পাকিস্তান

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(Pakistan থেকে পুনর্নির্দেশিত)
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

স্থানাঙ্ক: ৩০° উত্তর ৭১° পূর্ব / ৩০° উত্তর ৭১° পূর্ব / 30; 71

ইসলামী প্রজাতন্ত্রী পাকিস্তান
اسلامی جمہوریۂ پاکستان
ইসলামী জমহুরিয়ায় পাকিস্তান
পতাকা রাষ্ট্রীয় এমব্লেম
নীতিবাক্যঈমান, ইত্তিহাদ, নজম  ایمان، اتحاد، نظم(উর্দূ)
"বিশ্বাস, একতা, শৃঙ্খলা"
[১]
জাতীয় সঙ্গীত: কাওমী তারানা
قومی ترانہ
"জাতীয় সঙ্গীত"[২]
রাজধানীইসলামাবাদ
৩৩°৪০′ উত্তর ৭৩°১০′ পূর্ব / ৩৩.৬৬৭° উত্তর ৭৩.১৬৭° পূর্ব / 33.667; 73.167
বৃহত্তম শহর করাচি
সরকারি ভাষা উর্দু[৩][৪][৫][৬][৭], ইংরেজি
জাতীয় ভাষা উর্দু
সরকার অর্ধ-রাষ্ট্রপতি শাসিত প্রজাতন্ত্র
 •  রাষ্ট্রপতি আরিফ আলভি
 •  প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান
গঠন
 •  স্বাধীনতা যুক্তরাজ্য থেকে 
 •  ঘোষিত আগস্ট ১৪ ১৯৪৭২৭ রমজান ১৩৬৬ হিজ্রি 
 •  ইসলামী প্রজাতন্ত্র মার্চ ২৩ ১৯৫৬ 
 •  জল/পানি (%) 2.86
জনসংখ্যা
 •  ২০১৭ আদমশুমারি ২১২,৭৪২,৬৩১[৮] (5th)
 •  ঘনত্ব ২৪৪.৪/কিমি (৫৬ তম)
/বর্গ মাইল
মোট দেশজ উৎপাদন
(ক্রয়ক্ষমতা সমতা)
২০১৭ আনুমানিক
 •  মোট $১.০৬০ ট্রিলিয়ন[৯] (২৫ তম)
 •  মাথা পিছু $৫,৩৭৪[৯] (১৩৭ তম)
মোট দেশজ উৎপাদন (নামমাত্র) ২০১৭ আনুমানিক
 •  মোট $৩০৪.৪ বিলিয়ন[১০] (৪২ তম)
 •  মাথা পিছু $১,৬২৯[১১] (১৪৫ তম)
জিনি সহগ (২০১৩)30.7[১২]
মাধ্যম
মানব উন্নয়ন সূচক (২০১৭)বৃদ্ধি ০.৫৬২[১৩]
মধ্যম · ১৫০ তম
মুদ্রা রুপি (Rs.) (PKR)
সময় অঞ্চল পাকিস্তান মান সময় (ইউটিসি+৫)
 •  গ্রীষ্মকালীন (ডিএসটি) পর্যবেক্ষণ করা হয় না (ইউটিসি+৬)
কলিং কোড ৯২
ইন্টারনেট টিএলডি .pk
১. আজাদ কাশ্মীর এবং উত্তরাঞ্চলসমূহ ধরা হয়নি।

পাকিস্তান (উর্দু: پاکِستان‬‎‎‎), সরকারীভাবে ইসলামি প্রজাতন্ত্রী পাকিস্তান (উর্দু: اِسلامی جمہوریہ پاکِستان‬‎‎‎), দক্ষিণ এশিয়ার একটি রাষ্ট্র। ২১,২৭,৪২,৬৩১ এর অধিক জনসংখ্যা নিয়ে এটি জনসংখ্যার দিক থেকে বিশ্বের ৫ম বৃহত্তম রাষ্ট্র[৮] এবং আয়তনের দিক থেকে ৩৩তম বৃহত্তম রাষ্ট্র। পাকিস্তানের দক্ষিণে আরব সাগর এবং ওমান উপসাগরীয় উপকূলে ১০৪৬ কিলোমিটার (৬৫০ মাইল) উপকূল রয়েছে এবং এটি পূর্ব দিকে ভারতের দিকে, আফগানিস্তান থেকে পশ্চিমে, ইরান দক্ষিণ-পশ্চিমে এবং উত্তর-পূর্ব দিকে চীন সীমান্তে অবস্থিত। এটি উত্তর-পশ্চিমে আফগানিস্তানের ওয়াখান করিডোরের দ্বারা তাজিকিস্তান থেকে সংকীর্ণভাবে বিভক্ত এবং ওমানের সাথে সমুদ্রের সীমান্ত ভাগ করে।

নামকরণ[সম্পাদনা]

ফার্সি ও উর্দু ভাষায় 'পাকিস্তান' অর্থ- পবিত্র স্থান বা এলাকা। ফার্সি ও পশতু শব্দ 'পাক' অর্থ- পবিত্র।[১৪] আর শব্দাংশ ـستان (-স্তান) একটি তৎসম-ফার্সি শব্দ যার অর্থ স্থান বা এলাকা।[১৫] চৌধুরী রহমত আলী "নাউ অর নেভার" পুস্তকে এ নামটির প্রস্তাব দেন।[১৬] [১৭] আরবি ভাষায় এর অর্থ "মদিনা-এ-তৈয়্যাবা" বা পবিত্র স্থান, মদিনা শব্দের অর্থ এলাকা এবং তৈয়্যাবা অর্থ পবিত্র

ইতিহাস[সম্পাদনা]

প্রারম্ভিক এবং মধ্যযুগীয় সময়কাল[সম্পাদনা]

প্রাচীন সিন্ধু অঞ্চল যা মোটামুটি বর্তমান পাকিস্তানের দক্ষিণ-পশ্চিম অংশ ছাড়া বাকিটা নিয়ে গঠিত, প্রাচীন কালে নব্য প্রস্তর যুগীয় মেহেরগড় সহ অনেক উন্নত সভ্যতার উৎপত্তিস্থল ছিল।[১৮] ব্রোঞ্জ যুগে সিন্ধু সভ্যতায়[১৯][২০][২১][২২] (২৮০০- ১৮০০খ্রিষ্টপূর্বাব্দ) হরপ্পামহেঞ্জো-দাড়ো নামে দুটি উন্নত নগর ছিল। [২৩][২৪]
বৈদিক যুগে (১৫০০ - ৫০০খ্রিষ্টপূর্বাব্দ) ইন্দো আর্যদের মাধ্যমে এখানে হিন্দুদের গোড়াপত্তন হয়, যা পরবর্তীতে পুরো এলাকায় ছড়িয়ে পড়ে।[২৫][২৬] মুলতান শহর হিন্দুদের গুরুত্বপূর্ণ তীর্থযাত্রা কেন্দ্রে পরিণত হয়।

ঔপনিবেশিক আমল[সম্পাদনা]

ভারতীয় অঞ্চলে ঔপনিবেশিক আমলকে দুই ভাগে ভাগ করা হয় যথা: ১. ইংলিশ ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির শাসনামল, ২. ব্রিটিশ সরকারের শাসনামল। তবে পাকিস্তান প্রথম থেকেই ইংলিশ ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির শাসনাধীনে যায়নি। কারন তখনও এই অঞ্চলে স্বাধীনভাবে রাজারা শাসন করতো । তারপর ধীরে ধীরে পাকিস্তান অঞ্চল ব্রিটিশ অধিভুক্ত হয়।

স্বাধীনতা এবং পরাধীনতা[সম্পাদনা]

১৯৪৭ সালে ভারতীয় উপমহাদেশ যুক্তরাজ্য থেকে স্বাধীনতা লাভ করার পর ভারতীয় উপমহাদেশ বিভাজনের মাধ্যমে ভারতপাকিস্তান এ' দুটি দেশের জ‌ন্ম হয়। তারমধ্যে ছিল পশ্চিম পাকিস্তানপূর্ব পাকিস্তান(বর্তমান বাংলাদেশ) [২৭] [২৮]

তারপর পূূর্ব পাকিস্তান (বর্তমান- বাংলাদেশ) এর সাথে ১৯৭১ সালের ২৬শে মার্চ থেকে যুদ্ধ শুরু হয়ে টানা "নয় মাস" রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের পর ১৬ই ডিসেম্বর পাকিস্তান পরাজিত হয়। [২৯][৩০]

রাজনীতি[সম্পাদনা]

২০১৪ সালে বিবিসি ওয়ার্ল্ড সার্ভিস ও পিউ রিসার্চ সেন্টারের করা নিয়ন্ত্রিত মতগ্রহণ জরিপের ফলাফল।
পাকিস্তানের প্রতি বিভিন্ন দেশের জনসাধারণের দৃষ্টিভঙ্গি[৩১][৩২]
ইতিবাচক ও নেতিবাচকের পার্থক্য অনুসারে সাজানো
দেশ ইতিবাচক নেতিবাচক নিরপেক্ষ ইতি-নেতি
 মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র
৫%
৮৫%
১০ -৮০
 জার্মানি
৫%
৮০%
১৫ -৭৫
 কানাডা
১০%
৭৯%
১১ -৬৯
 ব্রাজিল
৭%
৭৫%
১৮ -৬৮
 ফ্রান্স
১০%
৭৭%
১৩ -৬৭
 ইসরায়েল
২%
৬৮%
৩০ -৬৬
 স্পেন
৫%
৭১%
২৪ -৬৬
 অস্ট্রেলিয়া
১৪%
৭৭%
-৬৩
 দক্ষিণ কোরিয়া
১২%
৬৬%
২২ -৫৮
 যুক্তরাজ্য
১৮%
৭১%
১১ -৫৩
 রাশিয়া
৬%
৫৩%
৪১ -৪৭
 চিলি
১৩%
৪৯%
৩৮ -৩৬
 জাপান
৬%
৪১%
৫৩ -৩৫
 পেরু
১২%
৪৭%
৪১ -৩৫
 ভারত
১৭%
৪৯%
৩৪ -৩২
 মেক্সিকো
১৪%
৪৪%
৪২ -৩০
 কেনিয়া
২৩%
৪৫%
৩২ -২২
 চীন
২১%
৪১%
৩৮ -২০
 তুরস্ক
২৫%
৪১%
৩৪ -১৬
 ঘানা
৩৪%
৪১%
২৫ -৭
 নাইজেরিয়া
৪০%
৪৬%
১৪ -৬
 বাংলাদেশ
৫০%
৫০%
অনুল্লিখিত 0
 ইন্দোনেশিয়া
৪০%
৩১%
২৯
 পাকিস্তান
৪৪%
২৯%
২৭ ১৫

পাকিস্তানের রাজনীতি বর্তমানে একটি অর্ধ-রাষ্ট্রপতিশাসিত যুক্তরাষ্ট্রীয় প্রজাতন্ত্র কাঠামোয় সম্পাদিত হয়, যদিও অতীতে বিভিন্ন সময়ে সংসদীয় ও রাষ্ট্রপতি শাসিত ব্যবস্থার প্রচলন ছিল। রাষ্ট্রপতি হলেন রাষ্ট্রের প্রধান। সরকারপ্রধান হলেন প্রধানমন্ত্রী। রাষ্ট্রের নির্বাহী ক্ষমতা সরকারের উপর ন্যস্ত। আইন প্রণয়নের ক্ষমতা প্রধানত আইনসভার উপর ন্যস্ত।

দেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী ছিলেন ভারতের অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের অর্থমন্ত্রী লিয়াকত আলি খান । এযাবৎ কোনো প্রধানমন্ত্রী তার কার্যকাল সম্পূর্ণ করতে পারেনি। দীর্ঘ মেয়াদি প্রধানমন্ত্রীরা হলেন বেনজীর ভুট্টো , নওয়াজ শরীফ ও ইউসুফ রেজা গিলানি।

২০১৩ সালের মে মাসের ১১ তারিখে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নির্বাচিত হন বর্তমান ক্ষমতাসীন নওয়াজ শরীফ[৩৩] একই বছরের জুলাইয়ের ৩১ তারিখ হতে পাকিস্তানের বর্তমান রাষ্ট্রপতি মামনুন হোসাইন[৩৪] পাকিস্তানের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী একসময়কার বিশ্বখ্যাত ক্রিকেটার ইমরান খান।

প্রশাসনিক অঞ্চলসমূহ[সম্পাদনা]

পাকিস্তানের মূল ভূখণ্ডটি কয়েকটি প্রশাসনিক অঞ্চলে বিভক্ত। যথা-

  1. পাঞ্জাব
  2. সিন্ধ্
  3. খাইবার পাখতুনখোয়া
  4. বালুচিস্তান
  5. ফেডারেল শাসিত উপজাতীয় এলাকা
  6. পাকিস্তান-শাসিত কাশ্মীর
  7. গিলগিত-বালতিস্তান
  8. ইসলামাবাদ রাজধানী অঞ্চল

ভূগোল[সম্পাদনা]

পাকিস্তানকে তিনটি প্রধান ভৌগোলিক অঞ্চলে ভাগ করা যায়: উত্তরের উচ্চভূমি, সিন্ধু নদের অববাহিকা (যেটিকে পাঞ্জাব ও সিন্ধু প্রদেশে উপবিভক্ত করা যায়) এবং বেলুচিস্তান মালভূমি।

অর্থনীতি[সম্পাদনা]

জনসংখ্যা[সম্পাদনা]

২০১৭ সালের আদমশুমারী অনুসারে জনসংখ্যা ঘনত্ব।[৩৫].
কলাশ গোত্র যারা পাকিস্তানের সাথে অন্য জাতিসত্তা বজায় রপখে চলেছে।

২০১৭ সালের আদমশুমারীর প্রদেশের তথ্য অনুসারে, বর্তমান জনসংখ্যা ২০.৭৮ কোটি যা গত ১৯ বছরে ৫৭% বৃদ্ধি পেয়েছে।[৩৬][৩৭][৩৮] যা পৃথিবীর জনসংখ্যায় ২.৬% অবদান রেখেছে।[৩৯]

ভাষাসমূহ[সম্পাদনা]

পাকিস্তানে প্রচলিত ভাষাসমূহ
ইন্দো-আর্য ভাষা ইরানীয় ভাষা দ্রাবিড় ভাষা
দার্দীয় ভাষা চীনা-তিব্বতী ভাষা বিচ্ছিন্ন ভাষা

পাকিস্তানের সরকারি ভাষা ইংরেজি এবং জাতীয় ভাষা উর্দু। এছাড়াও দেশটিতে পাঞ্জাবি, সিন্ধি, সারাইকি, পাশতু, বেলুচি, ব্রাহুই ইত্যাদি ভাষা প্রচলিত। অনেক ভাষাই ইন্দো-ইউরোপীয় ভাষাপরিবারের বিভিন্ন শাখার অন্তর্গত। উর্দু, পাঞ্জাবি ও সিন্ধি -আর্য ভাষাসমূহ, পশতু ও বেলুচি ইরানীয় ভাষাসমূহ, ব্রাহুই দ্রাবিড় ভাষাসমূহের অন্তর্গত। এছাড়া উত্তর ও উত্তর-পশ্চিমে বিভিন্ন দার্দীয় ভাষা যেমন খোওয়ার ও শিনা প্রচলিত।

জাতীয় পতাকা[সম্পাদনা]

FIAV 011000.svg অনুপাত: ২:৩

পাকিস্তানের জাতীয় পতাকার নকশা প্রণয়ন করেন সৈয়দ আমিরুদ্দিন কেদোয়াই। এই নকশাটি অল ইন্ডিয়া মুসলিম লীগের ১৯০৬ সালের পতাকার উপর ভিত্তি করে তৈরি করা হয়। পাকিস্তান স্বাধীনতা লাভ করার ৫ দিন আগে ১৯৪৭ সালের ১১ই আগস্ট তারিখে এই পতাকাটির নকশা গৃহীত হয়।

পতাকাটিকে পাকিস্তানে সাব্‌জ হিলালি পারচাম বলা হয়। উর্দু ভাষার এই বাক্যটির অর্থ হলো "নতুন চাঁদ বিশিষ্ট সবুজ পতাকা"। এছাড়াও এটাকে "পারচাম-ই-সিতারা আও হিলাল" অর্থাৎ "চাঁদ ও তারা খচিত পতাকা" বলা হয়ে থাকে।

তাৎপর্য[সম্পাদনা]

পতাকাটির খুঁটির বিপরীত দিকের গাঢ় সবুজ অংশটি ইসলাম ধর্মের প্রতীক। খুঁটির দিকে সাদা অংশ রয়েছে, যা পাকিস্তানে বসবাসরত সংখ্যালঘু অমুসলিমদের প্রতীক। পতাকার মধ্যস্থলে রয়েছে একটি সাদা নতুন চাঁদ, যা প্রগতির প্রতীক; এবং একটি পাঁচ কোনা তারকা, যা ইসলামের পাঁচটি স্তম্ভের প্রতীক।

আকার ও ব্যবহার[সম্পাদনা]

আকার[সম্পাদনা]

  • বিভিন্ন অনুষ্ঠানে ব্যবহারের জন্য. ২১' x ১৪', ১৮' x ১২', ১০' x ৬-২/৩' বা ৯' x ৬ ১/৪.
  • ভবনে ব্যবহারের জন্য. ৬' x ৪' or ৩' x ২'.
  • গাড়িতে ব্যবহারের জন্য ১২" x ৮".
  • টেবিলে ব্যবহারের জন্য ৬ ১/৪" x ৪ ১/৪".

যেসব অনুষ্ঠানে পতাকা উড্ডয়ন করা হয়[সম্পাদনা]

যেসব দিনে পতাকা অর্ধনমিত রাখা হয[সম্পাদনা]

সংস্কৃতি[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "The State Emblem"। Ministry of Information and Broadcasting, Government of Pakistan.। ১ জুলাই ২০০৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৮ ডিসেম্বর ২০১৩ 
  2. "National Symbols and Things of Pakistan"। ১৩ এপ্রিল ২০১৪ তারিখে মূল|আর্কাইভের-ইউআরএল= এর |ইউআরএল= প্রয়োজন (সাহায্য) থেকে আর্কাইভ করা। 
  3. "SC orders immediate implementation of Urdu as official language"The Express Tribune। ৭ সেপ্টেম্বর ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ ৮ সেপ্টেম্বর ২০১৫ 
  4. "Pakistan to replace English with Urdu as official language"The Express Tribune। ২৯ জুলাই ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ ৮ সেপ্টেম্বর ২০১৫ 
  5. "PM approves implementation of Urdu language in govt departments – Pakistan – Dunya News"dunyanews.tv 
  6. Irfan Haider (১০ জুলাই ২০১৫)। "PM, president to deliver speeches in Urdu on foreign trips, SC told"dawn.com 
  7. "Govt. submits plan to Supreme Court to promote Urdu as official language"The News Teller 
  8. "Pakistan Bureau of Statistics – 6th Population and Housing Census"www.pbscensus.gov.pk। ১৫ অক্টোবর ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৭ এপ্রিল ২০১৯ 
  9. "Pakistan"। International Monetary Fund। সংগ্রহের তারিখ ১৫ জানুয়ারি ২০১৭ 
  10. "Pakistan is now a $300-billion economy"The Express Tribune। ১৮ মে ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ১৮ মে ২০১৭ 
  11. http://www.finance.gov.pk/survey/chapters_17/Economic_Indicators.pdf
  12. "GINI index (World Bank estimate)"। World Bank। সংগ্রহের তারিখ ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ 
  13. "Human Development Indices and Indicators: 2018 Statistical update" (PDF)। United Nations Development Programme। ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮ 
  14. Raverty, Henry George। A Dictionary of Pashto 
  15. "Monier-Williams Sanskrit Dictionary"। ১৮৭২। সংগ্রহের তারিখ ২৮ এপ্রিল ২০১৫ 
  16. Raverty, Henry George। A Dictionary of Pashto 
  17. Choudhary Rahmat Ali (২৮ জানুয়ারি ১৯৩৩)। "Now or never: Are we to live or perish for ever?"। Columbia University। সংগ্রহের তারিখ ৪ ডিসেম্বর ২০০৭ 
  18. Parth R. Chauhan। "An Overview of the Siwalik Acheulian & Reconsidering Its Chronological Relationship with the Soanian – A Theoretical Perspective"Sheffield Graduate Journal of Archaeology। University of Sheffield। ৪ জানুয়ারি ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২২ ডিসেম্বর ২০১১ 
  19. Feuerstein, Georg; Subhash Kak; David Frawley (১৯৯৫)। In search of the cradle of civilization: new light on ancient India। Wheaton, IL: Quest Books। পৃষ্ঠা 147। আইএসবিএন 978-0-8356-0720-9 
  20. Yasmeen Niaz Mohiuddin, Pakistan: a Global Studies Handbook. ABC-CLIO publishers, 2006, আইএসবিএন ১-৮৫১০৯-৮০১-১
  21. "Archaeologists confirm Indian civilization is 2000 years older than previously believed"globalpost.com। ১৬ নভেম্বর ২০১২। 
  22. Jennings, Justin (২০১৬)। Killing Civilization: A Reassessment of Early Urbanism and Its Consequences। UNM Press। আইএসবিএন 978-0-8263-5661-1 – Google Books-এর মাধ্যমে। 
  23. Robert Arnett (১৫ জুলাই ২০০৬)। India Unveiled। Atman Press। পৃষ্ঠা 180–। আইএসবিএন 978-0-9652900-4-3। সংগ্রহের তারিখ ২৩ ডিসেম্বর ২০১১ 
  24. Meghan A. Porter। "Mohenjo-Daro"। Minnesota State University। ২২ ডিসেম্বর ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৫ জানুয়ারি ২০১০ 
  25. Marian Rengel (২০০৪)। Pakistan: a primary source cultural guide। New York, NY: The Rosen Publishing Group Inc। পৃষ্ঠা 58–59,100–102। আইএসবিএন 0-8239-4001-2। সংগ্রহের তারিখ ২৩ অক্টোবর ২০১১ 
  26. "Britannica Online – Rigveda"। Encyclopædia Britannica। সংগ্রহের তারিখ ১৬ ডিসেম্বর ২০১১ 
  27. ভারত উপমহাদেশীয় ইতিহাস 
  28. "Indian History" 
  29. বাংলাদেশের ইতিহাস 
  30. "Bangladesh Libaretion" 
  31. "2014 BBC World Service poll" (PDF) 
  32. "Chapter 4: How Asians View Each Other"Pew Research Center's Global Attitudes Project। সংগ্রহের তারিখ ২০১৬-০৪-০৪ 
  33. আমারদেশ অনলাইন। "তৃতীয়বারের মতো প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হলেন নওয়াজ শরীফ"। ১০ জুন ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১২ মে ২০১৩ 
  34. দৈনিক যুগান্তর। "পাকিস্তানের নতুন প্রেসিডেন্ট মামনুন হোসাইন"। সংগ্রহের তারিখ ৩১ জুলাই ২০১৩ 
  35. "Block Wise Provisional Summary Results of 6th Population & Housing Census-2017"। ১৫ অক্টোবর ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৭ এপ্রিল ২০১৯ 
  36. "132 million in 1998, Pakistan's population now reaches 207.7 million: census report"ARYNEWS (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৫ আগস্ট ২০১৭ 
  37. http://ww2.pbscensus.gov.pk/content/press-release-provisional-summary-results-6th-population-and-housing-census-2017-0[স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  38. "U.S. and World Population Clock"United States Census Bureau 
  39. World Meters staff works। "Pakistan Population"। World Meters। সংগ্রহের তারিখ ২ মার্চ ২০১৫ 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]