বিষয়বস্তুতে চলুন

ভিলহেল্ম কনরাড র‌ন্টগেন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ভিলহেল্ম কনরাড র‌ন্টগেন
ভিলহেল্ম কনরাড র‌ন্টগেন
জন্মমার্চ ২৭, ১৮৪৫
মৃত্যু১০ ফেব্রুয়ারি ১৯২৩(1923-02-10) (বয়স ৭৭)
জাতীয়তা জার্মান
মাতৃশিক্ষায়তনইটিএইচ জুরিখ, জুরিখ বিশ্ববিদ্যলয়
পরিচিতির কারণএক্স রশ্মি
পুরস্কার পদার্থবিজ্ঞানে নোবেল পুরস্কার (১৯০১)
বৈজ্ঞানিক কর্মজীবন
কর্মক্ষেত্রপদার্থবিজ্ঞান
প্রতিষ্ঠানসমূহস্ট্রাসবুর্গ বিশ্ববিদ্যলয়
হোহেনহাইম
University of Giessen
ভুজবুর্গ বিশ্ববিদ্যলয়
মিউনিখ বিশ্ববিদ্যলয়
ডক্টরেট শিক্ষার্থীহেরমান মার্খ
স্বাক্ষর

ভিলহেল্ম কনরাড রন্টগেন[১] (জার্মান ভাষায় Wilhelm Conrad Röntgen ভিল্‌হেল্ম্‌ কন্‌রাট্‌ র‌্যন্ট্‌গ্‌ন্‌) (মার্চ ২৭, ১৮৪৫ – ফেব্রুয়ারি ১০, ১৯২৩) একজন জার্মান পদার্থবিজ্ঞানী যিনি পদার্থবিজ্ঞানে প্রথম নোবেল পুরস্কার লাভ করেন। তিনি এক্স রশ্মির আবিষ্কারক যাকে তার নামানুসারে রঞ্জন রশ্মিও বলা হয়।

Hand mit Ringen: রন্টগেনের তোলা প্রথম মানবদেহের এক্স-রে চিত্র। রন্টগেন ১৮৯৫ এর ২২শে ডিসেম্বর তার স্ত্রী আনা বার্থা রন্টগেনের হাতের ছবি তোলেন।[২][৩]

শিক্ষাজীবন[সম্পাদনা]

রন্টগেন ইটিএইচ জুরিখে যন্ত্র প্রকৌশল নিয়ে পড়াশোনা করেন। তিনি ১৮৬৯ সালে জুরিখ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ডক্টরেট ডিগ্রি লাভ করেন।

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

১৮৭৪ সালে রন্টগেন স্ট্রাসবুর্গ বিশ্ববিদ্যালয় এ প্রভাষক হিসেবে যোগদান করেন।

নোবেল জয়[সম্পাদনা]

এক্স রশ্মি আবিষ্কার এবং এ ধরনের রশ্মির যথোপযুক্ত ব্যবহারিক প্রয়োগে সফলতা অর্জনের জন্য তিনি ১৯০১ সালে পদার্থবিজ্ঞানে সর্বপ্রথম নোবেল পুরস্কার লাভ করেন।

অন‍্যান‍্য পুরস্কার ও সম্মাননা[সম্পাদনা]

তাছাড়াও ২০০৪ সালে ইন্টারন্যাশনাল ইউনিয়ন অব পিওর অ্যান্ড কেমিস্ট্রি তার নামে ১১১তম মৌলের নামকরণ করে রন্টগেনিয়াম।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. বাংলায় অনেক সময় তার নাম উইলিয়াম রন্টজেন লেখা হয়। এ নিবন্ধে ব্যবহৃত বানানে উইকিপিডিয়ার জার্মান শব্দ প্রতিবর্ণীকরণের নীতি অনুসরণ করা হয়েছে।
  2. Kevles, Bettyann Holtzmann (১৯৯৬)। Naked to the Bone Medical Imaging in the Twentieth Century। Camden, NJ: Rutgers University Press। পৃষ্ঠা 19–22। আইএসবিএন 0813523583 
  3. Sample, Sharron (2007-03-27)। "X-rays"The electromagnetic spectrum। NASA। সংগ্রহের তারিখ 2007-12-03  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |তারিখ= (সাহায্য)