টেরিসা রাইট

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
টেরিসা রাইট
Teresa Wright
Studio publicity Teresa Wright.jpg
স্টুডিওর প্রচারণামূলক ছবিতে রাইট
জন্ম
ম্যুরিয়েল টেরিসা রাইট

(১৯১৮-১০-২৭)২৭ অক্টোবর ১৯১৮
মৃত্যুমার্চ ৬, ২০০৫(2005-03-06) (বয়স ৮৬)
নিউ হেভেন, কানেটিকাট, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র
পেশাঅভিনেত্রী
কর্মজীবন১৯৪১-১৯৯৭
দাম্পত্য সঙ্গীনিভন বুশ (বি. ১৯৪২; বিচ্ছেদ. ১৯৫২)
রবার্ট অ্যান্ডারসন (বি. ১৯৫৯; বিচ্ছেদ. ১৯৭৮)
সন্তান

ম্যুরিয়েল টেরিসা রাইট (২৭ অক্টোবর ১৯১৮ - ৬ মার্চ ২০০৫) ছিলেন একজন মার্কিন অভিনেত্রী। তিনি তার অভিষেক চলচ্চিত্র দ্য লিটল ফক্সেস (১৯৪১) ও মিসেস মিনিভার (১৯৪২) চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য দুইবার শ্রেষ্ঠ পার্শ্ব অভিনেত্রী বিভাগে একাডেমি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন, এবং দ্বিতীয় চলচ্চিত্রটির জন্য একাডেমি পুরস্কার বিজয়ী হন। একই বছর তিনি দ্য প্রাইড অব দ্য ইয়াঙ্কিস (১৯৪২) চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী বিভাগে একাডেমি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন। এছাড়া তিনি অ্যালফ্রেড হিচককের শ্যাডো অব আ ডাউট (১৯৪৩) ও উইলিয়াম ওয়াইলারের দ্য বেস্ট ইয়ার্স অব আওয়ার লাইভস (১৯৪৬) চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য প্রসিদ্ধ।

রাইট প্লেহাউজ নাইন্টির মৌলিক সংস্করণ দ্য মিরাকল ওয়ার্কার (১৯৫৭), ব্রেক সানডে শোকেসের দ্য মার্গারেট বুর্ক-হোয়াইট স্টোরি ও সিবিএসের নাট্যধর্মী ধারাবাহিক ডলফিন কোভ (১৯৮৯)-এ অভিনয় করে তিনটি প্রাইমটাইম এমি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন। তিনি শীর্ষ পরিচালকদের নিকট থেকে প্রশংসা লাভ করেছিলেন, তন্মধ্যে উইলিয়াম ওয়াইলার তাকে তার পরিচালিত সবচেয়ে সম্ভাবনাময় অভিনেত্রী বলে উল্লেখ করেন, এবং অ্যালফ্রেড হিচকক তার পূর্ণাঙ্গ প্রস্তুতি ও পেশাদারিত্বের প্রশংসা করেন।[১]

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

ম্যুরিয়েল টেরিসা রাইট ১৯১৮ সালের ২৭শে অক্টোবর নিউ ইয়র্ক সিটির হারলেমে জন্মগ্রহণ করেন।[২] তার মাতা মার্থা (বিবাহপূর্ব এস্পি) এবং পিতা আর্থার হেন্ড্রিকসন রাইট ছিলেন বিমা প্রতিনিধি।[৩][৪] তার শৈশবেই তার পিতামাতা বিচ্ছেদ ঘটে। তিনি নিউ জার্সির ম্যাপলউডে বেড়ে ওঠেন এবং সেখানে কলাম্বিয়া হাই স্কুলে পড়াশোনা করেন।[২] ১৯৩৬ সালে নিউ ইয়র্ক সিটির ব্রডহার্টস থিয়েটারে হেলেন হেইসের অভিনীত ভিক্টোরিয়া রেজিনা নাটক দেখার পর রাইটের অভিনয়ে আগ্রহ জন্মে এবং তিনি বিদ্যালয়ের নাটকে প্রধান চরিত্রে কাজ শুরু করেন।[৫]

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

১৯৪১ সালে দ্য লিটল ফক্সেস চলচ্চিত্র দিয়ে রাইটের চলচ্চিত্রে অভিষেক ঘটে এবং তিনি এই কাজের জন্য শ্রেষ্ঠ পার্শ্ব অভিনেত্রী বিভাগে একাডেমি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন। পরের বছর তিনি মিসেস মিনিভার (১৯৪২) চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য পুনরায় একই বিভাগে একাডেমি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন এবং এই পুরস্কার অর্জন করেন। একই বছর তিনি দ্য প্রাইড অব দ্য ইয়াঙ্কিস (১৯৪২) চলচ্চিত্রে গ্যারি কুপারের বিপরীতে বেসবল খেলোয়ার লু গেরিগের স্ত্রীর ভূমিকায় অভিনয়ের জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী বিভাগে একাডেমি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন। রাইট একই বছরে এই দুটি বিভাগে মনোনয়ন গ্রহীতা নয়জন অভিনেত্রীর প্রথমজন।[২][৬] রাইট অভিনয় জীবনের প্রথম তিনটি চলচ্চিত্রের জন্য তিনটি একাডেমি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভের একমাত্র রেকর্ডধারী।[৭]

মৃত্যু[সম্পাদনা]

টেরিসা রাইট ২০০৫ সালের ৬ই মার্চ ৮৬ বছর বয়সে কানেটিকাটের ইয়েল-নিউ হেভেন হসপিটালে হার্ট অ্যাটাকে মৃত্যুবরণ করেন।[৮] তাকে নিউ হেভেনের এভারগ্রিন সেমেটারিতে সমাহিত করা হয়।[৯]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. স্পটো ১৯৮৩, পৃ. ২৫৯।
  2. ভ্যালেন্স, টম (মার্চ ৩১, ২০০৫)। "Teresa Wright: Actress of 'breathless, bright-eyed rapture'"দি ইন্ডিপেন্ডেন্ট (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৭ জুলাই ২০২০ 
  3. "Teresa Wright Biography" (ইংরেজি ভাষায়)। ফিল্ম রেফারেন্স। সংগ্রহের তারিখ ২৭ জুলাই ২০২০ 
  4. স্পটো ২০১৬, পৃ. ১২–১৫।
  5. মার্টিন, ডগলাস (মার্চ ৮, ২০০৫)। "Teresa Wright, Stage and Film Star, Dies at 86"দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমস (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৭ জুলাই ২০২০ 
  6. "The Star Nobody Knows"দ্য পোস্ট-স্ট্যান্ডার্ড। সাইরাকাস, নিউ ইয়র্ক। মার্চ ৩০, ১৯৪৭। পৃষ্ঠা ৩২। 
  7. সোয়ারস, আন্দ্রে। "Teresa Wright" (ইংরেজি ভাষায়)। রিল ক্লাসিকস। সংগ্রহের তারিখ ২৭ জুলাই ২০২০ 
  8. বার্নস্টেইন, অ্যাডাম (মার্চ ৯, ২০০৫)। "Actress Teresa Wright, 86; Won Oscar in 'Mrs. Miniver'"দ্য ওয়াশিংটন পোস্ট (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৭ জুলাই ২০২০ 
  9. উইলসন, স্কট (২০১৬)। Resting Places: The Burial Sites of More Than 14,000 Famous Persons, 3d ed. (ইংরেজি ভাষায়)। ম্যাকফারল্যান্ড। আইএসবিএন 978-0-7864-7992-4। সংগ্রহের তারিখ ২৭ জুলাই ২০২০ 

উৎস[সম্পাদনা]

  • স্পটো, ডোনাল্ড (১৯৮৩)। The Dark Side of Genius: The Life of Alfred Hitchcockবিনামূল্যে নিবন্ধন প্রয়োজন। বস্টন: লিটল, ব্রাউন অ্যান্ড কোম্পানি। আইএসবিএন 978-0-31680-723-4 
  • স্পটো, ডোনাল্ড (২০১৬)। A Girl's Got to Breathe: The Life of Teresa Wright। জ্যাকসন: ইউনিভার্সিটি প্রেস অব মিসিসিপি। আইএসবিএন 978-1-62846-045-2 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]