টেরি ডাফিন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
টেরি ডাফিন
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামটেরেন্স ডাফিন
জন্ম (1982-03-20) ২০ মার্চ ১৯৮২ (বয়স ৩৮)
কেউইকেউই, মিডল্যান্ডস প্রদেশ, জিম্বাবুয়ে
ব্যাটিংয়ের ধরনবামহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি মিডিয়াম
ভূমিকাউদ্বোধনী ব্যাটসম্যান, অধিনায়ক
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ৭৩)
১৩ সেপ্টেম্বর ২০০৫ বনাম ভারত
শেষ টেস্ট২০ সেপ্টেম্বর ২০০৫ বনাম ভারত
ওডিআই অভিষেক
(ক্যাপ ৯০)
২৫ ফেব্রুয়ারি ২০০৬ বনাম কেনিয়া
শেষ ওডিআই১৫ মার্চ ২০০৭ বনাম আয়ারল্যান্ড
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
২০০১ - ২০০৪মিডল্যান্ডস
২০০৪ - ২০০৬মাতাবেলেল্যান্ড
২০০৬ - ২০০৭সাউদার্নস
২০০৯ - ২০১৩মাতাবেলেল্যান্ড তুস্কার্স
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট ওডিআই এফসি এলএ
ম্যাচ সংখ্যা ২৩ ৭৪ ৭৪
রানের সংখ্যা ৮০ ৫৪৬ ৩,৭৭২ ১,৬৫৪
ব্যাটিং গড় ২০.০০ ২৩.৭৩ ২৯.৭০ ২৫.৪৪
১০০/৫০ ০/১ ০/৩ ৪/২৩ ০/১০
সর্বোচ্চ রান ৫৬ ৮৮ ১৯৩ ৮৮
বল করেছে ৩৬
উইকেট
বোলিং গড়
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ১/– ৬/– ৪৩/– ৩২/–
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০

টেরেন্স ডাফিন (ইংরেজি: Terry Duffin; জন্ম: ২০ মার্চ, ১৯৮২) মিডল্যান্ডসের কেউইকেউই এলাকায় জন্মগ্রহণকারী সাবেক জিম্বাবুয়ীয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার ও অধিনায়ক। জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ২০০৫ থেকে ২০০৭ সময়কালে সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্যে জিম্বাবুয়ের পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন।[১][২]

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর জিম্বাবুয়ীয় ক্রিকেটে মাতাবেলেল্যান্ড তুস্কার্স, মিডল্যান্ডস, জিম্বাবুয়ীয় ক্রিকেট একাডেমি দলের প্রতিনিধিত্ব করেন। দলে তিনি মূলতঃ বামহাতি উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলতেন। এছাড়াও, ডানহাতে মিডিয়াম বোলিং করতেন টেরি ডাফিন

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

২০০০-০১ মৌসুম থেকে ২০১৩ সাল পর্যন্ত টেরি ডাফিনের প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবন চলমান ছিল। খাঁটিমানের উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান টেরি ডাফিন প্লামট্রি হাই স্কুলে পড়াশোনা করেছেন। ম্যাশোনাল্যান্ড ডিস্ট্রিক্টসের পক্ষে খেলেন। ১৯৯৮ ও ২০০০ সালে জাতীয় পর্যায়ে অনূর্ধ্ব-১৯ দলে খেলেন। ১৯৯৯ সালে আঘাতের কারণে খেলতে পারেননি তিনি। এরপর, ২০০১ সালে সিএফএক্স একাডেমিতে যোগ দেন। প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটের অভিষেক খেলায় ঐ দলের পক্ষে অধিনায়কের মর্যাদা লাভ করেছিলেন। এরপর, মিডল্যান্ডসে তিন মৌসুম খেলেন। ২০০৪-০৫ মৌসুমে মাতাবেলেল্যান্ডে চলে যান। এ মৌসুমেই তার স্বর্ণালী সময় অতিবাহিত হয়।

২০০৪-০৫ মৌসুমে লোগান কাপে মনিকাল্যান্ডের বিপক্ষে ১১৭ রান তুলেন। এটিই প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে তার প্রথম শতরানের ইনিংস ছিল। তবে, ঐ খেলাটি ড্রয়ে পরিণত হয়েছিল। ২০০৪ সালের গ্রীষ্মকালে আরভিন ক্রিকেট ক্লাবের পক্ষে পেশাদারী পর্যায়ে ক্রিকেট খেলেন। এ দলটি স্কটল্যান্ডের ওয়েস্টার্ন ইউনিয়ন প্রথম বিভাগে অংশগ্রহণ করছে।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে দুইটিমাত্র টেস্ট ও তেইশটি একদিনের আন্তর্জাতিকে অংশগ্রহণ করেছেন টেরি ডাফিন। ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০০৫ তারিখে বুলাওয়েতে সফরকারী ভারত দলের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। এরপর, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০০৫ তারিখে হারারেতে একই দলের বিপক্ষে সর্বশেষ টেস্টে অংশ নেন তিনি।

২০০৫-০৬ মৌসুমে ভারত দল জিম্বাবুয়ে গমন করে। এ সফরে দুই টেস্টে উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলেন। পঞ্চম জিম্বাবুয়ীয় ক্রিকেটার হিসেবে অভিষেক টেস্টে অর্ধ-শতরান করার গৌরব অর্জন করেন। তবে, দ্বিতীয় ইনিংসে দুই রান তুলে জহির খানের বলে আউট হন তিনি।

কোনরূপ একদিনের খেলায় অংশ না নেয়া সত্ত্বেও কেনিয়ার বিপক্ষে একদিনের আন্তর্জাতিকে টেরি ডাফিনকে জিম্বাবুয়ে দলের অধিনায়কের দায়িত্ব প্রদান করা হয়। প্রথম ওডিআইয়ে ৫৩ রান তুলে দলকে জয় এনে দেন। দলের জয়ে ভূমিকা রাখার স্বীকৃতিস্বরূপ তাকে ম্যান অব দ্য ম্যাচের পুরস্কার প্রদান করা হয়।

বাংলাদেশ গমন[সম্পাদনা]

ঘরোয়া ক্রিকেটে সুন্দর ক্রীড়াশৈলী প্রদর্শনের স্বীকৃতিস্বরূপ বাংলাদেশ গমন করেন। তবে, এ সফরে তিনি কোন খেলায় অংশগ্রহণ করার সুযোগ পাননি। পরের বছর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে খেলার সুযোগ পেলেও আঘাতের কারণে তার অভিষেক পর্ব বাঁধাগ্রস্ত হয়। ২০০৫-০৬ মৌসুমে বোর্ডের সাথে খেলোয়াড়দের আর্থিক মতানৈক্যের কারণে তিনি খেলায় অংশ নেন। তাতেন্দা তাইবু’র পরিবর্তে দলকে নেতৃত্ব দেন। দলীয় কোচ কেভিন কারেন তাকে এ দায়িত্ব দেন। ক্যারিবীয় সফরে ব্যাটসম্যান হিসেবে তার সীমাবদ্ধতা লক্ষ্য করা যায়। তবে, ওডিআইয়ে আশানুরূপ রান তুলতে পারেননি। জুলাই, ২০০৬ সালে বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজ শুরুর প্রাক্কালে তাকে অধিনায়ক থেকে অব্যহতি দেয়া হয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Players / Zimbabwe / ODI caps"Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 
  2. "Zimbabwe ODI Batting Averages"Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

পূর্বসূরী
তাতেন্দা তাইবু
জিম্বাবুয়ীয় ওডিআই অধিনায়ক
২০০৫-০৬
উত্তরসূরী
প্রসপার উতসেয়া