বারাক ওবামা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
বারাক ওবামা
Portrait of Barack Obama
৪৪তম যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রপতি
দায়িত্ব
অধিকৃত অফিস
২০ জানুয়ারি, ২০০৯
উপরাষ্ট্রপতি জো বাইডেন
পূর্বসূরী জর্জ ডব্লিউ বুশ
United States Senator
from ইলিনয়
কার্যালয়ে
৩ জানুয়ারি, ২০০৫ – ১৬ নভেম্বর, ২০০৮
পূর্বসূরী পিটার ফিটজেরাল্ড
উত্তরসূরী রোল্যান্ড বারিস
Member of the ইলিনয় Senate
from the ১৩তম district
কার্যালয়ে
৮ জানুয়ারি, ১৯৯৭ – ৪ নভেম্বর, ২০০৪
পূর্বসূরী অ্যালিস পালমার
উত্তরসূরী কাউমি রাউল
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্ম দ্বিতীয় বারাক হোসেন ওবামা[১]
(১৯৬১-০৮-০৪) আগস্ট ৪, ১৯৬১ (বয়স ৫২)[২]
হনলুলু, হাওয়াই[১]
জাতীয়তা আমেরিকান
রাজনৈতিক দল ডেমোক্র্যাটিক
দাম্পত্য সঙ্গী Michelle Obama (m. 1992)
সন্তান Malia Ann (b. 1998)
Natasha (Sasha) (b. 2001)
বাসস্থান The White House (official) Chicago, Illinois (private)
অধ্যয়নকৃত শিক্ষা
প্রতিষ্ঠান
Occidental College
Columbia University (B.A.)
Harvard Law School (J.D.)
জীবিকা Community organizer
Lawyer
Constitutional law Professor
Author
ধর্ম Christian[৩]
স্বাক্ষর Barack Obama
ওয়েবসাইট The White House
This article is part of a series about
Barack Obama

বারাক হুসেইন ওবামা, জুনিয়র (ইংরেজি: Barack Hussein Obama, Jr.; (জন্ম: ৪ঠা আগস্ট, ১৯৬১) মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ৪৪তম রাষ্ট্রপ্রধান। ২০১২ খ্রিস্টাব্দের নভেম্বরে তিনি দ্বিতীয়বারের মতো মার্কিন রাষ্ট্রপ্রধান নির্বাচিত হন। অক্টোবর ৯, ২০০৯ তারিখে ওবামাকে শান্তিতে নোবেল পুরস্কার প্রদান করা হয়।

বারাক ওবামা মার্কিন যুক্তরাস্ট্রের ডেমোক্র্যাটিক পার্টির সদস্য। এর আগে তিনি মার্কিন সিনেটে ইলিনয় অঙ্গরাজ্যের নির্বাচিত প্রতিনিধি অথবা সিনেটরের দায়িত্ব পালন করেন। ওবামা ২০০৮ সালের ৪ঠা নভেম্বর অনুষ্ঠিত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বিজয়ী হন এবং ২০০৯ সালের ২০শে জানুয়ারি শপথ গ্রহণ করেন।

প্রাথমিক জীবন[সম্পাদনা]

বারাক ওবামা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হাওয়াই অঙ্গরাজ্যের রাজধানী হনলুলুতে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর বাবা কেনিয়ার লুও জাতির বারাক হুসেইন ওবামা সিনিয়র ছিলেন একজন অর্থনীতিবিদ এবং তাঁর মা অ্যান ডানহ্যাম ছিলেন মার্কিন শ্বেতাঙ্গী (প্রধানত ইংরেজআইরিশ)। ওবামার বাবা হাওয়াই-মানোয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার সময়ে অ্যান ডানহ্যামের সাথে তাঁর পরিচয় ও বিয়ে হয়। ওবামার ২ বছর বয়সে তাঁর বাবা-মায়ের বিবাহ-বিচ্ছেদ ঘটে। ওবামার মা পরে ইন্দোনেশীয় লোলো সুতোরোকে (জাভানীয়: Lolo Soetoro) বিয়ে করেন। ওবামার শৈশবের অনেকটা সময় কেটেছে ইন্দোনেশিয়াতে। ১০ বছর বয়সে তিনি তাঁর হাওয়াইয়ে নানা-নানীর কাছে চলে আসেন। পরবর্তীতে ওবামা হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইনে ডিগ্রি লাভ করেন।

রাজনৈতিক জীবন[সম্পাদনা]

২০০৪ সালে ম্যাসাচুসেটস অঙ্গরাজ্যের বস্টন শহরে অনুষ্ঠিত ডেমোক্র্যাট দলের জাতীয় সম্মেলন তিনি মূল বক্তব্য উপস্থাপন করেন। এরপর, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রগতিশীল রাজনীতির ধারায় তাঁকে একজন উদীয়মান তারকা হিসেবে গণ্য করা হয়েছিল। সম্মেলনের পূর্ব পর্যন্ত ওবামা জাতীয় পরিসরে মোটামুটি অচেনাই ছিলেন। তাঁর অসামান্য বক্তৃতাটির ফলে তিনি মূহুর্তেই জাতির কাছে পরিচিতি লাভ করেন।

সেই বছরের নভেম্বর মাসে তিনি ইলিনয় অঙ্গরাজ্য থেকে মার্কিন সিনেট নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন এবং বিপুল ব্যবধানে রিপাবলিকান দলের প্রতিপক্ষ অ্যালেন কীয়েজকে পরাজিত করেন।

বারাক ওবামা ২০০৮ সালের মার্কিন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ডেমোক্র্যাটিক দলের প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন লাভ করেন। তিনি ঐ বছরের ৪ঠা নভেম্বরের জাতীয় নির্বাচনে জয়ী হন এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ৪৪তম রাষ্ট্রপতি হিসেবে নির্বাচিত হন। তিনি ২০১২ সালের ৭ই নভেম্বর ডেমোক্র্যাটিক প্রার্থী মিট রমনিকে হারিয়ে পুণরায় রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হন।

সম্মাননা[সম্পাদনা]

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক বিশ্ববিখ্যাত টাইম ম্যাগাজিন ২০১১ সালে ৩২ জনের নাম 'পার্সন অফ দ্য ইয়ার' হিসেবে মনোনীত করে। এ তালিকায় - স্টিভ জবস, আঙ্গেলা ম্যার্কেল, সিলভিও ব্যার্লুস্কোনি, লিওনেল মেসি প্রমূখ বিশ্বখ্যাত ব্যক্তিত্বদের পাশাপাশি তিনিও স্থান পেয়েছেন৷[৪] ২০১২ সালেও তিনি দ্বিতীয়বারের মতো টাইম ম্যাগাজিনের পার্সন অব দি ইয়ার মনোনীত হয়েছেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. ১.০ ১.১ "Certificate of Live Birth: Barack Hussein Obama II, August 4, 1961, 7:24 pm, Honolulu"Department of Health, State of Hawaii। The White House। April 27, 2011। সংগৃহীত April 27, 2011 
  2. "President Barack Obama"The White House। সংগৃহীত December 12, 2008 
  3. "American President: Barack Obama"। Charlottesville, VA: Miller Center of Public Affairs, University of Virginia। 2009। সংগৃহীত January 23, 2009। "Religion: Christian" 
  4. টাইম ম্যাগাজিনের পার্সন অব দি ইয়ার’এর জন্য মনোনীত মেসি, সংগ্রহকাল: ২৭ নভেম্বর, ২০১১ইং