লেংপুই বিমানবন্দর

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
লেংপুই বিমানবন্দর
Lengpui Airport Building.JPG
লেংপুই বিমানবন্দরের টার্মিনাল ভবন
সংক্ষিপ্ত বিবরণ
বিমানবন্দরের ধরনপাবলিক
মালিকভারত সরকার
পরিচালকভারত সরকার/ভারতীয় বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ
সেবা দেয়আইজল
অবস্থানলেংপুই, মিজোরাম, ভারত
এএমএসএল উচ্চতা৪০৫ মিটার / ১.৪ ফুট
স্থানাঙ্ক২৩°৫০′১৮.৩৯″ উত্তর ০৯২°৩৭′১৩.২৯″ পূর্ব / ২৩.৮৩৮৪৪১৭° উত্তর ৯২.৬২০৩৫৮৩° পূর্ব / 23.8384417; 92.6203583স্থানাঙ্ক: ২৩°৫০′১৮.৩৯″ উত্তর ০৯২°৩৭′১৩.২৯″ পূর্ব / ২৩.৮৩৮৪৪১৭° উত্তর ৯২.৬২০৩৫৮৩° পূর্ব / 23.8384417; 92.6203583
মানচিত্র
এজেএল ভারত-এ অবস্থিত
এজেএল
এজেএল
ভারতে লেংপুই বিমানবন্দরের অবস্থান
রানওয়েসমূহ
দিকনির্দেশনা দৈর্ঘ্য পৃষ্ঠতল
মি ফুট
১৭/৩৫ ২,৫০০ ৮,২০০ আস্ফাল্ট
পরিসংখ্যান (এপ্রিল ২০১৭ - মার্চ ২০১৮)
যাত্রী সংখ্যা2,95,379 (বৃদ্ধি25.4%)
বিমান সংখ্যা3,543 (বৃদ্ধি0.9%)

লেংপুই বিমানবন্দর (আইএটিএ: এজেএল, আইসিএও: ভিইপিএল) হল ভারতের মিজোরাম রাজ্যের রাজধানী শহর আইজালে অবস্থিত একটি গার্হস্থ্য বিমানবন্দর বা অন্তর্দেশীয় বিমানবন্দর

বিমানবন্দরটি গুয়াহাটিকলকাতার সাথে দৈনিক উড়ান এবং ইম্ফলের সপ্তাহে সাথে তিনটি উড়ান দ্বারা সংযুক্ত রয়েছে এবং এটি মিজোরামের রাজধানী আইজল থেকে ৩২ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত। লেংপুই বিমানবন্দরটি রাজ্য সরকার কর্তৃক নির্মিত প্রথম বড় বিমানবন্দর।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

বিমানবন্দরটি ₹৯৭৯ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত হয়েছিল [৬] এবং এটি দুই বছর দুই মাসের (মোট ১৪ মাস) রেকর্ড সময়ের মধ্যে সম্পন্ন হয়েছিল। নির্মাণ কাজটি ১৯৯৫ সালে ডিসেম্বর মাসে শুরু হয় এবং ১৯৯৮ সালের ফেব্রুয়ারী মাসে সম্পন্ন হয়। বিমানবন্দরটি ৩০০ টি আগমনকারী এবং বহির্মুখী যাত্রীদের ব্যবহারের জন্য উপযোগী হতে পারে বলে আশা করা যায়। [৭] এই বিমানবন্দর নির্মাণের আগে, আইজল শহরটি তার নিকটতম বিমানবন্দর শিলচর বিমানবন্দর থেকে ২০৫ কিলোমিটার (১২৭ মাইল) এবং নিকটবর্তী রেলওয়ের স্টেশন বেহারবাড়ির থেকে ১৩০- কিলোমিটার (৮১ মাইল) দূরে ছিল। ভূমি অধিগ্রহণের বিষয়ে তথ্যে পাওয়া গেছে যে প্রায় ৬৫ শতাংশ জমি অধিগ্রহণ করা হয়েছে, কিছু উচ্চ পদস্থ সরকারী কর্মকর্তা ও আইজলের রাজনৈতিক নেতারা খুব কম মূল্যে লোংপুই গ্রামে মানুষের কাছ থেকে জমি কেনা শুরু করে। তারপর তারা এখানকার বিমানবন্দরে নির্মাণের জন্য সরকারকে জমি দান করে, যার জন্য ধনীরা প্রকৃত কৃষকদের তুলনায় জমি দাতা হিসাবে অনেক বেশি ক্ষতিপূরণ পায়। [৮] পূর্বে, লোংপুই এয়ার ডেকান দ্বারাও উড়ান সেবা প্রদান কর হত যা পরে কিংফিশার রেড নামে বিমানসংস্থার সাথে মিশে যায়, কিন্তু এপ্রিল ২০১৩ সালে বিমানসংস্থাটি লেংপুই থেকে উড়ান পরিষেবা বন্ধ করে দেয়।

প্রযুক্তিগত বিবরণ[সম্পাদনা]

লেংপুই বিমানবন্দরের ২,৫০০ মিটার দীর্ঘ রানওয়ে রয়েছে। এটি অন্য বিমানবন্দরের রানওয়ের থেকে অনন্য, কারণ এটিতে অনেকগুলি নিম্নমুখী পাহাড়ী জলপ্রবাহ দেখা যায়। [৯] বিমানবন্দরটি ভারতের তিনটি টেবিল শীর্ষ রানওয়ে (কোজিকোড এবং ম্যাঙ্গালোরের মতো) বিমানবন্দরগুলির মধ্যে একটি [১০] যা একটি অপটিক্যাল বিভ্রম সৃষ্টি করে যার জন্য পাইলট বা বিমানচালকে বিমানবন্দরে বিমান অবতরনের জন্য খুবই সুনির্দিষ্ট পদ্ধতির প্রয়োজন। [১১] বর্তমানে, লেংপুই বিমানবন্দরে "ক্যাট-ই ইন্সট্রুমেন্ট ল্যান্ডিং সিস্টেম" স্থাপন করা হয়েছে [১২] যা কম দৃশ্যমান অবস্থার সময় বিমানগুলিকে নিরাপদে বিমানবন্দরে অবতরণ করাতে পারবে। বিমানবন্দরে [১৩] একটি রানওয়ে নিরাপত্তা এলাকা [১৪] এবং বিচ্ছিন্নতা পার্কিং বে নির্মাণ পরিকল্পনার অধীনে রয়েছে। [১৫] ভারতীয় বিমানবাহিনী লেংপুই বিমানবন্দরে কমপক্ষে ৪ টি জেটি যোদ্ধাদের স্টেশন করার পরিকল্পনা করছে। [১৬] ইন্ডিয়ান অয়েল লেংপুই বিমানবন্দরে বিমানের জ্বালানি পরিষেবা বিভাগ পরিচালনা করে।

লেংপুই বিমানবন্দরের প্রথম পরিক্ষামূলক উড়ান।
লেংপুই বিমানবন্দরের টার্মিনাল ভবন।

বিমান সংস্থা এবং গন্তব্যস্থল[সম্পাদনা]

বিমান সংস্থাগন্তব্যস্থল
এয়ার ইন্ডিয়া ইম্ফল, কলকাতা

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Traffic News for the month of March 2018: Annexure-III" (PDF)Airports Authority of India। ১ মে ২০১৮। পৃষ্ঠা 3। সংগ্রহের তারিখ ১ মে ২০১৮ 
  2. "Traffic News for the month of March 2018: Annexure-II" (PDF)Airports Authority of India। ১ মে ২০১৮। পৃষ্ঠা 3। ১ মে ২০১৮ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ মে ২০১৮ 
  3. "Traffic News for the month of March 2018: Annexure-IV" (PDF)Airports Authority of India। ১ মে ২০১৮। পৃষ্ঠা 3। ১ মে ২০১৮ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ মে ২০১৮ 
  4. "Traffic News for the month of March 2017: Annexure-III" (PDF)Airports Authority of India। ২৭ এপ্রিল ২০১৭। পৃষ্ঠা 3। ২৮ এপ্রিল ২০১৭ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ এপ্রিল ২০১৭ 
  5. "Traffic News for the month of March 2017: Annexure-II" (PDF)Airports Authority of India। ২৭ এপ্রিল ২০১৭। পৃষ্ঠা 3। ২৮ এপ্রিল ২০১৭ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ এপ্রিল ২০১৭ 
  6. "Advani inaugurates Lengpui airport"NENA NEWS। ডিসেম্বর ২২, ১৯৯৮ – জানুয়ারি ৬, ১৯৯৯। ৬ ফেব্রুয়ারি ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৪ আগস্ট ২০১২ 
  7. "LENGPUI AIRPORT"। Mizoram PWD। ২৭ এপ্রিল ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৪ আগস্ট ২০১২ 
  8. Pranami, Garg। "Lengpui Airport: The Veiled and The Real Victims"। সংগ্রহের তারিখ ৪ সেপ্টেম্বর ২০১২ 
  9. "Lengpui Airport safe for passenger flights, claims Aviation Wing"mizo news। ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৪ আগস্ট ২০১২ 
  10. "Indian skies are safe for flying: Kanu Gohain, Ex-Director General, DGCA"The Economic Times। ২০১০-০৫-২৩। সংগ্রহের তারিখ ২০১০-০৫-২৩ 
  11. "Tabletop runway creates an optical illusion, says pilot"The Hindu। Chennai, India। ২০১০-০৫-২৩। 
  12. "LENGPUI AIRPORT ILS"। DIPR Mizoram। সংগ্রহের তারিখ ১৪ আগস্ট ২০১২ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  13. PTI। "Now, planes can land in Mizoram in low light condition"Sify News। সংগ্রহের তারিখ ৩০ আগস্ট ২০১২ 
  14. Sarma, Pankaj। "Panel for safer runway at Lengpui"Telegraph India। সংগ্রহের তারিখ ১৫ আগস্ট ২০১২ 
  15. "Kingfisher leh Air India ten Mizoram sum nuai 117 an ba"The Zozam Times। ৩ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৫ আগস্ট ২০১২ 
  16. "IAF-in Lengpui Airport-ah Jet Fighter 4 dah an dil"The Zozamtimes। সংগ্রহের তারিখ ৩০ আগস্ট ২০১২ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]