বহরমপুর কোর্ট রেলওয়ে স্টেশন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বহরমপুর কোর্ট
এক্সপ্রেস ট্রেন, যাত্রী ট্রেন এবং শহরতলি ট্রেন স্টেশন
Baharmpur Railway Station, Murshidabad.jpg
অবস্থানবহরমপুর, মুর্শিদাবাদ জেলা, পশ্চিমবঙ্গ
 ভারত
স্থানাঙ্ক২৪°০৫′২১″ উত্তর ৮৮°১৫′৪৯″ পূর্ব / ২৪.০৮৯৩° উত্তর ৮৮.২৬৩৭° পূর্ব / 24.0893; 88.2637
উচ্চতা১৮ মি (৫৯ ফু)
মালিকানাধীনভারতীয় রেল
পরিচালিতপূর্ব রেল
লাইন (সমূহ)শিয়ালদহ - লালগোলা রেলপথ
প্ল্যাটফর্ম
রেলপথ
নির্মাণ
গঠনের ধরণআদর্শ (স্থল স্টেশন)
পার্কিংহ্যাঁ
অন্য তথ্য
অবস্থাসক্রিয়
স্টেশন কোডবিপিসি
জোন(সমূহ) পূর্ব রেল
বিভাগ(সমূহ) শিয়ালদহ
ইতিহাস
বৈদ্যুতীকরণহ্যাঁ
আগের নামইস্ট ইন্ডিয়ান রেলওয়ের কোম্পানির
অবস্থান

বহরমপুর কোর্ট রেলওয়ে স্টেশন হল পূর্ব রেল জোনের শিয়ালদহ-রাণাঘাট-কৃষ্ণনগর-লালগোলা রেলপথের একটি রেলওয়ে স্টেশন। ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের মুর্শিদাবাদ জেলার অন্তর্গত স্টেশনটি বহরমপুর এবং পার্শ্ববর্তী এলাকায় রেল পরিষেবা প্রদান করে। যাত্রী ট্রেন (প্যাসেঞ্জার) এবং এক্সপ্রেস ট্রেনগুলি রেলওয়ে স্টেশনের উপর দিয়ে যায়।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

প্রাথমিকভাবে ইস্টার্ন বেঙ্গল রেলওয়ের অন্তর্গত কলকাতা (শিয়ালদহ)-কুষ্টিয়া রেলপথ ১৮৬২ সালে যাত্রী পরিবহনের জন্য খোলা হয়েছিল। রাণাঘাট - লালগোলার শাখা রেলপথ ১৯০৫ সালে শিয়ালদহ রাণাঘাট রেলপথের একটি সম্প্রসারিত অংশ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। বহরমপুর কোর্ট রেলওয়ে স্টেশন নামটিতে অতিতে বহরমপুর-এর ব্রিটিশ উচ্চারণ "বৈহমপুর" হিসাবে ছিল। এই রেলওয়ে স্টেশনটি মুর্শিদাবাদ শহরে অবস্থিত। বহরমপুর কোর্ট ও শিয়ালদহের মধ্যবর্তী রেল দূরত্ব ১৮৬ কিলোমিটার (১১৬ মাইল)। ভারতীয় রেলওয়ে দ্বারা দ্বৈত ট্র্যাকের বিদ্যুতায়ন এবং উদ্বোধনের পর, এই স্টেশনটি তিনটি প্ল্যাটফর্মে পরিবর্তিত ও পুনর্নির্মিত করা হয়েছিল।[১][২]

অবস্থান[সম্পাদনা]

বহরমপুর কোর্টে রেলওয়ে স্টেশন পশ্চিমবঙ্গের বহরমপুর শহরে অবস্থিত। শিয়ালদহ-ব্যারাকপুর-নৈহাটি-কল্যাণী-রাণাঘাট-কৃষ্ণনগর-পলাশি-বেলডাঙ্গা-বহরমপুর-মুর্শিদাবাদ-জিয়াগঞ্জ-লালগোলার মধ্য দিয়ে রেলপথটি অগ্রসর হয়েছে। স্টেশন শিয়ালদহ রেলওয়ে স্টেশন থেকে ১৮৬ কিলোমিটার (১১৬ মাইল) দূরে মুর্শিদাবাদ জেলায় অবস্থিত।

বারহামপুর কোর্ট স্টেশনের সম্পূর্ণ দৃশ্য

এই রেল স্টেশনটি মুর্শিদাবাদ ও পশ্চিমবঙ্গের গুরুত্বপূর্ণ রেলওয়ে স্টেশনগুলির একটি। এই স্টেশনটি মুর্শিদাবাদ জেলার সর্বাধিক অংশের থেকে যাত্রী ব্যবহার করেন কলকাতায় পৌঁছানোর জন্য।

প্রধান ট্রেন[সম্পাদনা]

বহরমপুর কোর্ট থেকে কিছু গুরুত্বপূর্ণ ট্রেন:

অবকাঠামো[সম্পাদনা]

দ্বৈত রেল ট্র্যাক স্থাপন করার পর রেলওয়ে স্টেশনে ২ টি প্ল্যাটফর্ম রয়েছে। বর্তমানে দুটি নতুন প্ল্যাটফর্ম নির্মাণ করা হচ্ছে, কিছু নতুন ট্রেন স্টেশনটি অন্তর্ভুক্ত করা হবে।

বৈদ্যুতিকীকরণ[সম্পাদনা]

রাণাঘাট-লালগোলা বিভাগকে ২০১০ সালে বিদ্যুতায়িত করা হয়েছে।[৩][৪]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Distance Summary"alldistancebetween.com। সংগ্রহের তারিখ ১১ এপ্রিল ২০১৮ 
  2. "Eastern Bengal Railway"irfca.org। সংগ্রহের তারিখ ১১ এপ্রিল ২০১৮ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  3. "Krishnanagar-Lalgola Railway Electrification"projectstoday.com। সংগ্রহের তারিখ ১১ এপ্রিল ২০১৮ 
  4. The Indian Railways Fan Club। "History of Electrification"। সংগ্রহের তারিখ ১১ এপ্রিল ২০১৮ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]