ড্যারিল মিচেল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ড্যারিল মিচেল
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামড্যারিল যোসেফ মিচেল
জন্ম (1991-05-20) ২০ মে ১৯৯১ (বয়স ২৯)
হ্যামিল্টন, নিউজিল্যান্ড
ডাকনামমুস
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি মিডিয়াম
ভূমিকাঅল-রাউন্ডার
সম্পর্কজন মিচেল (পিতা)
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ২৭৬)
২৯ নভেম্বর ২০১৯ বনাম ইংল্যান্ড
শেষ টেস্ট১১ ডিসেম্বর ২০২০ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ
টি২০আই অভিষেক
(ক্যাপ ৮১)
৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ বনাম ভারত
শেষ টি২০আই৩০ নভেম্বর ২০২০ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
২০১১ - বর্তমাননর্দার্ন ডিস্ট্রিক্টস
২০২০ - বর্তমানক্যান্টারবারি
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট টি২০আই এফসি এলএ
ম্যাচ সংখ্যা ১২ ৭৫ ৮১
রানের সংখ্যা ৮২ ১০৩ ৩,৯০১ ২,৪৯৫
ব্যাটিং গড় ৪১.০০ ১২.৮৭ ৩৭.৫০ ৩৬.৬৯
১০০/৫০ ০/১ ০/০ ৯/২১ ৩/১৮
সর্বোচ্চ রান ৭৩ ৩০* ১৭০* ১২৬*
বল করেছে ১৫০ ৫৫ ৪,৪৮১ ১,৫৭৭
উইকেট ৮০ ৪৯
বোলিং গড় ৭৬.০০ ১৭.৮০ ৩০.০৮ ৩২.৭১
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ১/৭ ২/২৭ ৫/৪৪ ৩/৩৪
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ১/– ৮/– ৮৫/– ৩৮/–
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ১১ ডিসেম্বর, ২০২০

ড্যারিল যোসেফ মিচেল (ইংরেজি: Daryl Mitchell; জন্ম: ২০ মে, ১৯৯১) হ্যামিল্টন এলাকায় জন্মগ্রহণকারী নিউজিল্যান্ডীয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার।[১] নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য তিনি। ২০১০-এর দশকের শেষদিক থেকে নিউজিল্যান্ডের পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করছেন। নিউজিল্যান্ডের রাগবি ইউনিয়ন কোচ ও সাবেক খেলোয়াড় জন মিচেলের সন্তান তিনি।[২]

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর নিউজিল্যান্ডীয় ক্রিকেটে নর্দার্ন ডিস্ট্রিক্টস দলের প্রতিনিধিত্ব করেন ‘মুস’ ডাকনামে পরিচিত ড্যারিল মিচেল। দলে তিনি মূলতঃ অল-রাউন্ডার হিসেবে খেলছেন। ডানহাতে ব্যাটিংয়ের পাশাপাশি ডানহাতে মিডিয়াম বোলিংয়ে পারদর্শী তিনি।

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

২০১২ সাল থেকে ড্যারিল মিচেলের প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবন চলমান রয়েছে। ২০১১-১২ মৌসুমের শেষদিকে তার প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে অভিষেক হয়। পরের বছর ৫৪.৩৩ গড়ে রান তুলেন। ফলশ্রুতিতে, ভারত ও শ্রীলঙ্কা গমনার্থে নিউজিল্যান্ড এ দলের সদস্য করা হয়। সেখানে তিনি পরিবেশের সাথে তাল মিলাতে না পারলেও পরবর্তী ঘরোয়া ক্রিকেটে উপর্যুপরী শতরানের ইনিংস খেলেন। ক্যান্টারবারির বিপক্ষে অপরাজিত ১৭০ রান তুলেন। এর পরপরই ২০১৯ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজ খেলার জন্যে দল নির্বাচকমণ্ডলীর দৃষ্টি নিবদ্ধ হয়।

জুন, ২০১৮ সালে নর্দার্ন ডিস্ট্রিক্টসের পক্ষে ২০১৮-১৯ মৌসুমে খেলার জন্যে তাকে চুক্তিতে নিয়ে আসা হয়।[৩] জুন, ২০২০ সালে নর্দার্ন ডিস্ট্রিক্টস থেকে চলে যান ও ক্যান্টারবারি দলে যুক্ত হন।[৪] নভেম্বর, ২০২০ সালে প্লাঙ্কেট শীল্ডের চতুর্থ রাউন্ডে নিজস্ব প্রথম পাঁচ-উইকেট পান। ওতাগো’র বিপক্ষে ৫/৪৪ বোলিং পরিসংখ্যান গড়েন। ঐ খেলাটি ড্রয়ে পরিণত হয়েছিল।[৫]

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে দুইটিমাত্র টেস্ট ও বারোটি টি২০আইয়ে অংশগ্রহণ করেছেন ড্যারিল মিচেল। ২৯ নভেম্বর, ২০১৯ তারিখে হ্যামিল্টনে সফরকারী ইংল্যান্ড দলের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। ড্যারিল মিচেলের টেস্ট অভিষেক খেলায় তার পিতা জন মিচেল উপস্থিত ছিলেন। এরপর, ৩ ডিসেম্বর, ২০২০ তারিখে একই মাঠে সফরকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের বিপক্ষে সর্বশেষ টেস্টে অংশ নেন তিনি। এখনো তাকে কোন ওডিআইয়ে অংশগ্রহণ করার সুযোগ দেয়া হয়নি।

কলিন ডি গ্র্যান্ডহোমের স্থলাভিষিক্ত হন তিনি। প্রথম ইনিংসে ৭৩ রানের ইনিংস খেলেন। এরপর, বল হাতে নিয়ে নিয়ন্ত্রিত বোলিং করেন। মূলতঃ মাঝারিসারির ব্যাটসম্যান তিনি। পূর্ববর্তী মৌসুমগুলোর পর থেকে বোলিংয়ে সিম আনতে সক্ষম হন।

জানুয়ারি, ২০১৯ সালে নিজ দেশে সফরকারী ভারত দলের বিপক্ষে টি২০আই সিরিজ খেলার উদ্দেশ্যে ব্লেয়ার টিকনারসহ তাকে নিউজিল্যান্ড দলে রাখা হয়।[৬] ৬ জানুয়ারি, ২০১৯ তারিখে ওয়েলিংটনে সিরিজের প্রথম দিবা-রাত্রির টি২০আইয়ে ভারতের বিপক্ষে তার অভিষেক ঘটে।[৭] নভেম্বর, ২০১৯ সালে সফররত ইংল্যান্ড দলের বিপক্ষে খেলার জন্যে সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টে তাকে অন্তর্ভূক্ত করা হয়।[৮] আঘাতের কারণে ট্রেন্ট বোল্ট ও কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম দলের বাইরে থাকেন। ফলশ্রুতিতে, ২৯ নভেম্বর, ২০১৯ তারিখে হ্যামিল্টনে তার টেস্ট অভিষেক পর্ব সম্পন্ন হয়।[৯]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Daryl Mitchell"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ৩০ অক্টোবর ২০১৫ 
  2. "Daryl Mitchell prepares to step out of his dad's shadow"। ESPNcricinfo। ৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 
  3. "Central Districts drop Jesse Ryder from contracts list"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ১৫ জুন ২০১৮ 
  4. "Black Caps allrounder Daryl Mitchell shifts from Northern Districts to Canterbury"Stuff। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুন ২০২০ 
  5. "Marathon innings from Max Chu rescues draw for Otago Volts against Canterbury"Stuff। সংগ্রহের তারিখ ১৭ নভেম্বর ২০২০ 
  6. "Daryl Mitchell, Blair Tickner make NZ T20 squad"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ৩০ জানুয়ারি ২০১৯ 
  7. "1st T20I (N), India tour of New Zealand at Wellington, Feb 6 2019"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 
  8. "Boult, de Grandhomme ruled out of second Test with injuries"International Cricket Council। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৯ 
  9. "2nd Test, England tour of New Zealand at Hamilton, Nov 29 - Dec 3 2019"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৯ নভেম্বর ২০১৯ 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]