি শহরের একটি খুনের তদন্তকারী একজন মদ্যপ প্রতিবেদকের (অ্যামি অ্যাডামস) ধনাঢ্য মাতা চরিত্রে অভিনয় করেন।[১৮] এই ধারাবাহিকে তার কাজের জন্য তিনি শ্রেষ্ঠ পার্শ্ব অভিনেত্রী বিভাগে গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেছেন।[৪]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Top 10 Patricia Clarkson Characters On Screen"ইন্ডিওয়্যার (ইংরেজি ভাষায়)। ২৭ আগস্ট ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  2. "Patricia Clarkson Credits"টিভি গাইড। এনটিভিবি মিডিয়া। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  3. "10th annual SAG awards"দ্য হলিউড রিপোর্টারঅ্যাসোসিয়েটেড প্রেস। ১২ অক্টোবর ২০০৬। ডিসেম্বর ৮, ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  4. বের্গেরন, জুডি। "New Orleans native Patricia Clarkson up for Golden Globe"দি অ্যাডভোকেট। নিউ অরলিন্স, লুইজিয়ানা। ডিসেম্বর ৬, ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  5. সিমন, স্কট (১৫ অক্টোবর ২০০৫)। "George Clooney's Take on Murrow"এনপিআর। মার্চ ১৪, ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  6. লাসাল, মাইক (১৮ নভেম্বর ২০০৫)। "Secrets lie below surface of a tense psychological thriller"দ্য সান ফ্রান্সিস্কো ক্রনিকল। সান ফ্রান্সিস্কো, ক্যালিফোর্নিয়া। ডিসেম্বর ১০, ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  7. ডি ভ্রাইস, হিলারি (১২ অক্টোবর ২০০৩)। "A NIGHT OUT WITH: Patricia Clarkson; Rising Above the Starlets"দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমস। ডিসেম্বর ২৮, ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  8. কেনেডি, লাইজা (২১ সেপ্টেম্বর ২০০৬)। "The woman in "The King's Men""দ্য ডেনভার পোস্ট। ডেনভার, কলোরাডো। ডিসেম্বর ৯, ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  9. উডার্ড, জোসেফ (১ নভেম্বর ২০০৭)। "Lars and the Real Girl"দ্য সান্তা বারবারা ইন্ডিপেন্ডেন্ট। সান্তা বারবারা, ক্যালিফোর্নিয়া। ৯ ডিসেম্বর ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  10. ম্যাথিউস, কে. জে. (১৮ জুন ২০০৯)। "Cast of new Allen film goes with 'Whatever Works'"সিএনএন। আগস্ট ২, ২০০৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  11. চাইল্ড্রেস, এরিক (২৪ ফেব্রুয়ারি ২০০৯)। "SXSW '09 Interview: For the Love of Movies Director & Film Critic Gerald Peary"ইফিল্মক্রিটিক। সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  12. মাহনে, থিওডর পি. (১৭ জানুয়ারি ২০০৯)। "Star Emcee Patricia Clarkson Shares in the Excitement over Tonight's Opera Gala"দ্য টাইমস-পিকায়ুন। পৃষ্ঠা C1, C3। জানুয়ারি ১৮, ২০০৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  13. রিটম্যান, আলেক্স (১০ ডিসেম্বর ২০১৭)। "British Independent Film Awards: 'God's Own Country,' 'Lady Macbeth' Win Big"দ্য হলিউড রিপোর্টার। ডিসেম্বর ১৪, ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  14. ওসুলিভান, মাইকেল (২৮ আগস্ট ২০১৭)। "'The Bookshop' is like the best classic novels — meant to be savored, not summarized"দ্য ওয়াশিংটন পোস্ট। ডিসেম্বর ৯, ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  15. পেডারসন, এরিক (৬ জুলাই ২০১৮)। "Robin Wright Led Charge To Save 'House Of Cards' After Kevin Spacey Scandal, Patricia Clarkson Says"ডেডলাইন হলিউড। পেন্সকি মিডিয়া কর্পোরেশন। নভেম্বর ৩০, ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  16. কেনিগসবার্গ, বেন (১৫ নভেম্বর ২০১৮)। "'Jonathan' Review: Ansel Elgort as Two Brothers Sharing One Body"দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমস। নভেম্বর ২৮, ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  17. স্প্র্যাগু, মাইক (৬ মে ২০১৮)। "Blumhouse's DELIRIUM Dumped to DVD This Summer"ড্রেড সেন্ট্রাল। ডিসেম্বর ৯, ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  18. কোহেন, ফিন (২৬ আগস্ট ২০১৮)। "Patricia Clarkson's Role on 'Sharp Objects' Cuts Deep"দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমস। ডিসেম্বর ৯, ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]