ষাটনল ইউনিয়ন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ষাটনল
ইউনিয়ন
গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের সীল.svg ১নং ষাটনল ইউনিয়ন পরিষদ
ষাটনল বাংলাদেশ-এ অবস্থিত
ষাটনল
ষাটনল
বাংলাদেশে ষাটনল ইউনিয়নের অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২৩°২৮′ উত্তর ৯০°৩৬′ পূর্ব / ২৩.৪৬৭° উত্তর ৯০.৬০০° পূর্ব / 23.467; 90.600স্থানাঙ্ক: ২৩°২৮′ উত্তর ৯০°৩৬′ পূর্ব / ২৩.৪৬৭° উত্তর ৯০.৬০০° পূর্ব / 23.467; 90.600
দেশ বাংলাদেশ
বিভাগচট্টগ্রাম বিভাগ
জেলাচাঁদপুর জেলা
উপজেলামতলব উত্তর উপজেলা উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
সময় অঞ্চলবিএসটি (ইউটিসি+৬)
পোস্ট কোড৩৬৪০ উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
মানচিত্র

ষাটনল বাংলাদেশের চাঁদপুর জেলার অন্তর্গত মতলব উত্তর উপজেলার একটি ইউনিয়ন

আয়তন[সম্পাদনা]

জনসংখ্যা[সম্পাদনা]

অবস্থান ও সীমানা[সম্পাদনা]

মতলব উত্তর উপজেলার উত্তর-পশ্চিমাংশে ষাটনল ইউনিয়নের অবস্থান। এ ইউনিয়নের পূর্বে সাদুল্লাপুর ইউনিয়নছেংগারচর পৌরসভা, দক্ষিণে ছেংগারচর পৌরসভাকলাকান্দা ইউনিয়ন, পশ্চিমে মেঘনা নদীমুন্সিগঞ্জ জেলার মুন্সিগঞ্জ সদর উপজেলার আধারা ইউনিয়ন এবং উত্তরে মেঘনা নদীমুন্সিগঞ্জ জেলার গজারিয়া উপজেলার ইমামপুর ইউনিয়ন অবস্থিত।

প্রশাসনিক কাঠামো[সম্পাদনা]

ষাটনল ইউনিয়ন মতলব উত্তর উপজেলার আওতাধীন ১নং ইউনিয়ন পরিষদ। এ ইউনিয়নের প্রশাসনিক কার্যক্রম মতলব উত্তর থানার আওতাধীন। এটি জাতীয় সংসদের ২৬১নং নির্বাচনী এলাকা চাঁদপুর-২ এর অংশ। এ ইউনিয়নের গ্রামগুলো হল:[১]

  • বড় ষাটনল
  • সটাকি
  • সুগন্ধী
  • ষাটনল মালো পাড়া
  • চর চার আনি
  • আসন আলী প্রধানিয়া কান্দি
  • কন্দু সরকার কান্দি
  • মেহের উল্লা প্রধানিয়া কান্দি
  • পশ্চিম লালপুর
  • পূর্ব লালপুর
  • ইমামপুর
  • মধ্য কালিপুর
  • কালিপুর
  • বাড়ীভাঙ্গা

শিক্ষা ব্যবস্থা[সম্পাদনা]

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান[সম্পাদনা]

যোগাযোগ ব্যবস্থা[সম্পাদনা]

খাল ও নদী[সম্পাদনা]

ষাটনল ইউনিয়নের উত্তর ও পশ্চিম প্রান্ত দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে মেঘনা নদী

হাট-বাজার[সম্পাদনা]

ষাটনল ইউনিয়নের প্রধান প্রধান হাট-বাজারগুলো হল কালিপুর বাজার, ষাটনল (বাবুর) বাজার, সটাকী বাজার, কনু মার্কেট এবং আবু মার্কেট।

দর্শনীয় স্থান[সম্পাদনা]

  • ষাটনল পর্যটন কেন্দ্র - ষাটনল পর্যটন কেন্দ্র। অত্যন্ত মনরোম পরিবেশে অবস্থিত। প্রতিদিন হাজার হাজার পর্যটক এই পর্যটন কেন্দ্রটি ভ্রমণ করেন। ২০০০ সালে সরকারি ভাবে এটিকে পর্যটন কেন্দ্র হিসাবে ঘোষণা করা হয়।[২]

কৃতী ব্যক্তিত্ব[সম্পাদনা]

  • মেজর জেনারেল (অব) সামছুল হক, সাবেক বাণিজ্য মন্ত্রী।
  • মোজাম্মেল হক বেনু সরকার, শিল্পপতি।
  • নুরুল ইসলাম, সাবেক রাষ্টদুত, মালয়েশিয়া।

জনপ্রতিনিধি[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "একনজরে ষাটনল ইউনিয়ন"www.satnalup.chandpur.gov.bd (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০৪-২০ 
  2. "ষাটনল পর্যটন কেন্দ্র"www.matlabnorth.chandpur.gov.bd (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০৪-২০ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]