টাঙ্গাইল জেলা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
টাঙ্গাইল জেলা
Tangail
জেলা
বাংলাদেশে টাঙ্গাইল জেলার অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২৪°০১′ উত্তর ৯০°০৭′ পূর্ব / ২৪.০২° উত্তর ৯০.১২° পূর্ব / 24.02; 90.12
দেশ  বাংলাদেশ
বিভাগ ঢাকা বিভাগ
আয়তন
 • মোট ৩,৪১৪.৩৫
জনসংখ্যা (২০১১)
 • মোট ৩৬,০৫,০৮৩[১]
স্বাক্ষরতার হার
 • মোট ৪৬.৮%
সময় অঞ্চল বিএসটি (ইউটিসি+৬)
ওয়েবসাইট জেলা তথ্য বাতায়ন
টাঙ্গাইল জেলার উপজেলাসমূহ

টাঙ্গাইল জেলা বাংলাদেশের মধ্যাঞ্চলের ঢাকা বিভাগের একটি প্রশাসনিক অঞ্চল। এর জনসংখ্যা প্রায় ৩৬ লক্ষ এবং আয়তন ৩৪১৪.৩৯ বর্গ কিলোমিটার। ১৯৭০ খ্রিস্টাব্দ অবধি এটি ছিল অবিভক্ত ময়মনসিংহ জেলার একটি মহুকুমা। ১৯৭০ খ্রিস্টাব্দে টাঙ্গাইল মহুকুমাকে জেলায় উন্নীত করা হয়। এটি একটি নদী বিধৌত কৃষিপ্রধান অঞ্চল।

ভৌগোলিক সীমানা[সম্পাদনা]

টাংগাইল জেলা ঢাকা হতে প্রায় একশত কি মি দূরে অবস্থিত। এই জেলার পূর্বে রয়েছে ময়মনসিংহ জেলাগাজীপুর জেলা, পশ্চিমে সিরাজগঞ্জ জেলা, উত্তরে জামালপুর জেলা, দক্ষিণে ঢাকা জেলামানিকগঞ্জ জেলা। এর জনসংখ্যা প্রায় ৩৬ লাখ এবং আয়তন ৩৪১৪.৩৮ বর্গ কি.মি.।

প্রশাসনিক এলাকাসমূহ[সম্পাদনা]

পত্রিকাসমূহ[সম্পাদনা]

  • টাঙ্গাইল বার্তা
  • দৈনিক পূর্বাকাশ
  • দৈনিক মজলুমের কন্ঠ
  • দৈনিক কালের স্রোত
  • সাপ্তাহিক প্রযুক্তি
  • দৈনিক মফস্বল
  • দৈনিক লোককথা
  • দৈনিক দেশ কথা
  • সাপ্তাহিক লৌহজং
  • দৈনিক প্রগতির আলো
  • সাপ্তাহিক মৌবাজার
  • সাপ্তাহিক মূলস্রোত

দর্শনীয় স্থান[সম্পাদনা]

  • আতিয়া মসজিদ
  • মধুপুর জাতীয় উদ্যান
  • যমুনা বহুমুখী সেতু
  • শাহ্ আদম কাশ্মিরির মাজার,
  • পরীর দালান,
  • খামারপাড়া মসজিদ ও মাজার,
  • ঝরোকা,
  • সাগরদীঘি,
  • গুপ্তবৃন্দাবন,
  • পাকুটিয়া আশ্রম,
  • ভারতেশ্বরী হোমস,
  • মহেড়া জমিদারবাড়ি/পুলিশ ট্রেনিং সেন্টার,
  • মির্জাপুর ক্যাডেট কলেজ,
  • পাকুল্লা মসজিদ,
  • কুমুদিনী নার্সিং স্কুল/কলেজ,
  • নাগরপুর জমিদারবাড়ি,
  • পুন্ডরীকাক্ষ হাসপাতাল,
  • উপেন্দ্র সরোব,
  • গয়হাটার মঠ,
  • তেবাড়িয়া জামে মসজিদ,
  • পাকুটিয়া জমিদারবাড়ি,
  • বঙ্গবন্ধু সেতু,
  • এলেঙ্গা রিসোর্ট,
  • যমুনা রিসোর্ট,
  • কাদিমহামজানি মসজিদ,
  • ঐতিহ্যবাহী পোড়াবাড়ি,
  • সন্তোষ,
  • করটিয়া সা’দত কলেজ,
  • কুমুদিনী সরকারি কলেজ,
  • বিন্দুবাসিনী বিদ্যালয়,
  • মধুপুর জাতীয় উদ্যান,
  • দোখলা ভিআইপ রেস্ট হাউস,
  • পীরগাছা রাবারবাগান,
  • ভূঞাপুরের নীলকুঠি,
  • শিয়ালকোল বন্দর,
  • ধনবাড়ি মসজিদ ও নবাব প্যালেস,
  • নথখোলা স্মৃতিসৌধ,
  • বাসুলিয়া,
  • রায়বাড়ী,
  • কোকিলা পাবর স্মৃতিসৌধ,
  • মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতিস্তম্ভ।

বিশিষ্ঠ ব্যক্তিত্ব[সম্পাদনা]

  • আবদুল হামিদ খান ভাসানী, বিংশশতকী ব্রিটিশ ভারতের অন্যতম তৃণমূল রাজনীতিবিদ ও গণআন্দোলনের নায়ক
  • আবু সাঈদ চৌধুরী, বাংলাদেশের সাবেক রাষ্ট্রপতি
  • রনদা প্রসাদ সাহা,
  • শামসুল হক, বাংলাদেশের রাজনীতিবিদ
  • প্রিন্সিপাল ইব্রাহিম খাঁ,
  • বেগম ফজিলাতুন্নেসা,
  • প্রতুল চন্দ্র সরকার, জাদুকর
  • স্বাধীনতার ইশতেহার পাঠক শাজাহান সিরাজ,
  • বঙ্গবীর আবদুল কাদের সিদ্দিকী বীরউত্তম, মুক্তিযুদ্ধা, রাজনীতিবিদ
  • শামসুর রহমান খান শাহজাহান
  • ওয়াজেদ আলী খান পন্নী,
  • জোয়াহের আলী খান,
  • মাওলানা মকিম উদ্দিন আহমেদ।

টাঙ্গাইল জেলার কবি ও লেকক

রফিক আজাদ, আশরাফ ছিদ্দীকি, আবু কায়সার বুলবুল খান মাহবুব, মাহবুব সাদিক, শ্যামল দাশ, আবু মাসুম, মাহমুদ কামাল, রাশেদ রহমান, আবুল কালাম আজাদ বঙ্গবাসী, এমরান হাসান।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. বাংলাদেশ জাতীয় তথ্য বাতায়ন (জুন, ২০১৪)। "এক নজরে জেলা"। গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার। সংগৃহীত ২৬ জুন, ২০১৪ 

আনুষঙ্গিক নিবন্ধ[সম্পাদনা]