উদ্ভিদবিজ্ঞান

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
504px-Pinguiculagrandiflora1web.jpg

উদ্ভিদবিজ্ঞান বা উদ্ভিদ-জীববিদ্যা হচ্ছে জীববিজ্ঞানের একটি শাখা যা জীবন্ত উদ্ভিদের বিষয়ে বৈজ্ঞানিক নিরীক্ষণ সংক্রান্ত কাজ করে থাকে। ঐতিহ্যগতভাবে, উদ্ভিদবিজ্ঞান ছত্রাক, শৈবাল এবং ভাইরাস নিয়েও কাজ করে । বৈজ্ঞানিক পরিমন্ডলের দিক থেকে বিচার করলে, উদ্ভিদবিজ্ঞান অনেকগুলো পরিমন্ডলে বিস্তৃত; যেমন- গঠন, বৃদ্ধি, প্রজনন, বিপাক, ক্রমোন্নয়ন, রোগ, রাসায়নিক বৈশিষ্ট্য এবং বিবর্তনগত সম্পর্ক। শ্রেণীকরণের ভিত্তিতে প্রাপ্ত গুচ্ছগুলোর প্রেক্ষিতে এই বিষয়গুলো আলোচিত হয়। বিজ্ঞানের প্রাচীন শাখাগুলোর একটি হল উদ্ভিদবিজ্ঞান। মানুষ যখন প্রাথমিক পর্যায়ে খাওয়ার উপযোগী, ঔষধগুণ সম্পন্ন এবং বিষাক্ত উদ্ভিদ চিহ্নিত করতে শুরু করে, তখন থেকেই উদ্ভিদবিজ্ঞানের সূচনা। বর্তমান সময়ে উদ্ভিদবিজ্ঞানীরা ৫৫০,০০০ এরও বেশি প্রজাতির জীবন্ত প্রাণ নিয়ে গবেষণা করে চলেছেন।

উদ্ভিদবিজ্ঞানের কার্যক্ষেত্র এবং গুরুত্ব[সম্পাদনা]

জীববিজ্ঞানের অন্যান্য শাখাগুলোর মতই, উদ্ভিদজীবনকেও বিভিন্ন দৃষ্টিকোণ থেকে নিরীক্ষা করা যেতে পারে; যেমন- অণুজীববিজ্ঞান, জীনতাত্ত্বিক বা জৈব রাসায়নিক ইত্যাদি। এই নিরীক্ষা চলে বিভিন্ন বিষয়, যেমন- কোষের অভ্যন্তরস্থ অংশসমূহ, কোষ, টিস্যু/কোষকলা, অঙ্গ, একক, উদ্ভিদের সংখ্যা, গোষ্ঠী ইত্যাদির নিরিখে। এমন প্রতিটি বিষয় নিয়ে কাজ করার সময়, একজন উদ্ভিদবিদ বেশ কিছু পর্যায়ে অবদান রাখতে পারেন; যেমন- উদ্ভিদের শ্রেণীকরণ, অন্তর্গঠন, বহিঃকাঠামো, কার্যপ্রণালী ইত্যাদি।

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]