পত্তন ইউনিয়ন

স্থানাঙ্ক: ২৩°৫৭.৫′ উত্তর ৯১°১১′ পূর্ব / ২৩.৯৫৮৩° উত্তর ৯১.১৮৩° পূর্ব / 23.9583; 91.183
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পত্তন
ইউনিয়ন
গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের সীল.svg ৬নং পত্তন ইউনিয়ন পরিষদ
পত্তন চট্টগ্রাম বিভাগ-এ অবস্থিত
পত্তন
পত্তন
পত্তন বাংলাদেশ-এ অবস্থিত
পত্তন
পত্তন
বাংলাদেশে পত্তন ইউনিয়নের অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২৩°৫৭.৫′ উত্তর ৯১°১১′ পূর্ব / ২৩.৯৫৮৩° উত্তর ৯১.১৮৩° পূর্ব / 23.9583; 91.183
দেশবাংলাদেশ
বিভাগচট্টগ্রাম বিভাগ
জেলাব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা
উপজেলাবিজয়নগর উপজেলা উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
সময় অঞ্চলবিএসটি (ইউটিসি+৬)
পোস্ট কোড৩৪০০ উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
মানচিত্র

পত্তন বাংলাদেশের ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার অন্তর্গত বিজয়নগর উপজেলার একটি ইউনিয়ন

আয়তন[সম্পাদনা]

পত্তন ইউনিয়নের আয়তন ৮,৯১৮ একর (৩৬.০৯ বর্গ কিলোমিটার)।[১]

জনসংখ্যার উপাত্ত[সম্পাদনা]

২০১১ সালের আদমশুমারি অনুযায়ী পত্তন ইউনিয়নের মোট জনসংখ্যা ২৭,৮৩৩ জন। এর মধ্যে পুরুষ ১৪,০১০ জন এবং মহিলা ১৩,৮২৩ জন। মোট পরিবার ৫,০৩৭টি।[১] জনসংখ্যার ঘনত্ব প্রতি বর্গ কিলোমিটারে প্রায় ৭৭১ জন।[২]

ইতিহাস[সম্পাদনা]

অবস্থান ও সীমানা[সম্পাদনা]

বিজয়নগর উপজেলার সর্ব-পশ্চিমে পত্তন ইউনিয়নের অবস্থান। এ ইউনিয়নের উত্তর-পশ্চিমে চর ইসলামপুর ইউনিয়ন, উত্তর-পূর্বে চম্পকনগর ইউনিয়ন, দক্ষিণে সিংগারবিল ইউনিয়ন, দক্ষিণ-পশ্চিমেব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার মাছিহাতা ইউনিয়ন,পূর্বে বিষ্ণুপুর ইউনিয়ন, এবং পশ্চিমে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলা অবস্থিত।

প্রশাসনিক কাঠামো[সম্পাদনা]

পত্তন ইউনিয়ন বিজয়নগর উপজেলার আওতাধীন ৬নং ইউনিয়ন পরিষদ। এ ইউনিয়নের প্রশাসনিক কার্যক্রম বিজয়নগর থানার আওতাধীন। এটি জাতীয় সংসদের ২৪৫নং নির্বাচনী এলাকা ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ এর অংশ।

শিক্ষা ব্যবস্থা[সম্পাদনা]

২০১১ সালের আদমশুমারি অনুযায়ী পত্তন ইউনিয়নের সাক্ষরতার হার ৩৭.৮%।[১]

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান[সম্পাদনা]

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়-১৩টি,উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়-২টি,

বেসরকারি বিদ্যালয়-৫টি,ফাজিল মাদ্রাসা-১টি,

যোগাযোগ ব্যবস্থা[সম্পাদনা]

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার সাথে বিজয়নগর উপজেলার একমাত্র সংযোগ সড়কটি "শেখ হাসিনা সড়ক" এই ইউনিয়নের মধ্যদিয়েই নির্মাণাধীন আবস্থায় আছে।নৌপথেও সদরের সাথে যোগাযোগ ব্যবস্থা রয়েছে।

খাল ও নদী[সম্পাদনা]

সালদাহ নদী ইউনিয়নের পূর্ব দিক হতে সিমনা সেতুর নীচ দিয়ে পশ্চিম দিকে প্রবাহিত হয়েছে। অলিয়াজুরী বিল সালদাহ বিলের সাথে মিসেছে, সালদাহ বিল তিতাস নদীতে সংযোগ হয়েছে। বালিয়াজুরী বিল, কাজলিয় বিল, দোয়াস বিল, গছাখালি বিল, আনজুড়া বিল, জারদীরা বিল, বোয়লিয়া বিল, আটকরী বিল,কাওরাইল বিল, ধানজরী বিল, হোটা হাতা বিল, দিগাইল্লা বিল, দোয়াস বিল সাইল্লা বিল।

হাট-বাজার[সম্পাদনা]

শতবর্ষী সিমনা বাজার,পত্তন চক বাজার,নোয়াগাঁও মোড় বাজার,লক্ষীমুড়া বাজার,মনিপুর বন্দর বাজার।

দর্শনীয় স্থান[সম্পাদনা]

পত্তন ইউনিয়ন তথা বিজয়নগর উপজেলার একটি দর্শনীয় স্থান হল টানমনিপুরে অবস্থিত "শেখ হাসিনা সড়ক" ও সিমনা সেতু,অলিয়াজুরি নদীর তীরের বটগাছ,পত্তন কাচারি সংলগ্ন মন্দির।

উল্লেখযোগ্য ব্যক্তি[সম্পাদনা]

জনপ্রতিনিধি[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "ইউনিয়ন পরিসংখ্যান সংক্রান্ত জাতীয় তথ্য" (PDF)web.archive.org। Wayback Machine। সংগ্রহের তারিখ ২৯ নভেম্বর ২০১৯ 
  2. "ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার তথ্য উপাত্ত" (PDF)web.archive.org। Wayback Machine। সংগ্রহের তারিখ ২৯ নভেম্বর ২০১৯ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]