কাঁঠালিয়া উপজেলা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
কাঁঠালিয়া
উপজেলা
কাঁঠালিয়া
কাঁঠালিয়া বরিশাল বিভাগ-এ অবস্থিত
কাঁঠালিয়া
কাঁঠালিয়া
কাঁঠালিয়া বাংলাদেশ-এ অবস্থিত
কাঁঠালিয়া
কাঁঠালিয়া
বাংলাদেশে কাঁঠালিয়া উপজেলার অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২২°২৪′০″ উত্তর ৯০°৭′৩০″ পূর্ব / ২২.৪০০০০° উত্তর ৯০.১২৫০০° পূর্ব / 22.40000; 90.12500স্থানাঙ্ক: ২২°২৪′০″ উত্তর ৯০°৭′৩০″ পূর্ব / ২২.৪০০০০° উত্তর ৯০.১২৫০০° পূর্ব / 22.40000; 90.12500 উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
দেশ বাংলাদেশ
বিভাগবরিশাল বিভাগ
জেলাঝালকাঠি জেলা
আয়তন
 • মোট১৫২.০৮ কিমি (৫৮.৭২ বর্গমাইল)
জনসংখ্যা (২০০১)[১]
 • মোট১,২৪,২৭১
 • জনঘনত্ব৮২০/কিমি (২১০০/বর্গমাইল)
সাক্ষরতার হার
 • মোট৬৫.৩%
সময় অঞ্চলবিএসটি (ইউটিসি+৬)
ওয়েবসাইটপ্রাতিষ্ঠানিক ওয়েবসাইট Edit this at Wikidata

কাঁঠালিয়া বাংলাদেশের ঝালকাঠি জেলার অন্তর্গত একটি উপজেলা

অবস্থান ও আয়তন[সম্পাদনা]

কাঠালিয়ার উত্তরে পিরোজপুর জেলার ভাণ্ডারিয়া উপজেলা, দক্ষিণে বরগুনা জেলার বামনা উপজেলা ও পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলা, পূর্বে বিষখালী নদী এবং পশ্চিমে পিরোজপুর জেলার ভাণ্ডারিয়া উপজেলামঠবাড়িয়া উপজেলা

ইতিহাস[সম্পাদনা]

নামকরণ[সম্পাদনা]

মুক্তিযুদ্ধে কাঁঠালিয়া[সম্পাদনা]

ভৌগোলিক উপাত্ত[সম্পাদনা]

ভূপ্রকৃতি[সম্পাদনা]

নদ-নদী

কাঠালিয়া উপজেলার নদীগুলির মধ্যে উল্লেখযোগ্য হল - বিষখালী নদী এবং সুগন্ধা নদী।

সাংস্কৃতিক বৈশিষ্ঠ্য[সম্পাদনা]

ভাষা[সম্পাদনা]

কাঠালিয়া থানার মানুষ তাদের আঞ্চলিক ভাষায় কথা বলতে বেশি পছন্দ করে। তাদের মুখের ভাষা হল - এ মনো মুই কাম করছি বিশ টাহার, মোরে দিছ পনেরো টাকা কেন? মোরে পুরা টাহা দিবা না মোর লগে টেপাটেপি বাজাবা মনো।

উৎসব[সম্পাদনা]

খেলাধুলা[সম্পাদনা]

প্রশাসনিক এলাকা[সম্পাদনা]

এই উপজেলায় ৬টি ইউনিয়ন রয়েছে; এগুলো হচ্ছেঃ চেঁচরীরামপুর ইউনিয়ন, পাটিখালঘাটা ইউনিয়ন, আমুয়া ইউনিয়ন, কাঁঠালিয়া ইউনিয়ন, শৌলজালিয়া ইউনিয়ন এবং আওরাবুনিয়া ইউনিয়ন

নির্বাচনী এলাকা ও জনপ্রতিনিধি

জনসংখ্যার উপাত্ত[সম্পাদনা]

জনসংখ্যা ১,২৪,২৭১ জন; পুরূষ ৬০,৫১৫ জন ও মহিলা ৬৩,৭৫৬ জন।

ধর্ম

মুসলিম ৮৩.৬০% ও হিন্দু ১৬.৩৫%।

স্বাস্থ্য[সম্পাদনা]

শিক্ষা[সম্পাদনা]

শিক্ষার হার ৬৫.৩%।

কৃষি[সম্পাদনা]

এখানে কৃষি ফসলগুলির মধ্যে ধান উল্লেখযোগ্য। এবং পশুর মধ্যে মহিষ এবং গরু উল্লেখযোগ্য। এছাড়াও ফলের মধ্যে পেয়ারা,আমড়া,কলা উল্লেখযোগ্য।

অর্থনীতি[সম্পাদনা]

শিল্প-প্রতিষ্ঠান

যোগাযোগ ব্যবস্থা[সম্পাদনা]

সড়কপথ
রেলপথ
নৌপথ

কৃতী ব্যক্তিত্ব[সম্পাদনা]

দর্শনীয় স্থান ও স্থাপনা[সম্পাদনা]

বিবিধ[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. বাংলাদেশ জাতীয় তথ্য বাতায়ন (জুন ২০১৪)। "এক নজরে উপজেলা"। গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার। ২৪ ডিসেম্বর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১২ মার্চ ২০১৫ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]