রবি রামপাল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
রবি রামপাল
Ravi Rampaul.jpg
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামরবীন্দ্রনাথ রামপাল
জন্ম (1984-10-15) ১৫ অক্টোবর ১৯৮৪ (বয়স ৩৪)
প্রেসাল, ত্রিনিদাদ ও টোবাগো
ব্যাটিংয়ের ধরনবামহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি ফাস্ট মিডিয়াম
ভূমিকাবোলার
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ২৮২)
২৬ নভেম্বর ২০০৯ বনাম অস্ট্রেলিয়া
শেষ টেস্ট১৭ নভেম্বর ২০১২ বনাম বাংলাদেশ
ওডিআই অভিষেক
(ক্যাপ ১১৮)
২২ নভেম্বর ২০০৩ বনাম জিম্বাবুয়ে
শেষ ওডিআই১৪ জুন ২০১৩ বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
২০০১/০২-বর্তমানত্রিনিদাদ ও টোবাগো
২০০৮আয়ারল্যান্ড
২০১৩-বর্তমানরয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট ওডিআই টি২০আই এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ১৮ ৯০ ২২ ৬২
রানের সংখ্যা ৩৩৫ ৩৫৯ ১২ ১,০৩১
ব্যাটিং গড় ১৪.৫৬ ১২.৩৭ ১২.০০ ১৩.৭৪
১০০/৫০ ০/০ ০/১ ০/০ ০/২
সর্বোচ্চ রান ৪০* ৮৬** ৬৪**
বল করেছে ৩,৪৪০ ৩,৯৬৭ ৪৭৩ ৯,৮৬০
উইকেট ৪৯ ১১৫ ২৬ ১৮২
বোলিং গড় ৩৪.৭৯ ২৯.২২ ২৬.৩৪ ৩০.১৩
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট - -
সেরা বোলিং ৪/৪৮ ৫/৪৯ ৩/১৬ ৭/৫১
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ৩/– ১৪/– ২/– ১৮/–
উৎস: CricketArchive; espncricinfo, ৩ মে ২০১৫

রবীন্দ্রনাথ রামপাল (ইংরেজি: Ravindranath Rampaul; জন্ম: ১৫ অক্টোবর, ১৯৮৪) ত্রিনিদাদ ও টোবাগো’র প্রেসালে জন্মগ্রহণকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের ক্রিকেটার। তিনি হচ্ছেন প্রথম ভারতীয় বংশোদ্ভূত দ্রুতগামী বোলার, যিনি ওয়েস্ট ইন্ডিজের পক্ষে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে টেস্ট, একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট এবং টুয়েন্টি২০ আন্তর্জাতিকে প্রতিনিধিত্ব করছেন।[১] পেস এবং সঠিক মানের নিখুঁত বোলিং ভঙ্গীমার দরুন চিহ্নিত হয়ে আছেন। বেশ কয়েক বছর ধরে জেরোমি টেলরের সাথে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বোলিং আক্রমণে নেতৃত্ব দিচ্ছেন। এছাড়াও তিনি ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরের পক্ষে ২০১৩ সালের নিলামে অংশগ্রহণ করে চুক্তিবদ্ধ হন।

খেলোয়াড়ী জীবন[সম্পাদনা]

২০০২-০৩ মৌসুমের ওয়েস্ট ইন্ডিজের ঘরোয়া ক্রিকেটে ছয়টি খেলায় অংশগ্রহণ করে ১৮ উইকেট লাভ করেন যা কেবলমাত্র মারলন ব্ল্যাকের চেয়ে বেশী ছিল।[২] ২০০৩-০৪ মৌসুমে ওয়েস্ট ইন্ডিজের অনূর্ধ্ব-১৯ ক্রিকেট দলের হয়ে রেড স্ট্রিপ বোলে অনুষ্ঠিত একদিনের ক্রিকেট প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করেন। দলের পক্ষে তিনি শীর্ষস্থানীয় উইকেট সংগ্রহকারী ছিলেন যা নিকটতম খেলোয়াড়ের চেয়ে দ্বিগুণ ছিল।[৩]

প্রতিযোগিতা শেষে রামপাল ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলে প্রতিনিধিত্ব করার জন্য অক্টোবর-নভেম্বরে জিম্বাবুয়ে সফরে ডাক পান।[৪] কিন্তু প্রথম খেলায় তিনি কোন উইকেট লাভ করতে পারেননি। ৩০ ওভারে ১৩টি নো-বল দিয়েছিলেন।[৫] ফলে, দুই টেস্ট ম্যাচের কোনটিতেই তার অংশগ্রহণের সুযোগ ঘটেনি। তবে, একদিনের প্রস্তুতিমূলক খেলায় জিম্বাবুয়ে এ দলের উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান ডিওন ইব্রাহিমসহ দুইজনের উইকেট দখল করায় পাঁচটি খেলার চারটিতে অংশগ্রহণ করেন।[৬] ঘটনাক্রমে তিনি কোন উইকেট লাভে ব্যর্থ হলে দল চূড়ান্ত খেলায় জয়ী হয়ে সিরিজ ৩-২ ব্যবধানে জয় করে। তার এ ব্যর্থতায় তিনি ওয়েস্ট ইন্ডিজের সর্বাপেক্ষা ব্যয়বহুল বোলিং করেন, যিনি কমপক্ষে চার ওভার বোলিং করেও কোন উইকেট পাননি।[৭]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Cricinfo Player Profile: Ravi Rampaul, retrieved 30 July 2006
  2. Bowling for Trinidad and Tobago – Busta Cup 2002/03, from CricketArchive, retrieved 30 July 2006
  3. Bowling for West Indies Under-19s – Red Stripe Bowl 2003/04, from CricketArchive, retrieved 30 July 2006
  4. Rampaul named in West Indies squad for Zimbabwe tour, from Cricinfo, retrieved 30 July 2006
  5. Zimbabwe A v West Indians in 2003/04, from CricketArchive, retrieved 30 July 2006
  6. Zimbabwe A v West Indians in 2003/04, from CricketArchive, retrieved 30 July 2006
  7. West Indies in Zimbabwe, 2003–04 One-Day Series Averages, from Cricinfo, retrieved 30 July 2006

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]