বাগমারা উপজেলা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বাগমারা
উপজেলা
বাগমারা বাংলাদেশ-এ অবস্থিত
বাগমারা
বাগমারা
বাংলাদেশে বাগমারা উপজেলার অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২৪°৩৩′৫১″ উত্তর ৮৮°৪৮′১৬″ পূর্ব / ২৪.৫৬৪১৭° উত্তর ৮৮.৮০৪৪৪° পূর্ব / 24.56417; 88.80444স্থানাঙ্ক: ২৪°৩৩′৫১″ উত্তর ৮৮°৪৮′১৬″ পূর্ব / ২৪.৫৬৪১৭° উত্তর ৮৮.৮০৪৪৪° পূর্ব / 24.56417; 88.80444 উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
দেশ বাংলাদেশ
বিভাগরাজশাহী বিভাগ
জেলারাজশাহী জেলা
আয়তন
 • মোট৩৬৬.৩০ কিমি (১৪১.৪৩ বর্গমাইল)
জনসংখ্যা (২০১১)[১]
 • মোট৩,৫২,৯৬৯
 • জনঘনত্ব৯৬০/কিমি (২৫০০/বর্গমাইল)
সময় অঞ্চলবিএসটি (ইউটিসি+৬)
প্রশাসনিক
বিভাগের কোড
৫০ ৮১ ১২
ওয়েবসাইটপ্রাতিষ্ঠানিক ওয়েবসাইট Edit this at Wikidata

বাগমারা উপজেলা বাংলাদেশের রাজশাহী জেলার অন্তর্গত একটি বৃহৎ উপজেলা

ইতিহাস[সম্পাদনা]

ইতিহাস ও ঐতিহ্যঃউত্তরবঙ্গ রাজশাহীর এক গৌরব গাঁথা স্থান হচ্ছে বাগমারা উপজেলা। কথিত আছে এখানে এক সময় বন-জঙ্গলে পরিপূর্ণ ছিল। বনে থাকতো ভয়ঙ্কর যত বাঘ-বাঘিনী। একদিন এক লোককে বাঘে আক্রমণ করলে তিনি তাঁর হাতে থাকা লাঠি দিয়ে সেই বাঘ কে মেরে ফেলেন। ফলশ্রম্নতিতে এ উপজেলার নামকরণ হয় ‘‘বাগমারা’’। আবার শোনা যায় বৃটিশ আমলে বিস্তীর্ণ বন-জঙ্গল কেটে জনবসতি গড়ে উঠায় উপজেলার নামকরণ করা হয় ‘‘বাগমারা’’। এছাড়াও কথিত আছে বর্তমান বাগমারা থানা ভবন জমির উপর বিরাট একটি বাগান ছিল। বাগানটি কেটে থানা ভবণ নির্মাণের কারনেও অঞ্চলটি ‘‘বাগমারা’’ নামে পরিচিতি পায়। বাগমারার প্রাচীন জায়গা হিসেবে তাহেরপুর দেশ ও বিদেশে পরিচিতি লাভ করে। জানা যায় বাংলার বার ভূইয়ার অন্যতম তাহের ভূইয়া সদলবলে তাহেরপুর আসেন এবং তাঁর নামানুসারে ‘‘তাহেরপুর’’ নামকরণ হয়। তাহের ভূইয়া ইংরেজ শাসকদের খাজনা দিতে অস্বীকৃতি জানালে ইংরেজ সেনাবাহিনী তাহের ভূইয়াকে যুদ্ধের মাধ্যমে পরাজিত করে রাজা কংস নারায়ন কে খাজনার বিনিময়ে তাহেরপুরের রাজত্ব প্রদান করে। ১৪৮২ সালে রাজা কংস নারায়ন উপমহাদেশে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রথম শারদীয় দুর্গোৎসব পালন করেন। তখন থেকেই প্রতি বছর হিন্দু ধর্মে বিশ্বাসীরা তাদের ধর্মের প্রধান উৎসব হিসেবে শারদীয় দুর্গাপূজা পালন করে আসছে। বাগমারা উপজেলা প্রতিষ্ঠিত হয় ১৯৮৩ সালে। ঐতিহাসিক স্থানের মধ্যে তাহেরপুর এবং বীরকুৎসা উল্লেখযোগ্য ।

অবস্থান[সম্পাদনা]

বাগমারা উপজেলার উত্তরে নওগাঁ জেলার মান্দা ও আত্রাই উপজেলা, দক্ষিণে দূর্গাপুরপুঠিয়া উপজেলা, পূর্বে নাটোর সদর ও আত্রাই উপজেলা এবং পশ্চিমে মোহনপুর ও মান্দা উপজেলা। উপজেলার আয়তন ৩৬৬.৩০ বর্গ কিলোমিটার। এ উপজেলাটি ২৪ডিগ্রী ৩০ফিট ও ২৪ডিগ্রী ৪১ফিট উত্তর অক্ষাংশ এবং ৮৮ডিগ্রী ৪১ফিট ও ৮৮ডিগ্রী ৫৭ফিট পূর্ব দ্রাঘিমাংশের মধ্যে অবস্থিত। বাগমারা উপজেলাটি রাজশাহী শহর হতে প্রায় ৫৫ কিলোমিটার উত্তর পূর্বে অবস্থিত। ১৬টি ইউনিয়ন ও ২টি পৌরসভা নিয়ে এ উপজেলা গঠিত। পৌরসভা দুটি হচ্ছে তাহেরপুর ও ভবানীগঞ্জ। এটি জাতীয় সংসদের রাজশাহী চার আসন নামে পরিচিত।

পৌরসভা সমূহ[সম্পাদনা]

বাগমারা উপজেলার ০২ টি পৌরসভা

  1. ভবানীগঞ্জ
  2. তাহেরপুর

ইউনিয়ন সমূহ[সম্পাদনা]

বাগমারা উপজেলার ১৬টি ইউনিয়ন

  1. গোবিন্দপাড়া
  2. নরদাশ
  3. দ্বীপপুর
  4. বড়বিহানালী
  5. আউচপাড়া
  6. শ্রীপুর
  7. বাসুপাড়া
  8. কাচারী কোয়ালীপাড়া
  9. শুভডাঙ্গা
  10. মাড়িয়া
  11. গণিপুর
  12. ঝিকরা
  13. গোয়ালকান্দি
  14. হামিরকুৎসা
  15. যোগীপাড়া
  16. সোনাডাঙ্গা।[২]

অবকাঠামো[সম্পাদনা]

  • বাগমারা উপজেলা সদর ভবানীগঞ্জে অবস্থিত।
  • উপজেলা ভূমি অফিস ০১টি
  • ইউনিয়ন ভূমি অফিস ০৭টি
  • ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কমপ্লেক্স ১০টি
  • ইউনিয়ন স্বাস্থ্য উপকেন্দ্র ০৬টি
  • পুলিশ ক্যাম্প ০৩টি, তদন্ত- কেন্দ্র ০২টি
  • বঙ্গবন্ধু স্মৃতি যাদুঘর কমপ্লেক্স ১ টি
  • ০১ টি থানা বাগমারা ২টি পুলিশ ফাঁড়ি হাটগাঙ্গোপাড়া ও ঝিকড়া এবং ০১ টি তদন্ত ক্যাম্প যা ভাগনদীতে অবস্থিত
  • ভবানীগঞ্জ নিউমার্কেট,ভবানীগঞ্জ বাজার
  • উপজেলা সার্ভার স্টেশন ১ টি ভবানীগঞ্জে অবস্থিত
  • ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশন ১ টি,শিকদারী বাজারে অবস্থিত।

জনসংখ্যার উপাত্ত[সম্পাদনা]

২০১১ সালের হিসেব অনুযায়ী বাগমারা উপজেলায় মোট ৩,৫২,৯৬৯ জন মানুষ বসবাস করেন। প্রতি বর্গ কিলোমিটারে মানুষ বসবাস করেন ৯৬০ জন।

শিক্ষা[সম্পাদনা]

বাগমারায় সাক্ষরতার হার ৩৮.৯৯% । এর মধ্যে পুরুষ ৪৬.৯৭% এবং মহিলা ৩০.৭৬%। বাগমারায় মোট বেসরকারী কলেজ আছে ২১ টি,সরকারী কলেজ ১ টি। মাধ্যমিক এবং নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয় ৯৭ টি, মাদ্রাসা ৪৭ টি এবং সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় আছে ২১০ টি। বাগমারার অন্যতম প্রধান শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান হলো ভবানীগঞ্জ সরকারী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ(পূর্বে এর নাম ছিলো ভবানীগঞ্জ ডিগ্রী কলেজ) এবং তাহেরপুর ডিগ্রী কলেজ।এছাড়া ১৮৯১ সালে প্রতিষ্ঠিত ঝিকরা ইউনিয়নের তেগাছি সেনপাড়া গ্রামে অবস্থিত বিপ্রকয়া সেনপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়, ১৮৯৮ সালে প্রতিষ্ঠিত আচিনঘাট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় এবং ১৯১৭ সালে প্রতিষ্ঠিত বীরকুৎসা অবিনাশ উচ্চ বিদ্যালয় দেশের অন্যতম প্রাচীন বিদ্যালয়।

নদ-নদী ও বিল[সম্পাদনা]

বারনই নদী, রাণী নদী, কম্পো নদী, কোলাবিল, বিল কালাই, বিলশনি, বিল সূতি, বিল মাললী, জোকার বিল, যশোবিল, মরা বিল, হাতিয়ার বিল, উধাঢুল বিল, দরগাতা বিল ইত্যাদি। উলেখ্য যে বিল কালাই,বিলশনি, বিল সূতি, বিল মাললী, বারনই নদী ও চলনবিল মৎস উন্নয়ন প্রকল্পাধীন রয়েছে।

দর্শনীয় স্থান[সম্পাদনা]

কৃতী ব্যক্তিত্ব[সম্পাদনা]

  • ড. আবুল হাসান, পরিচালক, দুর্নীতি দমন কমিশন, বাংলাদেশ। কবি, নাট্যকার।
  • আলহাজ্ব মো. নাসির উদ্দন সরকার, প্রতিষ্ঠাতা, নাসিরগন্জ ডিগ্রি কলেজ (১৯৯৫) এবং নাসিরগন্জ পোস্ট অফিস (১৯৬৮)।
  • সরদার আমজাদ হোসেন সাবেক মৎস্য ও পশু সম্পদ মন্ত্রী, খাদ্য প্রতিমন্ত্রী, ভূমি মন্ত্রী দায়িত্বপ্রাপ্ত
  • ইঞ্জিনিয়ার মোহাম্মদ এনামুল হক,মাননীয় সংসদ সদস্য-৫৪, রাজশাহী-৪
  • যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা আলী খাজা এম,এ মজিদ
  • মিজানুর রহমান চঞ্চল, সহকারী পরিচালক, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়; ঢাকা, বাংলাদেশ।।
  • ড.জাহিদ দেওয়ান শামীম,সিনিয়র সাইন্টিস্ট,নিউইয়র্ক ইউনিভার্সিটি স্কুল অব মেডিসিন
  • রবিউল ইসলাম সজিব

তথ্যসুত্র[সম্পাদনা]

  1. বাংলাদেশ জাতীয় তথ্য বাতায়ন (জুন ২০১৪)। "এক নজরে বাগমারা"। গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার। ২১ জানুয়ারি ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৫ ডিসেম্বর ২০১৪ 
  2. http://bagmara.rajshahi.gov.bd/node/985346/ইউনিয়ন-সমূহ[স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]