গ্লেন থিওডোর সিবর্গ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
গ্লেন থিওডোর সিবর্গ
Glenn Seaborg - 1964.jpg
জন্ম(১৯১২-০৪-১৯)১৯ এপ্রিল ১৯১২
Ishpeming, মিশিগান, যুক্তরাষ্ট্র
মৃত্যুফেব্রুয়ারি ২৫, ১৯৯৯(1999-02-25) (বয়স ৮৬)
Lafayette, ক্যালিফোর্নিয়া, যুক্তরাষ্ট্র
জাতীয়তাযুক্তরাষ্ট্র
মাতৃশিক্ষায়তনইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়া, লস অ্যাঞ্জেলস
ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়া, বার্কলে
পরিচিতির কারণDiscovery of ten transuranium elements
পুরস্কাররসায়নে নোবেল পুরস্কার (১৯৫১)
Perkin Medal (1957)
Priestley Medal (1979)
Franklin Medal (1963)
বৈজ্ঞানিক কর্মজীবন
কর্মক্ষেত্রনিউক্লিয় রসায়ন
প্রতিষ্ঠানসমূহইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়া, বার্কলে
ম্যানহাটন প্রকল্প
Atomic Energy Commission
ডক্টরাল উপদেষ্টাGeorge Ernest Gibson
গিলবার্ট নিউটন লুইস
ডক্টরাল শিক্ষার্থীRalph Arthur James
Joseph William Kennedy
Kenneth Ross Mackenzie
Elizabeth Rauscher
Arthur Wall
স্বাক্ষর
Glenn T Seaborg signature.svg
মার্কিন রাষ্ট্রপতি জন এফ কেনেডি এবং পরমাণু শক্তি কমিশনের প্রধান, গ্লেন সিবর্গ

গ্লেন থিওডোর সিবর্গ (১৯শে এপ্রিল, ১৯১২ - ২৫শে ফেব্রুয়ারি, ১৯৯৯) একজন মার্কিন রসায়নবিজ্ঞানী। তিনি ১৯৫১ সালে রসায়নে নোবেল পুরস্কার লাভ করেন। তিনি দশটি মৌলের প্রধান অথবা অন্যতম আবিষ্কারক। তার নামে পর্যায় সারণির ১০৬তম মৌলের নাম করা হয়েছে সিবর্গিয়াম

প্রাথমিক জীবন এবং শিক্ষা[সম্পাদনা]

গ্লেন থিওডোর সিবর্গ ১৯১২ সালের ১ এপ্রিল মিশিগানের ইশপেমিংয়ে জন্মগ্রহণ করেছিলেন। তিনি হারম্যান থিওডোর (টেড) এবং সেলমা অলিভিয়া এরিকসন সিবর্গের পুত্র। তার এক বোন ছিল, জিনেট, যিনি ছিলেন সিবর্গের চেয়ে দুই বছরের ছোট। তার পরিবার বাড়িতে সুইডিশ ভাষায় কথা বলে। গ্লেন সিবর্গ যখন ছোট ছিলেন, তখন পরিবারটি ক্যালিফোর্নিয়ার লস এঞ্জেলেস কাউন্টিতে চলে আসেন এবং হোম গার্ডেন নামে একটি মহকুমায় বসতি স্থাপন করেন, যা পরে ক্যালিফোর্নিয়ার সিটি অফ সাউথ গেটে সংযুক্ত হয়।

সিবর্গ ১৯৩৩ সালে ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়া, লস অ্যাঞ্জেলেস থেকে রসায়নে স্নাতক উপাধি অর্জন করেন। তিনি ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়া, বার্কলি থেকে ১৯৩৭ সালে ডক্টরেট উপাধি অর্জন করেন।

সম্মাননা[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]