গ্রিক-ব্যাক্ট্রিয় রাজ্য

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সরাসরি যাও: পরিভ্রমণ, অনুসন্ধান
গ্রিক-ব্যাক্ট্রিয় রাজ্য
রাজতন্ত্র

খ্রিঃপূঃ ২৫৫–খ্রিঃপূঃ ১২৫
১৮০ খ্রিস্টপূর্বাব্দে গ্রিক-ব্যাক্ট্রিয় রাজ্যের বিস্তার
রাজধানী বাক্ত্রা
Alexandria on the Oxus
ভাষাসমূহ গ্রিক
ব্যাক্ট্রিয়
ধর্ম প্রাচীন গ্রিক ধর্ম
সরকার রাজতন্ত্র
রাষ্ট্রপতি
 -  খ্রিঃপূঃ ২৫৫-২৩৯ প্রথম দিওদোতোস সোতের
 -  খ্রিঃপূঃ ২৩৯-২৩০ দ্বিতীয় দিওদোতোস
 -  খ্রিঃপূঃ ২৩০-২০০ প্রথম ইউথুদেমোস
 -  খ্রিঃপূঃ ২০০-১৮০ প্রথম দেমেত্রিওস
 -  খ্রিঃপূঃ ১৮০ দ্বিতীয় ইউথুদেমোস
আগাথোক্লেস দিকাইওস
প্রথম আন্তিমাখোস থেওস
 -  খ্রিঃপূঃ ১৪৫-১৩০ প্রথম হেলিওক্লেস
ঐতিহাসিক যুগ প্রাচীন ইতিহাস
 -  সংস্থাপিত খ্রিঃপূঃ ২৫৫
 -  ভাঙ্গিয়া দেত্তয়া হয়েছে খ্রিঃপূঃ ১২৫
বর্তমানে অংশ  Afghanistan
সতর্কীকরণ: "common_name" জন্য উল্লিখিত মান নয়।|- style="font-size: 85%;" সতর্কীকরণ: "মহাদেশের" জন্য উল্লিখিত মান সম্মত নয়

গ্রিক-ব্যাক্ট্রিয় রাজ্য মধ্য এশিয়ার একটি প্রাচীন রাজ্য, যা ২৫৫ খ্রিস্টপূর্বাব্দ থেকে ১২৫ খ্রিস্টপূর্বাব্দ পর্য্যন্ত ব্যাক্ট্রিয়াসোগদিয়ানা পর্য্যন্ত বিস্তৃত ছিল। এই রাজ্যের শাসকদের একটি ধারা আনুমানিক ২০০ খ্রিস্টপূর্বাব্দী পূর্বদিকে পারোপামিসাদাই, আরাখোশিয়াপাঞ্জাব অঞ্চল অধিকার করে ইন্দো-গ্রিক রাজ্য প্রতিষ্ঠা করে।

প্রতিষ্ঠা ও দিওদোতোস বংশের শাসন[সম্পাদনা]

সেলেউকিদ সম্রাট দ্বিতীয় আন্তিওখোস থেওসের মৃত্যুর পর এই সাম্রাজ্যের অধীনস্থ ব্যাক্ট্রিয়া অঞ্চলের সত্রপ প্রথম দিওদোতোস সোতের আনুমানিক ২৫৫ খ্রিস্টপূর্বাব্দে[১] নিজেকে স্বাধীন রাজা ঘোষণা করেন।[পা ১] দ্বিতীয় আন্তিওখোস থেওস ও তাঁর পত্নী প্রথম লাওদিসের কন্যাকে প্রথম দিওদোতোস সোতের বিবাহ করেন। এই নতুন রাজ্য নগরকেন্দ্রিক এবং প্রাচ্যের অন্যতম ধনী রাজ্য হিসেবে গণ্য হত।[পা ২] এই নবগঠিত শক্তিশালী রাজ্যটি পূর্ব ও পশ্চিম উভয়দিকেই বিস্তার শুরু করে।[পা ৩]

পার্নাই জনজাতির প্রধান প্রথম আর্সাসিজ পার্থিয়ার স্বঘোষিত শাসক ও প্রাক্তন সেলেউকিদ সত্রপ আন্দ্রাগোরাস্কে হত্যা করে[৫] পার্থিয়া সাম্রাজ্য প্রতিষ্ঠা করেন। এর ফলে মূল গ্রিক সভ্যতা থেকে গ্রিক-ব্যাক্ট্রিয় রাজ্য বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। ২৩৯ খ্রিস্টপূর্বাব্দে সেলেউকিদ সম্রাট দ্বিতীয় সেলেউকোস কাল্লিনিকোস তাঁর সাম্রাজ্যের পূর্ব দিকে বিদ্রোহ দমন করতে গেলে, সম্ভবতঃ পার্থিয়া সাম্রাজ্যের বিরুদ্ধে প্রথম দিওদোতোস সোতেরের সঙ্গে তিনি মিত্রতা স্থাপন করেন।[৬]

২৩৯ খ্রিস্টপূর্বাব্দে পিতা প্রথম দিওদোতোস সোতেরের মৃত্যুর পর দ্বিতীয় দিওদোতোস সিংহাসন লাভ করেন। দ্বিতীয় সেলেউকোস কাল্লিনিকোসের পার্থিয়াব্যাক্ট্রিয়া আক্রমণ রুখতে তিনি পার্থিয়া সাম্রাজ্যের প্রতিষ্ঠাতা প্রথম আর্সাসিজের সঙ্গে মিত্রতা সূত্রে আবদ্ধ হন।[পা ৪] ২৩০ অথবা ২২৩ খ্রিস্টপূর্বাব্দে তাঁর শ্যালক তথা সোগদিয়ানা অঞ্চলের সত্রপ প্রথম ইউথুদেমোস তাঁকে হত্যা করে সিংহাসন অধিকার করেন।[৮]

ইউথুদেমোস বংশের শাসন[সম্পাদনা]

২০৮ খ্রিস্টপূর্বাব্দে সেলেউকিদ সম্রাট তৃতীয় আন্তিওখোস প্রথম ইউথুদেমোসকে আরিয়ুস নদীর তীরে যুদ্ধে পরাজিত করেন।[৯] ইউথুদেমোস এরপর বাক্ত্রার শহরে তিন বছর ধরে তৃতীয় আন্তিওখোসের সেনাবাহিনীর অবরোধের বিরুদ্ধে সফল ভাবে প্রতিরক্ষা করার পর আনুমানিক ২০৬ খ্রিস্টপূর্বাব্দে তৃতীয় আন্তিওখোস তাঁকে নতুন শাসক হিসেবে স্বীকৃতি প্রদান করে নিজ কন্যার সাথে তাঁর পুত্র প্রথম দেমেত্রিওসের বিবাহ দেন।[পা ৫] এই দীর্ঘ যুদ্ধের পর তাঁর রাজ্যে দ্রুত শান্তি ফিরে আসে। কুলিয়াব অঞ্চলে আবিষ্কৃত একটি শিলালিপিতে প্রথম ইউথুদেমোসপ্রথম দেমেত্রিওসের যুদ্ধজয়ের কথা বর্ণনা করা হয়েছে।[পা ৬]

মৌর্য্য সাম্রাজ্যের পতন ঘটলে এই সাম্রাজ্যের উত্তর-পশ্চিমের অধিকৃত পারোপামিসাদাইআরাখোশিয়া অঞ্চল প্রথম দেমেত্রিওস অধিকার করে ইন্দো-গ্রিক রাজ্যের পত্তন করেন। যুগ পুরাণ অনুসারে, ১৮০ খ্রিস্টপূর্বাব্দে শুঙ্গ সম্রাট পুষ্যমিত্র শুঙ্গের শাসনকালে প্রথম দেমেত্রিওসের নেতৃত্বে যবন সেনা মগধ আক্রমণ করে পাঞ্চাল অঞ্চল, সাকেতমথুরা নগরী ও অবশেষে পাটলীপুত্র নগরী অধিকার করে নেন।[১২]:২২-২৪ হাথিগুম্ফা শিলালিপি থেকে জানা যায় যে, কলিঙ্গ রাজ খারবেল তাঁর রাজত্বের অষ্টম বছরে রাজগৃহ আক্রমণ করলে যবন রাজ দিমিত (=প্রথম দেমেত্রিওস) অবরুদ্ধ সেনা পরিত্যাগ করে মথুরায় পশ্চাৎ অপসারণ করেন।[১৩] স্ত্রাবোন তাঁর জেওগ্রাফিকা গ্রন্থে প্রথম দেমেত্রিওসকে মহান আলেকজান্ডার অপেক্ষাও সফল সমরাধিনায়ক হিসেবে বর্ণনা করেছেন। [পা ৭]

প্রথম দেমেত্রিওসের পরে দ্বিতীয় ইউথুদেমোস, আগাথোক্লেস দিকাইওসপ্রথম আন্তিমাখোস থেওস এই রাজ্যের সিংহাসনে আরোহণ করেন, কিন্তু তাঁদের রাজত্বকাল সম্বন্ধে বিশেষ কিছু জানা যায় না।

ইউক্রাতিদেস বংশের শাসন ও রাজ্যের পতন[সম্পাদনা]

উইলিয়াম উডথর্প টার্নের মতে, প্রথম ইউক্রাতিদেস সেলেউকিদ সম্রাট প্রথম আন্তিমাখোস এপিফানেসের আত্মীয় ছিলেন।[১৭] যিনি আনুমানিক ১৭০ খ্রিস্টপূর্বাব্দে প্রথম আন্তিমাখোস থেওসকে পরাজিত করে সিংহাসনচ্যুত করেন। ব্যাক্ট্রিয়ার শাসনক্ষমতা লাভ করে প্রথম ইউক্রাতিদেস ইন্দো-গ্রিক রাজ্যের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চল অধিকার করেন, কিন্তু ইন্দো-গ্রিক শাসক প্রথম মেনান্দ্রোস সোতের তাঁকে রাজ্য থেকে হঠিয়ে দিতে সক্ষম হন। অপর দিকে প্রথম মিথ্রিদাতেস ব্যাক্ট্রিয়ার পশ্চিমাঞ্চল আক্রমণ করে ১৬৭ খ্রিস্টপূর্বাব্দে আরিয়ুস নদীর পশ্চিম তট পর্য্যন্ত বিস্তীর্ণ এলাকা অধিকার করে নেন।[পা ৮]

ভারত থেকে ফেরার সময় প্রথম ইউক্রাতিদেস তাঁর নিজের পুত্রের হাতে নিহত হন। পিতার প্রতি তাঁর ঘৃণা এতটাই বেশি ছিল, যে তাঁর পুত্র তাঁর মৃতদেহটিকে রথের সাথে বেঁধে টেনে নিয়ে যান এবং সৎকার না করেই ফেলে রাখার আদেশ দেন।[পা ৯] যদিও এই পুত্রের নাম পাওয়া যায় না, তবে মনে করা হয় তিনি দ্বিতীয় ইউক্রাতিদেস বা প্রথম হেলিওক্লেসের মধ্যে একজন ছিলেন। প্রথম ইউক্রাতিদেসের হত্যার পর রাজ্যের শাসনক্ষমতার অধিকার নিয়ে রাজপরিবারের সদস্যদের মধ্যে গৃহযুদ্ধ শুরু হয়, যার ফলে এই রাজ্য ধীরে ধীরে দুর্বল হয়ে পড়ে।[পা ১০] ১৩০ খ্রিস্টপূর্বাব্দে ইউয়েঝি জনজাতি ব্যাক্ট্রিয়া আক্রমণ করলে প্রথম হেলিওক্লেস পরাজিত হন এবং গ্রিক-ব্যাক্ট্রিয় রাজ্যের পতন ঘটে।

পাদটীকা[সম্পাদনা]

  1. Diodotus, the governor of the thousand cities of Bactria, defected and proclaimed himself king; all the other people of the Orient followed his example and seceded from the Macedonians. - (Justin, XLI,4 [২]
  2. opulentissimum illud mille urbium Bactrianum imperium - Justin, XLI,1 [৩]
  3. The Greeks who caused Bactria to revolt grew so powerful on account of the fertility of the country that they became masters, not only of Ariana, but also of India, as Apollodorus of Artemita says: and more tribes were subdued by them than by Alexander... Their cities were Bactra (also called Zariaspa, through which flows a river bearing the same name and emptying into the Oxus), and Darapsa, and several others. Among these was Eucratidia, which was named after its ruler. - Strabo, XI.XI.I [৪]
  4. Soon after, relieved by the death of Diodotus I, Arsaces made peace and concluded an alliance with his son, also by the name of Diodotus; some time later he fought against Seleucos who came to punish the rebels, but he prevailed: the Parthians celebrated this day as the one that marked the beginning of their freedom. - Justin, XLI,4[৭]
  5. And after several journeys of Teleas to and fro between the two, Euthydemus at last sent his son Demetrius to confirm the terms of the treaty. Antiochus received the young prince; and judging from his appearance, conversation, and the dignity of his manners that he was worthy of royal power, he first promised to give him one of his own daughters, and secondly conceded the royal title to his father.- Polybius 11.34[১০]
  6. Heliodotos dedicated this fragrant altar (...) so that the greatest of all kings Euthydemus, as well as his son, the glorious, victorious and remarkable Demetrius, be preserved of all pains, with the help of the Fortune with divine thoughts"[১১]
  7. The Greeks who caused Bactria to revolt grew so powerful on account of the fertility of the country that they became masters, not only of Ariana, but also of India, as Apollodorus of Artemita says: and more tribes were subdued by them than by Alexander-- by Menander in particular (at least if he actually crossed the Hypanis towards the east and advanced as far as the Imaüs), for some were subdued by him personally and others by Demetrius, the son of Euthydemus the king of the Bactrians; and they took possession, not only of Patalena, but also, on the rest of the coast, of what is called the kingdom of Saraostus and Sigerdis. In short, Apollodorus says that Bactriana is the ornament of Ariana as a whole; and, more than that, they extended their empire even as far as the Seres and the Phryni.- জেওগ্রাফিকা, স্ত্রাবোন[১৪][১৫][১৬]
  8. The satrapy Turiva and that of Aspionus were taken away from Eucratides by the Parthians. - Strabo XI.11.2[১৮]
  9. As Eucratides returned from India, he was killed on the way back by his son, whom he had associated to his rule, and who, without hiding his patricide, as if he didn't kill a father but an enemy, ran with his chariot over the blood of his father, and ordered the corpse to be left without a sepulture- Justin XLI,6 [১৯]
  10. The Bactrians, involved in various wars, lost not only their rule but also their freedom, as, exhausted by their wars against the Sogdians, the Arachotes, the Dranges, the Arians and the Indians, they were finally crushed, as if drawn of all their blood, by an enemy weaker than them, the Parthians. - Justin, XLI,6 [১৯]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. J. D. Lerner, The Impact of Seleucid Decline on the Eastern Iranian Plateau: the Foundations of Arsacid Parthia and Graeco-Bactria, (Stuttgart 1999)
  2. Justin XLI, paragraph 4
  3. Justin XLI, paragraph 1
  4. Strabo XI.XI.I
  5. Bickerman, Elias J. (১৯৮৩)। "The Seleucid Period"। in Yarshater, Ehsan। Cambridge History of Iran 3.1। London: Cambridge UP। পৃ: 3–20। 
  6. Justin XLI, paragraph 4, 9
  7. Justin XLI
  8. PolybiusThe Histories। Book XI chap. 34 v. 1। 
  9. Polybius 10.49, Battle of the Arius
  10. Polybius 11.34 Siege of Bactra
  11. Heliodotos inscription, in "Afghanistan, ancien carrefour entre l'Est et Ouest", p133. আইএসবিএন ২-৫০৩-৫১৬৮১-৫
  12. Lahiri, B. (1974). Indigenous States of Northern India (Circa 200 B.C. to 320 A.D.) , Calcutta: University of Calcutta
  13. রাখালদাস বন্দ্যোপাধ্যায়, বাঙ্গালার ইতিহাস, দে'জ পাবলিশিং, কলকাতা-৭৩, আইএসবিএন ৯৭৮-৮১-২৯৫-০৭৯১-৪, পৃষ্ঠাঃ ২৮
  14. Strabo (১৮৭৭)। "11.11.1"। in Meineke, A.। Geographica (Greek ভাষায়)। Leipzig: Teubner। 
  15. Strabo (১৯২৪)। "11.11.1"। in Jones, H. L.। Geographica 
  16. Strabo (১৯০৩)। "11.11.1"। in Jones, H. L.। Geographica  At the Perseus Project.
  17. Tarn, William Woodthorpe (১৯৬৬)। The Greeks in Bactria and India (3rd সংস্করণ)। Cambridge: Cambridge University Press। 
  18. Strabo 11.11.2
  19. Justin XLI,6

আরো পড়ুন[সম্পাদনা]

টেমপ্লেট:Hellenistic rulers