বাগান

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ব্রিটিশ কলাম্বিয়া, ভিক্টোরিয়া, বার্টচাট বাগানে নিমজ্জিত বাগান।

বাগান (ইংরেজি: Garden) একখণ্ড ভূমি যা ফুল, গাছপালা, লতাপাতা উৎপাদনসহ অন্যান্য উদ্ভিদ সংশ্লিষ্ট কর্মকাণ্ডের সাথে নিবিড়ভাবে জড়িত। ফুল, ফল প্রাপ্তির লক্ষ্যে এতে প্রয়োজনীয় পানি সরবরাহ, নিষ্কাশনসহ আগাছা উৎপাটন করা হয়ে থাকে। শখের বশবর্তী হয়েই মূলতঃ বাগান তৈরী করা হয়। বাগানের সাথে সংশ্লিষ্ট বেতনভূক্ত ব্যক্তি বাগানমালী বা মালী নামে পরিচিত।

প্রকারভেদ[সম্পাদনা]

বাগান অনেক ধরনের হয়ে থাকে। বাড়ীর পার্শ্ববর্তী ভূমি, ভবনের ছাদ অথবা গ্রীনহাউজের মাধ্যমেও বাগান তৈরী করা সম্ভবপর। জলদ বাগান পুকুর কিংবা সেঁতুর শোভাবর্ধনে তৈরী করা হয়। এতে মূলতঃ শাপলাসহ জলজ উদ্ভিদের সংমিশ্রণ ঘটে। বাড়ীর বাইরে প্রাতিষ্ঠানিক পর্যায়ে বোটানিক্যাল গার্ডেন, চিড়িয়াখানা, থিম পার্কে বাগান তৈরী করা হয়। সাধারণতঃ এ ধরনের বাগান দেখাশোনা, পরিচর্যার জন্যে মালী বা উদ্যানরক্ষকের প্রয়োজন পড়ে। এজাতীয় বাগানে প্রবেশের জন্যে অনেক সময় দর্শনী ধার্য্য করা হয়। ব্যক্তিগত বাগান মূলতঃ বিনোদন বা শখের নিমিত্তে যা ব্যবসায়ের জন্যে নয়।

কৃষিজমি বা খামারের সাথে এর ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক রয়েছে। তবে খামার বাগানের তুলনায় অনেক বড়। ব্যক্তি পর্যায়ে বাগানের আয়তন মাত্র কয়েক বর্গমিটারের হতে পারে। নকশার উপর নির্ভর করে খসড়াভাবে বাগানকে দুই ভাগে ভাগ করা যায়। আনুষ্ঠানিক এবং প্রাকৃতিক বাগান।[১]

বৈশিষ্ট্যাবলী[সম্পাদনা]

বাগানের সাথে প্রধানতঃ গাছেরই সম্পর্ক থাকে। এছাড়াও অনেক বাগানেই বিশেষ কিছু বৈশিষ্ট্য থাকতে পারে। তন্মধ্যে - চলাচল উপযোগী রাস্তা, বসার জায়গা, পাথর, পুকুর, ঝরনা, ক্ষুদ্র পরিসরে জলপ্রপাত ইত্যাদি। পরিকল্পিতভাবে বাগান তৈরীর জন্যে প্রয়োজনে স্থাপত্যবিদ কিংবা নকশাকারদের শরণাপন্ন হওয়া যেতে পারে। প্রাচীন রোমের বাগানগুলোয় ঝরনা, ভাস্কর্যসহ উল্লেখযোগ্য স্থাপনা অন্তর্ভূক্ত ছিল। জাপানের বাগানগুলো্য়ও ব্যক্তির নিজস্ব চিন্তা-চেতনা, স্বকীয় বৈশিষ্ট্যপূর্ণ রূচীবোধের পরিচয় ফুঁটিয়ে তোলা হয়।

ব্যবহার[সম্পাদনা]

বাগান করা এক ধরনের শারীরিক ও শৈল্পিক ক্রিয়াকলাপ। এতে অনেক সময় প্রচুর শক্তি খরচ হতে পারে যা হৃদপিণ্ডের গতিবেগ বেড়ে যেতে পারে। ব্যায়ামের জন্যেও উত্তম ক্ষেত্র হিসেবে বিবেচিত। শারীরিক সক্ষমতার উপর নির্ভর করে গাছ রোপন, পানি সরবরাহ, আগাছা উৎপাটন, পরিচর্যা কিংবা শুধুই হাঁটার জন্যে ১৫ মিনিট বা ততোধিক সময় ব্যয় করা উচিত।

গাছে ফুলের প্রাচুর্যতা, গন্ধ ইত্যাদি পেতে অনেক লোকের আগমন ঘটতে দেখা যায়। গোলাপ, বাগানবিলাশ, অর্কিডসহ অন্যান্য গাছ দেখতে অত্যন্ত নয়ন মনোহর। এছাড়াও, বাগানে বসে বই পড়ার অভ্যাসও সবিশেষ লক্ষ্যণীয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

টেমপ্লেট:Horticulture and Gardening