কুড়িগ্রাম-২

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

স্থানাঙ্ক: ২৫°৪৯′ উত্তর ৮৯°৩৮′ পূর্ব / ২৫.৮১° উত্তর ৮৯.৬৪° পূর্ব / 25.81; 89.64

কুড়িগ্রাম-২
জাতীয় সংসদ-এর
নির্বাচনী এলাকা
কুড়িগ্রাম-২.svg
জেলাকুড়িগ্রাম জেলা
বিভাগরংপুর বিভাগ
নির্বাচকমণ্ডলী৪,৯৩,৩৩৬ (২০১৮)[১]
বর্তমান নির্বাচনী এলাকা
সৃষ্ট১৯৮৪
দলজাতীয় পার্টি (এরশাদ)
বর্তমান সাংসদপনির উদ্দিন আহমেদ

কুড়িগ্রাম-২ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি কুড়িগ্রাম জেলায় অবস্থিত জাতীয় সংসদের ২৬নং আসন।

সীমানা[সম্পাদনা]

কুড়িগ্রাম-২ আসনটি কুড়িগ্রাম জেলার রাজারহাট উপজেলা, ফুলবাড়ি উপজেলাকুড়িগ্রাম সদর উপজেলা নিয়ে গঠিত।[২]

নির্বাচিত সাংসদ[সম্পাদনা]

নির্বাচন সদস্য দল
১৯৮৬ তাজুল ইসলাম চৌধুরী জাতীয় পার্টি[৩][৪]
ফেব্রুয়ারি ১৯৯৬ মোঃ উমর ফারুক বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল
২০০১ তাজুল ইসলাম চৌধুরী ইসলামী জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট
২০০৮ হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ জাতীয় পার্টি (এরশাদ)
২০০৯ উপ-নির্বাচন জাফর আলী বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ
২০১৪ তাজুল ইসলাম চৌধুরী জাতীয় পার্টি (এরশাদ)
২০১৮ পনির উদ্দিন আহমেদ জাতীয় পার্টি (এরশাদ)

নির্বাচন[সম্পাদনা]

২০১০-এর দশকে নির্বাচন[সম্পাদনা]

বিরোধীদলগুলি ২০১৪ সালের সাধারণ নির্বাচন বর্জন করে তাদের প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিলে তাজুল ইসলাম চৌধুরী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন।[৫]

২০০০-এর দশকে নির্বাচন[সম্পাদনা]

২০০৮ সালের সাধারণ নির্বাচনে হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ তিনটি আসনে দাড়ান: রংপুর-৩, কুড়িগ্রাম-২ ও ঢাকা-১৭। সবগুলি আসনে জয়ী হবার পর, তিনি ঢাকা-১৭ আসনকে প্রতিনিধিত্ব করার জন্য বেছে নেন; এর ফলে বাকী দুই আসনে উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এপ্রিল ২০০৯ সালের উপ-নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের জাফর আলী নির্বাচিত হন।[৬]

Kurigram-2 by-election, 2009[৭]
দল প্রার্থী ভোট % ±%
আওয়ামী লীগ জাফর আলী ১৪০,৭৪৮ ৬৫.৯ প্র/না
জাতীয় পার্টি (এ) গোলাম হাবিব দুলাল ৪৬,৬১৯ ২১.৮ -৫০.৯
ইসলামী আন্দোলন মো: মুস্তাফিজুর রহমান ১৩,৪৩৯ ৬.৩ -২.২
বিএনপি তাজুল ইসলাম চৌধুরী ১২,৯১৫ ৬.০ -১২.২
সংখ্যাগরিষ্ঠতা ৯৪,১২৯ ৪৪.০ -১০.৬
মোট ২১৩,৭২১ ৬৪.৩ -২২.৪
জাতীয় পার্টি (এ) থেকে আওয়ামী লীগ অর্জন করে
সাধারণ নির্বাচন ২০০৮: কুড়িগ্রাম-২[৮][৯]
দল প্রার্থী ভোট % ±%
জাতীয় পার্টি (এ) হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ ২০৯,৫০৫ ৭২.৭ প্র/না
বিএনপি তাজুল ইসলাম চৌধুরী ৫২,৩৭৪ ১৮.২ +১২.০
ইসলামী আন্দোলন মো: মুস্তাফিজুর রহমান ২৪,৩৭২ ৮.৫ প্র/না
বাসদ জাহেদুল হক মিলু ৯৭১ ০.৩ প্র/না
এলডিপি সুলতান আহমেদ ৬০৫ ০.২ প্র/না
বিকল্পধারা ভুদেব চক্রবর্তী ২৫৯ ০.১ প্র/না
সংখ্যাগরিষ্ঠতা ১৫৭,১৩১ ৫৪.৬ +৪৮.০
মোট ২৮৮,০৩২ ৮৬.৭ +১৩.৭
ইসলামী জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট থেকে জাতীয় পার্টি (এ) অর্জন করে
সাধারণ নির্বাচন ২০০১: কুড়িগ্রাম-২[১০]
দল প্রার্থী ভোট % ±%
ইসলামী জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট তাজুল ইসলাম চৌধুরী ১২৩,৮৮৬ ৪৯.৯ প্র/না
আওয়ামী লীগ আমসা আমিন ১০৭,৩৯৮ ৪৩.৩ +৫.১
বিএনপি মো: লুৎফর রহমান ১৫,৫০৮ ৬.২ -৪.৩
বাংলাদেশ সমাজতান্ত্রিক দল (বাসদ-খালেকুজ্জামান) জাহেদুল হক মিলু ১,১২০ ০.৫ প্র/না
স্বতন্ত্র মো: মতিয়ার রহমান ৩৬৩ ০.১ প্র/না
সংখ্যাগরিষ্ঠতা ১৬,৪৮৮ ৬.৬ +১.৮
মোট ২৪৮,২৭৫ ৭৩.০ +০.৪
জাতীয় পার্টি (এ) থেকে ইসলামী জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট অর্জন করে

১৯৯০-এর দশকে নির্বাচন[সম্পাদনা]

সাধারণ নির্বাচন জুন ১৯৯৬: কুড়িগ্রাম-২[১০]
দল প্রার্থী ভোট % ±%
জাতীয় পার্টি (এ) তাজুল ইসলাম চৌধুরী ৮২,১৫৮ ৪৩.০ +০.৮
আওয়ামী লীগ জাফর আলী ৭২,৯৬২ ৩৮.২ +৬.৬
বিএনপি একেএম মাইদুল ইসলাম ২০,০১৯ ১০.৫ +৩.৯
জামায়াতে ইসলামী আ ন ম সোলেমান ৭,৭১৯ ৪.০ -৫.৫
ইসলামী ঐক্য জোট মো: আব্দুল গনি ৬,৬৭০ ৩.৫ +০.২
জাকের পার্টি মো: সিরাজুল ইসলাম ৭৫১ ০.৪ -০.৫
স্বতন্ত্র এ এম এম সামসুদ্দিন মিয়া ৩৫৩ ০.২ প্র/না
বাংলাদেশ সমাজতান্ত্রিক দল (খালেকুজ্জামান) জাহেদুল হক মিলু ৩০৫ ০.২ -০.৩
গণফোরাম সানালাল বকসি ১৭৩ ০.১ প্র/না
স্বতন্ত্র ভুদেব চক্রবর্তী ১২২ ০.১ প্র/না
সংখ্যাগরিষ্ঠতা ৯,১৯৬ ৪.৮ -৫.৮
মোট ১৯১,২৩২ ৭২.৬ +২২.১
জাতীয় পার্টি (এ) নির্বাচনী এলাকা ধরে রাখে
সাধারণ নির্বাচন ১৯৯১: কুড়িগ্রাম-২[১০]
দল প্রার্থী ভোট % ±%
জাতীয় পার্টি (এ) তাজুল ইসলাম চৌধুরী ৫৯,০৪৯ ৪২.২
আওয়ামী লীগ জাফর আলী ৪৪,১৮১ ৩১.৬
জামায়াতে ইসলামী মো: সুলাইমান আলী ১৩,২৮৪ ৯.৫
বিএনপি মো: আব্দুস সালাম ৯,১৭৬ ৬.৬
ইসলামী ঐক্য জোট মো: জাকারিয়া ৪,৬৪৬ ৩.৩
জাসদ মো: আনসার আলী ৩,০০০ ২.১
বাংলাদেশ জনতা পার্টি এ কে এম সামসুদ্দোহা ২,৭২০ ১.৯
জাকের পার্টি মো: কেরাম আলী ১,২৫৮ ০.৯
স্বতন্ত্র গোলাম মোর্শেদ ৭৪১ ০.৫
বাংলাদেশ সমাজতান্ত্রিক দল (খালেকুজ্জামান) শুধাংশু চক্রবর্তী ৭২২ ০.৫
জেএসডি মোত্লেবর রহমান ৪৩১ ০.৩
কমিউনিস্ট পার্টি হারুন অর রশিদ লাল ৪১৬ ০.৩
বাংলাদেশ মুসলিম লীগ (মাতিন) সৈয়দা গুলরুখ মহল সিরাজি ১৩৮ ০.১
সংখ্যাগরিষ্ঠতা ১৪,৮৬৮ ১০.৬
মোট ১৩৯,৭৬২ ৫০.৫
জাতীয় পার্টি (এ) নির্বাচনী এলাকা ধরে রাখে

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. এমরান হোসাইন শেখ (১০ অক্টোবর ২০১৮)। "কোন আসনে কত ভোটার"বাংলা ট্রিবিউন। ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  2. "জাতীয় সংসদীয় আসনবিন্যাস (২০১৩) গেজেট" (PDF)। নির্বাচন কমিশন বাংলাদেশ। ১৬ জুন ২০১৫ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০১৫ 
  3. "৩য় জাতীয় সংসদ সদস্যদের তালিকা" (PDF)বাংলাদেশ সংসদ। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  4. "৪র্থ জাতীয় সংসদ সদস্যদের তালিকা" (PDF)বাংলাদেশ সংসদ। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৪ 
  5. "১৫৩ আসনে জয়ী যারা"দৈনিক সমকাল। ৪ জানুয়ারি ২০১৪। ৬ ডিসেম্বর ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৬ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  6. "কুড়িগ্রামের সংসদীয় ৪টি আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীরা ভোটের মাঠে"। দৈনিক সকালের কাগজ। সেপ্টেম্বর ১৬, ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১৭ ডিসেম্বর ২০১৮ 
  7. পরিসংখ্যান প্রতিবেদন ৯ম জাতীয় সংসদ নির্বাচন [Statistics Report 9th Parliament Election] (PDF)বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন। পৃষ্ঠা 323। 
  8. "৯ম জাতীয় সংসদ নির্বাচন" (PDF)বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন। ২৮ নভেম্বর ২০১৮ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ নভেম্বর ২০১৮ 
  9. "মনোনয়ন জমাদানের তালিকা"বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন। ১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ 
  10. "Parliament Election Result of 1991,1996,2001 Bangladesh Election Information and Statistics"ভোট মনিটর নেটওয়ার্ক (ইংরেজি ভাষায়)। ২৯ ডিসেম্বর ২০০৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]