অস্থি মজ্জা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
অস্থি মজ্জা
Gray72-en.svg
অস্থি মজ্জায় কোষের সরলীকৃত নমুনা
বিস্তারিত
শনাক্তকারী
লাতিন Medulla ossium
MeSH D001853
টিএ A13.1.01.001
এফএমএ FMA:9608
অ্যানাটমিকল পরিভাষা

অস্থি মজ্জা ,অস্থির ভিতরের নমনীয় টিস্যু।মানবদেহে দীর্ঘ অস্থির ঊর্ধ প্রান্তের অস্থি মজ্জা থেকে হেমাটোপয়েসিস প্রক্রিয়ার মাধ্যমে লোহিত রক্তকণিকা উৎপন্ন হয়।গড়ে মানুষের দেহভারের ৪% অস্থিমজ্জা ।৬৫ কেজি ওজনের মানুষের অস্থি মজ্জার পরিমাণ প্রায় ২.৬ কেজি।অস্থি মজ্জার রক্ত উৎপন্নকারী অংশ প্রতিদিন প্রায় ৫০০ বিলিওন রক্ত কোষ উৎপন্ন করে,যা দেহের সিস্টেমিক রক্তপ্রবাহে যায়।[১] এটি লসিকা তন্ত্রের গুরুত্বপূর্ণ উপাদান যা লসিকা উৎপন্ন করে দেহের রোগ প্রতিরোধ করে। [২]

অস্থি মজ্জা স্থানান্তরের (Bone Marrow Transplantation) মাধ্যমে কিছু রোগ যেমন ক্যান্সারের কিছু প্রকরণের চিকিৎসা করা হয়।[৩][৪]

প্রকারভেদ[সম্পাদনা]

ফিমারের মস্তক।লাল এবং হলুদ অস্থি মজ্জা দৃশ্যমান

দুই ধরনের অস্থি মজ্জা- লাল অস্থি মজ্জা,যা রক্ত উৎপন্নকারি টিস্যু এবং হলুদ অস্থি মজ্জা,যা ফ্যাট কোষ দিয়ে গঠিত।লাল মজ্জা থেকে লোহিত রক্তকণিকা,অণুচক্রিকা এবং অধিকাংশ শ্বেত রক্তকণিকা উৎপন্ন হয়।জন্মের সময় সকল অস্থি মজ্জা লাল থাকে।বয়সের সাথে সাথে অধিকাংশ ফ্যাটের সাথে মিশ্রিত হয়ে হলুদ অস্থি মজ্জায় রূপান্তরিত হয়।লাল মজ্জা প্রধানত সমতল অস্থি যেমন শ্রোণী অস্থিচক্র,স্টার্নাম,মাথার খুলি,পর্শুকা,কশেরুকা,স্ক্যাপুলা ইত্যাদি এবং দীর্ঘ অস্থি যেমন ফিমারহিউমেরাস এর দুই প্রান্তে থাকে।হলুদ মজ্জা দীর্ঘ অস্থির মাঝামাঝিতে মেডুলারি গহ্বরে থাকে।অনেক রক্ত ক্ষরণ হলে শরীর হলুদ মজ্জাকে লাল মজ্জায় রূপান্তরিত করে রক্ত কণিকা উৎপাদনে সাহায্য করে।

স্ট্রোমা[সম্পাদনা]

লাল অস্থিমজ্জা প্যারেনকাইমা[সম্পাদনা]

কোষীয় উপাদান[সম্পাদনা]

রক্তকণিকা উৎপাদনকারী পূর্বসূরি কোষ:অস্থি মজ্জা থেকে সংগৃহীত, কেন্দ্রে প্রোমায়েলোসাইট, এর পরে মেটামায়েলোসাইট এবং ব্যান্ড কোষ
লাল অস্থিমজ্জা প্যারেনকাইমার কোষীয় উপাদান [৫]
গ্রুপ কোষ গড় পরিমাণ আদর্শ সীমা
মায়েলোপয়েটিক
কোষ
মায়েলোব্লাস্ট ০.৯% ০.২-১.৫
প্রোমায়েলোসাইট ৩.৩% ২.১-৪.১
নিউট্রোফিলিক মায়েলোসাইট ১২.৭% ৮.২-১৫.৭
ইওসিনিফিলিক মায়েলোসাইট ০.৮% ০.২-১.৩
নিউট্রোফিলিক মেটামায়েলোসাইট ১৫.৯% ৯.৬-২৪.৬
ইওসিনিফিলিক মেটামায়েলোসাইট ১.২% ০.৪-২.২
নিউট্রোফিলিক ব্যান্ড কোষ ১২.৪% ৯.৫-১৫.৩
ইওসিনিফিলিক ব্যান্ড কোষ ০.৯% ০.২-২.৪
সেগমেন্টেড নিউট্রোফিল ৭.৪% ৬.০-১২.০
ইওসিনিফিল গ্রানুলোসাইট ০.৫% ০.০-১.৩
বেসোফিল গ্রানুলোসাইট এবং মাস্ট কোষ ০.১% ০.০-০.২
ইরাইথ্রোপয়েটিক
কোষ
প্রোনর্মোব্লাস্ট ০.৬% ০.২-১.৩
বেসোফিলিক নর্মোব্লাস্ট ১.৪% ০.৫-২.৪
পলিক্রোমাটিক নর্মোব্লাস্ট ২১.৬% ১৭.৯-২৯.২
অর্থোক্রমাটিক নর্মোব্লাস্ট ২.০% ০.৪-৪.৬
অন্যান্য কোষ মেগাক্যারিওসাইট < ০.১% ০.০-০.৪
প্লাজমা কোষ ১.৩% ০.৪-৩.৯
রেটিকুলার কোষ ০.৩% ০.০-০.৯
লিম্ফোসাইট ১৬.২% ১১.১-২৩.২
মনোসাইট ০.৩% ০.০-০.৮

অস্থি মজ্জার রোগ[সম্পাদনা]

স্বাভাবিক অস্থি মজ্জার গঠন অ্যাপ্লাস্টিক অ্যানিমিয়া,ক্যান্সার বা সংক্রমণ যেমন যক্ষ্মা দ্বারা পরিবর্তিত হতে পারে এবং রক্তকণিকা উৎপাদনকারী কোষের সংখ্যা কমে যায়।অস্থি মজ্জায় লিউকেমিয়াও হতে পারে।[৬] এর পাশাপাশি,কেমোথেরাপি বা রেডিয়েশন এর ফলে অস্থি মজ্জার অনেক কোষ মরে যায় এবং এর ফলে প্রতিরোধ ব্যবস্থা বা immune system কমে যায়।

অস্থি মজ্জা সম্পর্কিত রোগ নির্ণয় করতে অস্থি মজ্জা সংগ্রহ করতে হয়।[৭]

অস্থি মজ্জা দান ও স্থানান্তর[সম্পাদনা]

একটি প্রাণী থেকে বিশেষ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে অন্য প্রাণীঅস্থিতে স্থানান্তর করা যায়।

সংগ্রহ[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. দৃষ্টি আকর্ষণ: এই টেমপ্লেটি ({{cite doi}}) অবচিত। doi দ্বারা চিহ্নিত প্রকাশনা উদ্ধৃত করার জন্য:10.1089/ten.teb.2009.0352, এর পরিবর্তে দয়া করে |doi=10.1089/ten.teb.2009.0352 সহ {{সাময়িকী উদ্ধৃতি}} ব্যবহার করুন।
  2. The Lymphatic System. Allonhealth.com. Retrieved 5 December 2011.
  3. "Antibody Transforms Stem Cells Directly Into Brain Cells"। Science Daily। ২২ এপ্রিল ২০১৩। সংগৃহীত ২৪ এপ্রিল ২০১৩ 
  4. "Research Supports Promise of Cell Therapy for Bowel Disease"Wake Forest Baptist Medical Center। ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৩। সংগৃহীত ৫ মার্চ ২০১৩ 
  5. Appendix A:IV in Wintrobe's clinical hematology (9th edition). Philadelphia: Lea & Febiger (1993).
  6. "Human acute myeloid leukemia is organized as a hierarchy that originates from a primitive hematopoietic cell"Nature। ১৯৯৭। সংগৃহীত ৯ নভেম্বর ২০১২ 
  7. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; T4 নামের ref গুলির জন্য কোন টেক্সট প্রদান করা হয়নি