হিজবুল্লাহ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
হিজবুল্লাহ
নেতা হাসান নাসরুল্লাহ
সংস্থাপিত ১৯৮৫ (দাপ্তরিকভাবে)
মতাদর্শ শিয়া ইসলামবাদ
সাম্রাজ্যবাদ বিরোধী[১][২][৩]
Anti-Zionism
ধর্ম শিয়া ইসলাম
লেবাননের সংসদ
১২ / ১২৮
লেবাননের মন্ত্রিসভা
২ / ৩০
ওয়েবসাইট
অফিসিয়াল সাইটের তালিকা দেখুন।
লেবাননের রাজনীতি

হিজবুল্লাহ (উচ্চারিত /ˌhɛzbəˈlɑː/;[৪][৫] আরবি: حزب اللهḤizbu 'llāh, আক্ষরিকভাবে "আল্লাহর দল" অথবা "ঈশ্বরের দল") — এছাড়া হিযবুল্লাহ হচ্ছে লেবাননের শিয়া অধ্যুষিত সংগ্রামী সংগঠন হিসেবেও বর্ণাস্তরিত হয়,[৬][৭] যার প্রধান হাসান নাসরুল্লাহ। এটি ইরান ও সিরিয়া থেকে আর্থিক ও রাজনৈতিক সমর্থন গ্রহণ করে, এবং তার সামরিকপক্ষকে আরব এবং মুসলিম বিশ্বের অনেক অংশ জুড়ে একটি প্রতিরোধের আন্দোলন হিসেবে গণ্য করা হয়। মার্কিন সরকার,[৮] নেদারল্যান্ডস,[৯][১০][১১][১২] বাহরাইন,[১৩][১৪]ফ্রান্স,[১৫] গ্রেট ব্রিটেন, অস্ট্রেলিয়া, কানাডা, ইসরায়েলের কাছে হিজবুল্লাহ পুরো বা আংশিকভাবে একটি সন্ত্রাসী সংগঠন।[১৬][১৭]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Elie Alagha, Joseph (2011)। Hizbullah's Documents: From the 1985 Open Letter to the 2009 Manifesto। Amsterdam University Press। পৃ: 15, 20। আইএসবিএন 9085550378 
  2. Shehata, Samer (2012)। Islamist Politics in the Middle East: Movements and Change। Routledge। পৃ: 176। আইএসবিএন 0415783615 
  3. Husseinia, Rola El (2010)। "Hezbollah and the Axis of Refusal: Hamas, Iran and Syria"Third World Quarterly 31 (5)। 
  4. "Hezbollah"The Collins English Dictionary। Glasgow: HarperCollins। 2013। সংগৃহীত May 7, 2013 
  5. "Hezbollah"Webster's New World College Dictionary। Cleveland: Wiley Publishing, Inc.। 2012। সংগৃহীত May 7, 2013 
  6. হিজবুল্লাহ’র শক্তিতে উদ্বিগ্ন জাতিসংঘ: নাসরুল্লাহ,বার্তা২৪ ডটনেট। ঢাকা থেকে প্রকাশের তারিখ: ১৫ জানুয়ারী ২০১২ খ্রিস্টাব্দ।
  7. সিরিয়া থেকে আধুনিক অস্ত্র গ্রহণে প্রস্তুত হিজবুল্লাহ: নসরুল্লাহ, দৈনিক ইত্তেফাক। ঢাকা থেকে প্রকাশের তারিখ: ১১ মে ২০১৩ খ্রিস্টাব্দ।
  8. James B. Steinberg। "Designation of Kata'ib Hizballah as a Foreign Terrorist Organization"। Bureau of Public Affairs, Office of the Spokesman। সংগৃহীত 12 March 2013 
  9. Norman, Lawrence and Gordon Fairclough. "Pressure Mounts for EU to Put Hezbollah on Terror List." Wall Street Journal. 7 September 2012. 3 November 2012.
  10. Hilary Leila Krieger and Benjamin Weinthal. "US official urges EU to name Hezbollah 'terrorists.' Jerusalem Post. 26 October 2012. 3 November 2012.
  11. "Dutch FM urges EU to place Hezbollah on terror group list." JTA. 6 September 2012. 3 November 2012.
  12. Muriel Asseraf, "Prospects for Adding Hezbollah to the EU Terrorist List", September 2007
  13. "Bahrain’s parliament declares Hezbollah a terrorist group"। Jerusalem Post। March 26, 2013। 
  14. "Bahrain arrests bombing suspects and blames Hezbollah"Reuters। November 6, 2012। 
  15. http://www.algemeiner.com/2013/04/04/jewish-leaders-applaud-hezbollah-terror-designation-by-france
  16. Goldirova, Renata (September 17, 2008)। "MEPs call on EU states to list Hezbollah as terrorist group"EUobserver। সংগৃহীত August 6, 2009 
  17. "Hezbollah, the Party of Terror. Why should be included in the EU terrorist list", Friends of Israel Initiative, October 5, 2012 

আরও পড়ুন[সম্পাদনা]

বই
নিবন্ধ

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

অফিসিয়াল সাইট[সম্পাদনা]

হিজবুল্লাহ সম্পর্কে জাতিসংঘের সিদ্ধান্ত[সম্পাদনা]

অন্যান্য সংযোগ[সম্পাদনা]

  • Hezbollah: Financing Terror through Criminal Enterprise, Testimony of Matthew Levitt, Hearing of the Committee on Homeland Security and Governmental Affairs, United States Senate
  • Hizbullah's two republics by Mohammed Ben Jelloun, Al-Ahram, February 15–21, 2007
  • Inside Hezbollah, short documentary and extensive information from Frontline/World on PBS.

টেমপ্লেট:Arab-Israeli Conflict টেমপ্লেট:Lebanese political parties টেমপ্লেট:Syrian civil war