মঈন আলী

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
মঈন আলী
Moeen Ali
Moeen Ali Worcestershire Cricket.jpg
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামমঈন মুনির আলী
জন্ম (1987-06-18) ১৮ জুন ১৯৮৭ (বয়স ৩২)
বার্মিংহাম, ওয়েস্ট মিডল্যান্ডস, ইংল্যান্ড
ডাকনামএমও
উচ্চতা৬ ফুট ০ ইঞ্চি (১.৮৩ মিটার)
ব্যাটিংয়ের ধরনবা-হাতি ব্যাটসম্যান
বোলিংয়ের ধরনডান-হাতি অফ ব্রেক
ভূমিকাব্যাটসম্যান
সম্পর্ককাদের আলী (ভাই)
কবির আলী (চাচাত ভাই)
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
ওডিআই অভিষেক
(ক্যাপ ২৩২)
২৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৪ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ
শেষ ওডিআই৫ মার্চ ২০১৪ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ
ওডিআই শার্ট নং৫৭
টি২০আই অভিষেক
(ক্যাপ ৬৬)
১১ মার্চ ২০১৪ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ
শেষ টি২০আই১৩ মার্চ ২০১৪ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ
টি২০আই শার্ট নং৫৭
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
২০০৫–০৬ওয়ারউইকশায়ার
২০০৭–বর্তমানওরচেস্টারশায়ার (দল নং ৮)
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা ওয়ানডে টি২০আই এফসি এলএ
ম্যাচ সংখ্যা ১০৯ ১০৩
রানের সংখ্যা ১০৯ ৬,৫২২ ২,৯০৩
ব্যাটিং গড় ৩৬.৩৩ ৪.০০ ৩৭.৬৯ ৩০.২৩
১০০/৫০ ০/১ ০/০ ১২/৪০ ৭/১৩
সর্বোচ্চ রান ৫৫ ২৫০ ১৫৮
বল করেছে ৬০ ৯,১৪২ ২,২৩৫
উইকেট ১৩২ ৫৪
বোলিং গড় ১৩.৬৬ ৪১.০৩ ৩৯.৪৬
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট - - -
সেরা বোলিং ১/৫ ৬/২৯ ৩/২৮
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ৩/– ০/– ৬৯/– ৩০/–
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো, ১৯ মার্চ ২০১৪

মঈন মুনির আলী (জন্ম: ১৮ জুন ১৯৮৭) হলেন পাকিস্তানী বংশোদ্ভুত একজন ইংরেজ ক্রিকেটার। তিনি একজন বা-হাতি ব্যাটসম্যান এবং অফ স্পিন বোলার যিনি ২০০৬ মৌসুমের পরে ওরচেস্টারশায়ার থেকে খেলার আগে ওয়ারউইকশায়ারের হয়ে কাউন্টি ক্রিকেট খেলেছেন। ২০১৪ সালের হিসাব মোতাবেক, আলী ইংল্যান্ডের টুয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের একজন নিয়মিত খেলোয়াড়। তিনি ২০০৪ এবং ২০০৫ উভয় সালে ওয়ারউইকশায়ারের এনবিসি এর ডেনিস কম্পটন অ্যাওয়ার্ড জিতেছেন।

খেলোয়াড়ী জীবন[সম্পাদনা]

ওয়ারউইকশায়ার[সম্পাদনা]

আলী মাত্র ১৫ বছর বয়সে ওয়ারউইকশায়ারের সাথে চুক্তিবদ্ধ হন, যেখানে তিনি কাউন্টি সেকেন্ড এলেভেনের হয়ে অর্ধ-শতক করেন।[১]

ওরচেস্টারশায়ার[সম্পাদনা]

২০১১ মৌসুম[সম্পাদনা]

২০১২ মৌসুম[সম্পাদনা]

২০১৩ মৌসুম[সম্পাদনা]

২০১২ সালের মৌসুমের শেষে সাবেক ইংল্যান্ডের আন্তর্জাতিক বিক্রম সোলাঙ্কির অবসরের পর আলী নতুন করে ৫ বছরের জন্য চুক্তি স্বাক্ষর করেন।[২]

২০১৪[সম্পাদনা]

মঈনকে বাংলাদেশের ২০১৪ সালে অনুষ্ঠিত ২০১৪ আইসিসি বিশ্ব টুয়েন্টি২০ ক্রিকেটের জন্য ইংল্যান্ড স্কোয়াডের অন্তর্ভুক্ত করা হয়। ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে তার ওয়ানডে ক্রিকেটে অভিষেক অভিষেক হয়, তিনি উক্ত ম্যাচে আউট হওয়ার আগে ৪৪ রান করেন এবং তার প্রথম ওয়ানডে উইকেট লাভ করেন।[৩]

রেকর্ডস এবং পরিসংখ্যান[সম্পাদনা]

২০১৪ সালে মঈন আলী ইংল্যান্ডের হয়ে খেলার সময়কার ছবি

টেস্ট শতক[সম্পাদনা]

# রান ম্যাচ প্রতিপক্ষ মাঠ শহর দেশ বছর
১০৮*  শ্রীলঙ্কা ইংল্যান্ড হেডিংলি লিডস ইংল্যান্ড ২০১৪
১৫৫* ২৫  শ্রীলঙ্কা যুক্তরাজ্য ডারহাম, ইংল্যান্ড, যুক্তরাজ্য রিভারসাইড গ্রাউন্ড ২০১৬ বিজয়ী
১০৮ ৩০  পাকিস্তান যুক্তরাজ্য লন্ডন, ইংল্যান্ড, যুক্তরাজ্য দি ওভাল ২০১৬ পরাজিত

ওয়ানডে শতক[সম্পাদনা]

# রান ম্যাচ প্রতিপক্ষ মাঠ শহর দেশ বছর
১১৯  শ্রীলঙ্কা শ্রীলঙ্কা প্রেমাদাসা স্টেডিয়াম কলম্বো শ্রীলঙ্কা ২০১৪
১২৮ ১৮  স্কটল্যান্ড নিউজিল্যান্ড ক্রাইস্টচার্চ, নিউজিল্যান্ড হ্যাগলে ওভাল স্কটল্যান্ড ২০১৫

টেস্টে ৫ উইকেট লাভ[সম্পাদনা]

# পরিসংখ্যান ম্যাচ প্রতিপক্ষ মাঠ শহর দেশ বছর
৬/৬৭  ভারত ইংল্যান্ড রোজ বোল সাউদাম্পটন ইংল্যান্ড ২০১৪

আন্তর্জাতিক পুরস্কার[সম্পাদনা]

টেস্ট ক্রিকেট[সম্পাদনা]

ম্যান অব দ্য ম্যাচ পুরস্কার[সম্পাদনা]

  • এই টেবিলে সিটি, দ্বারা ক্যাচ বোঝানো হয়েছে
# সিরিজ মৌসুম ম্যাচের পারফরম্যান্স ফলাফল
1 ১ম টেস্ট – বসিল ডি'ওলিভিরা ট্রফি টেস্ট সিরিজ ২০১৫/১৬ ১ম ইনিংস – ০ (৪ বল); ২৫-৩-৬৯-৪
২য় ইনিংস - ১৬ (২৭ বল: ২x৪); ২৬-৯-৪৭-৩
 ইংল্যান্ড ২৪১ রানে জয়ী[৪]
৩য় টেস্ট – পাকিস্তানের ইংল্যান্ড সফর টেস্ট সিরিজ ২০১৬ ১ম ইনিংস – ৬৩ (১১৮ বল : ৭x৪); ১৭-২-৭৯-০
২য় ইনিংস - ৮৬* (৯৬ বল : ১০x৪, ২x৬); ১৭.৫-৪-৪৯-২
 ইংল্যান্ড ১৪১ রানে বিজয়ী[৫]

একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

ম্যান অব দ্য ম্যাচ পুরস্কার[সম্পাদনা]

ক্রমিক প্রতিপক্ষ মাঠ তারিখ ম্যাচের পারফরম্যান্স ফলাফল
স্কটল্যান্ড হেগলি ওভাল, ক্রাইস্টচার্চ ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০১৫ ১২৮ (১০৭ বল, ১২x৪, ৫x৬)  ইংল্যান্ড ১১৯ রানে বিজয়ী[৬]

টুয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

ম্যান অব দ্য ম্যাচ পুরস্কার[সম্পাদনা]

# সিরিজ তারিখ প্রতিপক্ষ ম্যাচ পারফরম্যান্স ফলাফল
অস্ট্রেলিয়ার ইংল্যান্ড সফর ৩১ আগস্ট ২০১৫ অস্ট্রেলিয়া ৭২* (৪৬ বল, ৬x৪, ৩x৬); ১-০-৩-১  ইংল্যান্ড ৫ রানে বিজয়ী[৭]
২০১৬ আইসিসি বিশ্ব টুয়েন্টি২০ ২৩ মার্চ ২০১৬ আফগানিস্তান ৪১* (৩৩ বল, ৪x৪, ১x৬); ২-০-১৭-১  ইংল্যান্ড ১৫ রানে বিজয়ী[৮]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Warwickshire Second XI v Nottinghamshire Second XI"CricketArchive। সংগ্রহের তারিখ ২০০৬-১২-১৬ 
  2. http://www.bbc.co.uk/sport/0/cricket/22407591
  3. "West Indies v England: Michael Lumb's ton fails to prevent loss"। BBC Sport। ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ১ মার্চ ২০১৪ 
  4. "England tour of South Africa, 2015/16 – Scorecard of 1st Test"ESPNcricinfo। সংগ্রহের তারিখ ৩০ ডিসেম্বর ২০১৫ 
  5. "Pakistan tour of England and Ireland, 2016 – Scorecard of 3rd Test"ESPNcricinfo। সংগ্রহের তারিখ ৮ আগস্ট ২০১৬ 
  6. "ICC Cricket World Cup, 2015 – Scorecard of 14th match"ESPNcricinfo। সংগ্রহের তারিখ ১৬ আগস্ট ২০১৫ 
  7. "Only T20I: England v Australia at Cardiff, Aug 31, 2015 - Cricket Scorecard - ESPN Cricinfo"Cricinfo 
  8. "World T20, 24th Match, Super 10 Group 1: Afghanistan v England at Delhi, Mar 23, 2016 - Cricket Scorecard - ESPN Cricinfo"Cricinfo 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]