চুল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
চুল
Gray945.png
চুলের ফলিকলের প্রস্থচ্ছেদ
কোড TH H3.12.00.3.02001
২০০ গুণ বিবর্ধিত মানুষের চুল
মানুষ ব্যতীত অন্যান্য স্তন্যপায়ী প্রাণির শরীরে যে নরম, সুন্দর চুল পাওয়া যায় তাকে "ফার" বা লোম বলে।

চুল অন্তস্ত্বক বা ত্বকের বহিঃস্তরে অবস্থিত ফলিকল থেকে উৎপন্ন চিকন লম্বা সুতার মতোন প্রোটিন তন্তু। শুধুমাত্র স্তন্যপায়ী প্রাণির শরীরে পাওয়া যায় বলে চুল স্তন্যপায়ী প্রাণির একটি নির্দেশক বৈশিষ্ট্য।[১] চুলের প্রধান উপাদান হচ্ছে কেরাটিন। মানুষ ব্যতীত অন্যান্য স্তন্যপায়ী প্রাণির শরীরে যে নরম, সুন্দর চুল পাওয়া যায় তাকে "ফার" বা লোম বলে। অন্যদিকে ভেড়া এবং ছাগলের শরীরে উৎপন্ন হওয়া কোঁকড়ানো চুলকে উল বলে। যদিও কিছু অ-স্তন্যপায়ী প্রাণি, বিশেষত পোকা মাকড়ের দেহ থেকে চুলের মত জিনিস বের হয়ে থাকতে দেখা যায়, কিন্তু বৈজ্ঞানিক দৃষ্টিকোণ থেকে সেগুলোকে "চুল" বলা হয় না। গাছের গায়ে চুলের মত রোঁয়া বের হয়ে থাকতে দেখা যায়। পোকা-মাকড় এবং মাকড়সার মত অ্যান্থ্রোপড গোত্রের কিছু প্রাণির শরীরে যে রোঁয়া দেখা যায়, তা চিটিন নামের এক ধরনের পলিস্যাকারাইড। কিছু কিছু কুকুর, বেড়াল এবং ইঁদুর লোমবিহীন হয়। কিছু কিছু প্রজাতির ক্ষেত্রে জীবনচক্রের নির্দিষ্ট সময় শরীরে লোম থাকে না।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

টীকা[সম্পাদনা]

  1. definition askoxford.com

গ্রন্থপঙ্জী[সম্পাদনা]

  • Iyengar, B. (১৯৯৮)। "The hair follicle is a specialized UV receptor in human skin?"। Bio Signals Recep 7 (3): 188–194। ডিওআই:10.1159/000014544 
  • Jablonski, N. G. (২০০৬)। Skin: a natural history। Berkeley, CA: University of California Press। 
  • Rogers, Alan R.; Iltis, David; Wooding, Stephen (২০০৪)। "Genetic variation at the MC1R locus and the time since loss of human body hair"। Current Anthropology 45 (1): 105–108। ডিওআই:10.1086/381006 
  • Tishkoff, S. A.; Dietzsch, E.; Speed, W.; Pakstis, A. J.; Kidd, J. R.; Cheung, K.; Bonne-Tamir, B.; Santachiara-Benerecetti, A. S. এবং অন্যান্য (১৯৯৬)। "Global patterns of linkage disequilibrium at the CD4 locus and modern human origins"। Science 271 (5254): 1380–1387। ডিওআই:10.1126/science.271.5254.1380পিএমআইডি 8596909বিবকোড:1996Sci...271.1380T 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]