ভারতের ভাষা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

ভারতের ভাষা দুটি পরিবারের অন্তর্গত। একটি হল ইন্দো-ইউরোপীয় ভাষা পরিবারের অন্তর্গত ইন্দো-আর্য শাখা, যেটির ভাষাগুলিতে প্রায় ৭০% ভারতীয় কথা বলেন। অপরটি হল দ্রাবিড় ভাষা পরিবার, যাতে প্রায় ২২% ভারতীয় লোক কথা বলেন। ভারতে প্রচলিত অন্যান্য ভাষাগুলি প্রধানত অস্ট্রো-এশীয় ও তিব্বতী-বর্মী ভাষা পরিবারগুলির অন্তর্ভুক্ত। এছাড়া নিহালি ভাষা, বুরুশাস্কি ভাষা, আন্দামানি ভাষা, ইত্যাদির মত কিছু বিচ্ছিন্ন ভাষা আছে। চিত্র:দক্ষিণ এশিয়ার মানচিত্র, প্রতিটি প্রদেশের নাম সেই প্রদেশের প্রধান ভাষা/ভাষাসমূহে লেখা আছে।]] ভারতের মাতৃভাষার সংখ্যা কয়েক শত। এসআইএল ইন্টারন্যাশনালের হিসাব অনুসারে এদের সংখ্যা ৪১৫। এই ভাষাগুলির রয়েছে আরও বহু উপভাষা। ১৯৯১ সালে ভারতে অনুষ্ঠিত আদমশুমারিতে উপভাষাগুলিকে গণনায় ধরে ১৫৭৬টি মাতৃভাষার কথা উল্লেখ করা হয়েছে। ২০০১ সালের আদমশুমারি অনুসারে ২৯টি ভাষা আছে যাতে ১০ লক্ষ বা তার বেশি লোক কথা বলেন। আরও ১২২টি ভাষা আছে যাতে কমপক্ষে ১০ হাজার লোক কথা বলেন। এই ভাষাগুলির বাইরেও ভারতবর্ষের ইতিহাসে ফার্সি ও ইংরেজি আন্তর্জাতিক ভাষা হিসেবে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে।

ভারত সরকার সংস্কৃত ভাষা ও তামিল ভাষাকে ভারতের দুইটি ধ্রুপদী ভাষার মর্যাদা দিয়েছেন।

ভারতের ধ্রুপদী ভাষা[সম্পাদনা]

২০০৪ সালে ভারত সরকার ঘোষণা করে যে ভারতের কোন ভাষা যদি কিছু প্রয়োজনীয়তা পূরণ করে তবে সেটিকে একটি "ধ্রুপদী ভাষার" মর্যাদা দেওয়া যেতে পারে।[১] পরবর্তী কয়েক বছরে, বেশ কিছু ভাষাকে ধ্রুপদী মর্যাদা দেওয়া হয়। বাংলা[২] [৩]মারাঠি সহ অন্যান্য ভাষার জন্য এই মর্যাদার দাবী করা হয়েছে।[৪]

এ পর্যন্ত যেসব ভাষাকে ধ্রুপদী ভাষা হিসাবে ঘোষণা করা হয়েছে:

২০০৬ সালের এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে পর্যটন ও সংস্কৃতি মন্ত্রী অম্বিকা সোনি রাজ্যসভায় বলেন, "ধ্রুপদী ভাষা" হিসেবে শ্রেণীবিভাগের জন্য ভাষার যোগ্যতা নির্ধারণের ক্ষেত্রে নিম্নলিখিত মানদণ্ড নির্ধারণ করা হয়েছে। [১১] [১২] [১৩] -

  1. ১৫০০-২০০০ বছর ধরে এর প্রারম্ভিক গ্রন্থ/রেকর্ডকৃত ইতিহাসের উচ্চ প্রাচীনত্ব;
  2. প্রাচীন সাহিত্য/গ্রন্থের একটি দেহ, যা প্রজন্মের পর প্রজন্ম ধরে এর বক্তাদের নিকট একটি মূল্যবান ঐতিহ্য হিসেবে বিবেচনা করা হয়;
  3. মৌলিক সাহিত্য ঐতিহ্য এবং অন্য কোন বাক সম্প্রদায় থেকে এটি ধার নেওয়া নয়নি;
  4. ভাষাটির ধ্রুপদী ভাষারূপ এবং সাহিত্য এর আধুনিক রূপ থেকে আলাদা;
  5. ধ্রুপদী ভাষা এবং এর পরবর্তী রূপ বা এর প্রশাখাগুলোর মধ্যে একটি বিরতি থাকতে পারে।

উপকারিতা[সম্পাদনা]

ভারত সরকারের রেজোলিউশন নং ২-১৬/২০০৪-ইউএস(একাডেমী) (2-16/2004-US(Akademies)) অনুযায়ী, "ধ্রুপদী ভাষা" হিসেবে ঘোষিত একটি ভাষার সুবিধাগুলো হল:

  1. ধ্রুপদী ভাষাগুলিতে বিশিষ্ট পণ্ডিতদের জন্য দুটি প্রধান আন্তর্জাতিক পুরষ্কার প্রদান করা হয়।
  2. ধ্রুপদী ভাষায় অধ্যয়নের জন্য একটি সেন্টার অফ এক্সেলেন্স স্থাপন করা হয়।
  3. অন্ততপক্ষে কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে ধ্রুপদী ভাষার জন্য নির্দিষ্ট সংখ্যক পেশাদার চেয়ার তৈরি করার জন্য বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনকে অনুরোধ করা হবে, যেখানে অধিষ্ঠিত হবেন ধ্রুপদী ভাষার বিশিষ্ট পন্ডিতগণ।[১৪]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "India sets up classical languages"। BBC। ১৭ সেপ্টেম্বর ২০০৪। সংগ্রহের তারিখ ১ মে ২০০৭ 
  2. "Didi, Naveen face-off over classical language status"The New Indian Express। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০২-১২ 
  3. "Bangla O Bangla Bhasha Banchao Committee"www.facebook.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০২-১২ 
  4. Clara Lewis (১৬ এপ্রিল ২০১৮)। "Clamour grows for Marathi to be given classical language status"The Times of India 
  5. "Front Page : Tamil to be a classical language"। Chennai, India: The Hindu। ১৮ সেপ্টেম্বর ২০০৪। সংগ্রহের তারিখ ১ আগস্ট ২০১০ 
  6. "National : Sanskrit to be declared classical language"। Chennai, India: The Hindu। ২৮ অক্টোবর ২০০৫। সংগ্রহের তারিখ ১ আগস্ট ২০১০ 
  7. "Declaration of Telugu and Kannada as classical languages"Press Information Bureau। Ministry of Tourism and Culture, Government of India। সংগ্রহের তারিখ ৩১ অক্টোবর ২০০৮ 
  8. "'Classical' status for Malayalam"। Thiruvananthapuram, India: The Hindu। ২৪ মে ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ২৫ মে ২০১৩ 
  9. "Odia gets classical language status"The Hindu। ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ 
  10. "Milestone for state as Odia gets classical language status"The Times of India 
  11. Singh, Binay (৫ মে ২০১৩)। "Removal of Pali as UPSC subject draws criticism"The Times of India। সংগ্রহের তারিখ ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ 
  12. "Reviving classical languages – Latest News & Updates at Daily News & Analysis"Dnaindia.com। ১৩ আগস্ট ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ ২৮ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  13. "Marathi may become classical language"The Indian Express। ৪ জুলাই ২০১৩। 
  14. "Classical Status to Oriya Language" (সংবাদ বিজ্ঞপ্তি)। ১৪ আগস্ট ২০১৩।