ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে হচ্ছে বাংলােদশের প্রথম এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে প্রকল্প।[১] শাহজালাল আর্ন্তজাতিক বিমান বন্দর থেকে শুরু হয়ে কুড়িল, বনানী, মহাখালী, তেজগাঁও, মগবাজার, কমলাপুর, সায়েদাবাদ, যাত্রাবাড়ি হয়ে ঢাকা চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুতুবখালী এলাকায় গিয়ে শেষ হবে এই প্রকল্প। [২] রাজধানী ঢাকার যানজট নিরসনের জন্য এটিই হচ্ছে সরকার কর্তৃক গৃহীত সবচেয়ে বড় প্রকল্প।[৩] সংযোগ সড়ক সহএটির দৈর্ঘ্য হবে ৪৬.৭৩ কিলোমিটার [৪] এবং ব্যয় হবে ৳১২২ বিলিয়ন টাকা। [২]

চুক্তি[সম্পাদনা]

ইতাল-থাই ডেভোলপমেন্ট কর্পোরেশন লিমিটেড $১.০৬২ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের চুক্তি করেছে চায়না রেলওয়ে কন্সট্রাকসন কর্পোরেশন এর সঙ্গে এক্সপ্রেক্সওয়েটি নির্মানের জন্য।[১][২]

চলমান অগ্রগতি[সম্পাদনা]

প্রথম ধাপের এয়ারপোর্ট-বনানী রেলস্টেশন পর্যন্ত অগ্রগতি ৫৬ শতাংশ। দ্বিতীয় ধাপের বনানী রেলস্টেশন-মগবাজার ও তৃতীয় ধাপের মগবাজার-চিটাগাং রোডের কুতুবখালী পর্যন্ত প্রস্তুতিমূলক কাজ চলমান।[৫]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "এই মাস থেকেই শুরু হচ্ছে এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে নির্মানের কাজ: কাদের" 
  2. "Dhaka Elevated Expressway PPP Project"। ২১ জানুয়ারি ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  3. "Dhaka Expressway: Now Chinese firm on the scene" 
  4. "সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি"। ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৮ ডিসেম্বর ২০১৬ 
  5. "ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে দৃশ্যমান"দৈনিক যুগান্তর। ১৫ জানুয়ারি ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ১৮ মে ২০২১ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]