দিপালী বরঠাকুর

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
দীপালী বরঠাকুর
150px
প্রাথমিক তথ্য
জন্ম (1941-01-30) ৩০ জানুয়ারি ১৯৪১ (বয়স ৭৮)
নীলমনি বাগান, সোণারি, শিবসাগর জিলা
পেশাকণ্ঠশিল্পী
কার্যকাল১৯৫৫-১৯৬৯

দীপালী বরঠাকুর (অসমীয়া: দীপালী বরঠাকুর, জন্ম:৩০ জানুয়ারী, ১৯৪১) ভারতের অসমের একজন কণ্ঠশিল্পী। ১৯৪১ সালের ৩০ জানুয়ারী তারিখে শিবসাগর জেলার সোণারির নীলমনি বাগানে তার জন্ম হয়েছিল[১]

সাংগীতিক জীবন[সম্পাদনা]

নবম বিষয়শ্রেণীর ছাত্রী থাকাকালীন তিনি বাণীবদ্ধ করেছিলেন বন্ধু সময় পালে আমার ফালে এবার আহি যাবা। এরপর তার কণ্ঠ জনপ্রিয়তা লাভ করে।[১]

দীপালী বরঠাকুরের কণ্ঠে কয়েকটি জনপ্রিয় গানঃ[২]

  • সোণর খারু নালাগে মোক বিয়ার বাবে আই
  • জোনধনে জোনালীতে
  • আবেগর বোকোচা ব’ব মই নোৱারো/যৌৱনে আমনি করে (কথাছবি "লাচিত বরফুকন")
  • কণমান বরশীরে চিপ
  • চেনাই মই যাওঁ দেই
  • অ' বন্ধু সময় পালে আমার ফালে এবার আহি যাবা

পুরস্কারসমূহ[সম্পাদনা]

দীপালী বরঠাকুর পদ্মশ্রী সম্মান (১৯৯৮)[৩][৪], অসম সরকার-এর শিল্পী পুরস্কার (২০১০)[৫], 'লিঅ' এক্সপো শিল্পী সম্মান (২০০৭) লাভ করেছেন। এছাড়াও প্রতি মাসে ৫,০০০ টাকা করে অসম সরকারের পক্ষ থেকে পেন্সন লাভ করেন ।[১]

উপসংহার[সম্পাদনা]

১৯৬৯ সালে তিনি শেষবারের জন্য পরিবেশন করেছিলেন 'লুইত নেযাবি ঐ।'[১] এই সময়ে দীপালী বরঠাকুর মোটর নিউরোন রোগএ আক্রান্ত হন এবং গান গাওয়ার ক্ষমতা হারানোর সাথে সাথে চলা-ফেরা করার জন্য হুইল চেয়ারের আশ্রয় নিতে বাধ্য হন। ১৯৭৬ সালে শিল্পী অসমের খ্যাতনামা চিত্রশিল্পী নীলপবন বরুয়ার সঙ্গে বিবাহ সূত্রে আবদ্ধ হন[৬]

তথ্য সংগ্রহ[সম্পাদনা]

  1. শুচিব্রত রয়, শিল্পী দীপালী বরঠাকুরের ৭১সংখ্যক জন্মদিন, আমার অসম, ৩১ জানুয়ারী, ২০১২ আহরণ করা তারিখঃ ০৩-০২-২০১২
  2. "Deepali-Borthakur" (ইংরেজি ভাষায়)। assamspider.com। সংগ্রহের তারিখ April 02, 2013  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |সংগ্রহের-তারিখ= (সাহায্য)
  3. "October 16th, 2010 - October 28th, 2010, The Strand Art Room, Neel Pawan Baruah" (ইংরেজি ভাষায়)। ArtSlant। সংগ্রহের তারিখ ২০১৩-০৪-০১ 
  4. "Rediff On The NeT: Nani Palkhivala, Lakshmi Sehgal conferred Padma Vibushan" (ইংরেজি ভাষায়)। Rediff.co.in। ১৯৯৮-০১-২৭। সংগ্রহের তারিখ ২০১৩-০৪-০১ 
  5. TI Trade (২০১০-০১-১৮)। "দ্য আসাম ট্রিবিউন অনলাইন" (ইংরেজি ভাষায়)। Assamtribune.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১৩-০৪-০১ 
  6. "A tribute to marriage of arts & minds - Book on celebrity couple"দ্য টেলিগ্রাফ (ইংরেজি ভাষায়)। ২০০৩।  অজানা প্যারামিটার |month= উপেক্ষা করা হয়েছে (সাহায্য)