২০২২–২৩ ওয়েস্ট ইন্ডিজ পুরুষ ক্রিকেট দলের অস্ট্রেলিয়া সফর

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
২০২২–২৩ ওয়েস্ট ইন্ডিজ পুরুষ ক্রিকেট দলের অস্ট্রেলিয়া সফর
 
  অস্ট্রেলিয়া ওয়েস্ট ইন্ডিজ
তারিখ ৫ অক্টোবর ২০২২ – ১২ ডিসেম্বর ২০২২
অধিনায়ক প্যাট কামিনস (টেস্ট)
অ্যারন ফিঞ্চ (টি২০আই)
ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েট (টেস্ট)
নিকোলাস পুরান (টি২০আই)
টেস্ট সিরিজ
ফলাফল ২ ম্যাচের সিরিজে অস্ট্রেলিয়া ২–০ ব্যবধানে জয়ী হয়
সর্বাধিক রান মার্নাস লাবাসকাখনি (৫০২) ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েট (১৯৬)
সর্বাধিক উইকেট নাথান লায়ন (১২) আলজারি জোসেফ (৫)
সিরিজ সেরা খেলোয়াড় মার্নাস লাবাসকাখনি (অস্ট্রেলিয়া)
টোয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিক সিরিজ
ফলাফল ২ ম্যাচের সিরিজে অস্ট্রেলিয়া ২–০ ব্যবধানে জয়ী হয়
সর্বাধিক রান ডেভিড ওয়ার্নার (৮৯) কাইল মেয়ারস (৪৫)
সর্বাধিক উইকেট মিচেল স্টার্ক (৬) আলজারি জোসেফ (৫)
সিরিজ সেরা খেলোয়াড় ডেভিড ওয়ার্নার (অস্ট্রেলিয়া)

ওয়েস্ট ইন্ডিজ পুরুষ ক্রিকেট দল ২০২২ সালের অক্টোবর, নভেম্বর ও ডিসেম্বর মাসে দুটি টেস্ট ও দুটি টোয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিক (টি২০আই) ম্যাচ খেলার জন্য অস্ট্রেলিয়া সফর করে।[১] টি২০আই সিরিজটি উভয় দলের জন্য ২০২২ আইসিসি পুরুষ টি২০ বিশ্বকাপের প্রস্তুতি হিসেবে গণ্য হয়।[২] টেস্ট ম্যাচগুলো ২০২১–২০২৩ আইসিসি বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ হিসেবে খেলা হয়।[৩] টি২০আই ম্যাচগুলো প্রথমে ২০২০ সালের অক্টোবরে ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের অস্ট্রেলিয়া সফরে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও কোভিড-১৯ মহামারির কারণে ২০২০ সালের আগস্ট মাসে ম্যাচগুলো স্থগিত করা হয়।[৪] ২০২২ সালের মে মাসে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ) সফরের সূচি নিশ্চিত করে।[৫]

টি২০আই সিরিজে অস্ট্রেলিয়া ২–০ ব্যবধানে জয়ী হয়।[৬] টেস্ট সিরিজেও অস্ট্রেলিয়া ২–০ ব্যবধানে জয়লাভ করে।[৭]

দলীয় সদস্য[সম্পাদনা]

 অস্ট্রেলিয়া  ওয়েস্ট ইন্ডিজ
টেস্ট[৮] টি২০আই[৯] টেস্ট[১০] টি২০আই[১১]

২০২২ সালের ৩ অক্টোবর মার্কাস স্টইনিস চোটের কারণে অস্ট্রেলিয়া দল থেকে ছিটকে যান।[১২] একই দিনে ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলে শিমরন হেটমায়ারের পরিবর্তে শামার ব্রুকসকে নেয়া হয়।[১৩] টেস্ট সিরিজ শুরুর আগে চোটের কারণে রেইমন রিফার ওয়েস্ট ইন্ডিজ দল থেকে ছিটকে যান।[১৪] ২০২২ সালের ৩ ডিসেম্বর ওয়েস্ট ইন্ডিজের টেস্ট দলে মারকিনো মিন্ডলিকে যোগ করা হয়।[১৫] প্রথম টেস্ট ম্যাচ শেষ হওয়ার পর অস্ট্রেলিয়ার টেস্ট দলে মাইকেল নেসার ও ল্যান্স মরিসকে যোগ করা হয়।[১৬] দ্বিতীয় টেস্ট ম্যাচে ফিল্ডার হিসেবে দায়িত্ব পালনের জন্য ওমর ফিলিপসকে জরুরি ভিত্তিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের সাথে যোগ দিতে আহ্বান জানানো হয়।[১৭]

প্রস্তুতিমূলক ম্যাচ[সম্পাদনা]

১৭–১৯ নভেম্বর ২০২২
স্কোরকার্ড
নিউ সাউথ ওয়েলসঅস্ট্রেলীয় রাজধানী অঞ্চল যৌথ একাদশ
৪২৪/৯ঘো (১২০ ওভার)
ডেভন থমাস ৭৭* (৭৯)
রাইলি এয়ার ৩/১৩২ (৩৭ ওভার)
৪২৬/৪ঘো (৯৭ ওভার)
ব্লেক ম্যাকডোনাল্ড ১৭৭* (২৬৫)
রেইমন রিফার ১/২২ (৪ ওভার)
১১৪/৪ (২৮ ওভার)
ডেভন থমাস ৩৫ (৫১)
রাইলি এয়ার ১/১৩ (৫ ওভার)
খেলা ড্র
ফিলিপ ওভাল, ক্যানবেরা
আম্পায়ার: ডেভিড টেলর (অস্ট্রেলিয়া) ও স্টিফেন ডায়োনিজিয়াস (অস্ট্রেলিয়া)
  • ওয়েস্ট ইন্ডিজ টসে জিতে ব্যাটিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।

২৩–২৬ নভেম্বর ২০২২ (দিন/রাত)
স্কোরকার্ড
প্রধানমন্ত্রী একাদশ
৩২২ (৯১.৫ ওভার)
ম্যাট রেনশ ৮১ (১৬৮)
আলজারি জোসেফ ৪/৬৫ (১৯.৫ ওভার)
২৩৫ (৯২.৩ ওভার)
তেজনারায়ণ চন্দরপল ১১৯ (২৯৩)
টড মার্ফি ৩/২৭ (২২ ওভার)
২২১/৪ঘো (৭০ ওভার)
ম্যাট রেনশ ১০১* (২১৮)
জেডেন সিলস ১/২৮ (৯ ওভার)
২৭৭/৮ (১০৬.৫ ওভার)
তেজনারায়ণ চন্দরপল ৫৬ (১৩৮)
মার্ক স্টেকেটি ৩/৫৬ (১৫ ওভার)
খেলা ড্র
মানুকা ওভাল, ক্যানবেরা
আম্পায়ার: ডনোভান কোখ (অস্ট্রেলিয়া) ও ফিলিপ গিলেস্পি (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচসেরা: তেজনারায়ণ চন্দরপল (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)
  • প্রধানমন্ত্রী একাদশ টসে জিতে ব্যাটিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।

টি২০আই সিরিজ[সম্পাদনা]

১ম টি২০আই[সম্পাদনা]

৫ অক্টোবর ২০২২
১৮:১০ (রাত)
স্কোরকার্ড
ওয়েস্ট ইন্ডিজ 
১৪৫/৯ (২০ ওভার)
 অস্ট্রেলিয়া
১৪৬/৭ (১৯.৫ ওভার)
কাইল মেয়ারস ৩৯ (৩৬)
জশ হ্যাজলউড ৩/৩৫ (৪ ওভার)
অ্যারন ফিঞ্চ ৫৮ (৫৩)
আলজারি জোসেফ ২/১৭ (৪ ওভার)
অস্ট্রেলিয়া ৩ উইকেটে জয়ী
কারারা স্টেডিয়াম, গোল্ড কোস্ট
আম্পায়ার: ডনোভান কোখ (অস্ট্রেলিয়া) ও স্যাম নোগায়স্কি (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচ সেরা খেলোয়াড়: অ্যারন ফিঞ্চ (অস্ট্রেলিয়া)
  • অস্ট্রেলিয়া টসে জিতে ফিল্ডিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।
  • ইয়্যানিক কারিয়া ও রেইমন রিফার (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)-এর টি২০আই অভিষেক হয়।

২য় টি২০আই[সম্পাদনা]

৭ অক্টোবর ২০২২
১৮:১০ (রাত)
স্কোরকার্ড
অস্ট্রেলিয়া 
১৭৮/৭ (২০ ওভার)
 ওয়েস্ট ইন্ডিজ
১৪৭/৮ (২০ ওভার)
জনসন চার্লস ২৯ (৩০)
মিচেল স্টার্ক ৪/২০ (৪ ওভার)
অস্ট্রেলিয়া ৩১ রানে জয়ী
ব্রিসবেন ক্রিকেট মাঠ, ব্রিসবেন
আম্পায়ার: ফিলিপ গিলেস্পি (অস্ট্রেলিয়া) ও স্যাম নোগায়স্কি (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচ সেরা খেলোয়াড়: ডেভিড ওয়ার্নার (অস্ট্রেলিয়া)
  • ওয়েস্ট ইন্ডিজ টসে জিতে ফিল্ডিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।

টেস্ট সিরিজ[সম্পাদনা]

১ম টেস্ট[সম্পাদনা]

৩০ নভেম্বর–৪ ডিসেম্বর ২০২২
স্কোরকার্ড
৫৯৮/৪ঘো (১৫২.৪ ওভার)
মার্নাস লাবাসকাখনি ২০৪ (৩৫০)
ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েট ২/৬৫ (১২.৪ ওভার)
২৮৩ (৯৮.২ ওভার)
ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েট ৬৪ (১৬৬)
প্যাট কামিনস ৩/৩৪ (২০.২ ওভার)
১৮২/২ঘো (৩৭ ওভার)
মার্নাস লাবাসকাখনি ১০৪* (১১০)
কেমার রোচ ১/৩০ (৭ ওভার)
৩৩৩ (১১০.৫ ওভার)
ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েট ১১০ (১৮৮)
নাথান লায়ন ৬/১২৮ (৪২.৫ ওভার)
অস্ট্রেলিয়া ১৬৪ রানে জয়ী
পার্থ স্টেডিয়াম, পার্থ
আম্পায়ার: রড টাকার (অস্ট্রেলিয়া) ও রিচার্ড ইলিংওয়ার্থ (ইংল্যান্ড)
ম্যাচসেরা: মার্নাস লাবাসকাখনি (অস্ট্রেলিয়া)
  • অস্ট্রেলিয়া টসে জিতে ব্যাটিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।
  • তেজনারায়ণ চন্দরপল (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)-এর টেস্ট অভিষেক হয়।
  • ন্‌ক্রুমা বনার (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)-এর বদলি হিসেবে খেলেন শামার ব্রুকস[১৮]
  • বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ পয়েন্ট: অস্ট্রেলিয়া ১২, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ০।

২য় টেস্ট[সম্পাদনা]

৮–১২ ডিসেম্বর ২০২২ (দিন/রাত)
স্কোরকার্ড
৫১১/৭ঘো (১৩৭ ওভার)
ট্র্যাভিস হেড ১৭৫ (২১৯)
ডেভন থমাস ২/৫৩ (১৪ ওভার)
২১৪ (৬৯.৩ ওভার)
তেজনারায়ণ চন্দরপল ৪৭ (১০২)
নাথান লায়ন ৩/৫৭ (২০ ওভার)
১৯৯/৬ঘো (৩১ ওভার)
উসমান খাওয়াজা ৪৫ (৫০)
আলজারি জোসেফ ৩/৩৩ (৭ ওভার)
৭৭ (৪০.৫ ওভার)
তেজনারায়ণ চন্দরপল ১৭ (২৮)
স্কট বোল্যান্ড ৩/১৬ (১০ ওভার)
অস্ট্রেলিয়া ৪১৯ রানে জয়ী
অ্যাডিলেড ওভাল, অ্যাডিলেড
আম্পায়ার: কুমার ধর্মসেনা (শ্রীলঙ্কা) ও রড টাকার (অস্ট্রেলিয়া)
ম্যাচসেরা: ট্র্যাভিস হেড (অস্ট্রেলিয়া)
  • অস্ট্রেলিয়া টসে জিতে ব্যাটিং-এর সিদ্ধান্ত নেয়।
  • ডেভন থমাস ও মারকিনো মিন্ডলি (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)-এর টেস্ট অভিষেক হয়।
  • বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ পয়েন্ট: অস্ট্রেলিয়া ১২, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ০।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Australia's cricket schedule is INSANE as epic journey is revealed"ফক্স স্পোর্টস (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১০ মে ২০২২ 
  2. "All roads lead to Australia! West Indies to tour down under for T20I & Test Series"ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৩০ মে ২০২২ 
  3. "Men's Future Tour Programme" (পিডিএফ)আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০ জুন ২০১৮ 
  4. "Australia v West Indies T20Is postponed, IPL to not clash with any international cricket"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৪ আগস্ট ২০২০ 
  5. "Australia's international fixtures for 2022-23 revealed"ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৩০ মে ২০২২ 
  6. "Warner, David and Starc shine as Australia secure convincing win"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৭ অক্টোবর ২০২২ 
  7. "Australia complete series sweep with a crushing 419-run win"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১১ ডিসেম্বর ২০২২ 
  8. "Head returns to Australia ODI squad, multi-format quicks included"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৮ নভেম্বর ২০২২ 
  9. "Big names return to Aussie squad for Windies T20Is"ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২ 
  10. "Tagenarine Chanderpaul earns maiden West Indies call-up for Test series in Australia"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৯ অক্টোবর ২০২২ 
  11. "West Indies name squad for ICC Men's T20 World Cup"ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২২ 
  12. "Injured Marcus Stoinis ruled out of West Indies T20I series"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৩ অক্টোবর ২০২২ 
  13. "Brooks to replace Hetmyer in the West Indies Squad for the upcoming ICC T20 World Cup in Australia"ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৩ অক্টোবর ২০২২ 
  14. "Australia look to shut out the noise as West Indies face 25 years of history against them"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৯ নভেম্বর ২০২২ 
  15. "Marquino Mindley called up to join West Indies Test squad in Australia"ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৩ ডিসেম্বর ২০২২ 
  16. "'Wild Thing' Lance Morris earns Australia Test call-up"ইএসপিএনক্রিকইনফো (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৫ ডিসেম্বর ২০২২ 
  17. "West Indies turn to journeyman as Australia lose Hazlewood for second Test"আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৮ ডিসেম্বর ২০২২ 
  18. @windiescricket (২ ডিসেম্বর ২০২২)। "REMINDER" (টুইট) – টুইটার-এর মাধ্যমে। 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]