বড় কাটরা

স্থানাঙ্ক: ২৩°৪২′৫৩″ উত্তর ৯০°২৩′৪৩″ পূর্ব / ২৩.৭১৪৬১৬° উত্তর ৯০.৩৯৫২৪৯° পূর্ব / 23.714616; 90.395249
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
১৮৭০ সালে তোলা বড় কাটরার ছবি
২০০৬ সালে তোলা বড় কাটরার ধ্বংসাবশেষের ছবি

বড় কাটরা ঢাকায় চকবাজারের দক্ষিণে অবস্থিত মুঘল আমলের একটি সরাইখানা[১][২] সম্রাট শাহজাহানের পুত্র শাহ সুজার নির্দেশে ১৬৪৪ থেকে ১৬৪৬ খ্রিস্টাব্দে দিওয়ান (প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা) মীর আবুল কাসিম দ্বারা বুড়িগঙ্গা নদীর তীরে এই ইমারতটি নির্মাণ করা হয়[৩][৪]। তিনি মীর-ই-ইমারত নামে পরিচিত ছিলেন। প্রথমে এতে শাহ সুজার বসবাস করার কথা থাকলেও পরে এটি মুসাফিরখানা হিসাবে ব্যবহৃত হয়। বর্তমানে এটি জামিয়া হোসাইনিয়া আশরাফুল উলুম, বড় কাটরা মাদ্রাসার তত্ত্বাবধানে রয়েছে।[৫]

এক সময় স্থাপত্য সৌন্দর্যের কারণে বড় কাটরার সুনাম থাকলেও বর্তমানে এর ফটকটি ভগ্নাবশেষ হিসাবে দাঁড়িয়ে আছে। এক সময় বড় কাটরার তোরণে ফার্সি ভাষায় শাদুদ্দিন মুহম্মদ সিরাজী লিখিত একটি পাথরের ফলক লাগানো ছিল। যেখানে এই মুসাফির খানার নির্মাতা ও এর রক্ষনাবেক্ষনের ব্যয় নির্বাহের উপায় সম্পর্কে জানা যায়। ফলকে লেখা ছিল:[৩]

স্থাপত্য[সম্পাদনা]

বিল্ডিংটি মধ্য এশীয় সরাইখানার ঐতিহ্যবাহী প্যাটার্ন অনুসরণ করে এবং মোগল স্থাপত্য অনুযায়ী শোভিত। মূলত এটি একটি চতুষ্কোণ অঙ্গন ঘেরা স্থাপত্য।[৬]

দক্ষিণ শাখাটি ৬৭.৯৭ মিটার প্রসারিত[৭] এবং বুড়িগঙ্গা নদীর তীরে অবস্থিত। উত্তর বাহুও একই মাপের ছিল বলে ধারণা করা হয়। পূর্ব-পশ্চিম বাহুর দৈর্ঘ্য এখন নিরূপণ করা দুঃসাধ্য হলেও আদিতে ৭০.১০ মিটার করে ছিল বলে জানা যায়। তিনতলা বিশিষ্ট এ সদর তোরণ ছিল অতি মনোমুগ্ধকর এবং এটি দক্ষিণে নদীর দিকে প্রায় ৭.৬১ মিটার এবং পূর্ব-পশ্চিমে প্রায় ১২.১৯ মিটার প্রসারিত ছিল।[৮] এ প্রবেশপথের দুপাশে ছিল দুটি প্রহরীকক্ষ। প্রহরীকক্ষ দুটির আয়তন ছিল পূর্ব-পশ্চিমে লম্বা ৫.৫১ × ২.৯২ মিটার। এ প্রবেশপথের পরে ছিল পরপর তিনটি অপেক্ষাকৃত ক্ষুদ্র আয়তনের প্রবেশপথ। পূর্ব-পশ্চিমে লম্বা প্রবেশপথের আয়তন ছিল যথাক্রমে ২.৭৪ × ০.৯১ মি. , ৩.৩৫ × ১.৮২ মি, এবং ২.৭৪ × ১.৮২ মি.।[২]

চিত্রশালা[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Bara Katra | Dhaka, Bangladesh Attractions"www.lonelyplanet.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-১১-২৩ 
  2. "বড় কাটরা, ঢাকা"বাংলাপিডিয়া। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-১১-২২ 
  3. শামসুর রাহমান, "স্মৃতির শহর", ফেব্রুয়ারি ২০০০ জাতীয় গ্রন্থ প্রকাশন, পৃষ্ঠা:৫৩, আইএসবিএন ৯৮৪–৫৬০০৯৩ আইএসবিএন বৈধ নয়
  4. The Islamic heritage of Bengal। Protection of the Cultural Heritage: Research Papers। খন্ড ১। Michell, George., Unesco.। Paris: Unesco। ১৯৮৪। পৃষ্ঠা ৫৫। আইএসবিএন 92-3-102174-5ওসিএলসি 11631329 
  5. "পুরাকীর্তির সংক্ষিপ্ত বর্ণনা"তথ্য বাতায়ন 
  6. Ahmed, Nazimuddin (১৯৮০)। Islamic Heritage of Bangladesh। Dacca: Ministry of Information and Broadcasting, Government of the People's Republic of Bangladesh। পৃষ্ঠা 50–51। ওসিএলসি 8476199 
  7. ইসলাম, সিরাজুল (সম্পাদক)। "বড় কাটরা, ঢাকা"bn.banglapedia.org। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-১১-২৩ 
  8. Wright, Colin। "Bara Katra, south view, [Dhaka]"www.bl.uk। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-১১-২৩ 


বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]