কুকি ভাষা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
কুকি
কুকি/চীন
জাতিতত্ত্বকুকি জনগোষ্ঠী, চীন, মিজো জনগোষ্ঠী, নাগা জনগোষ্ঠী, করবি জনগোষ্ঠী, ম্রো জনগোষ্ঠী
ভৌগোলিক বিস্তারবাংলাদেশ, বার্মা, ভারত
ভাষাগত শ্রেণীবিভাগসিনো তিব্বতীয়
  • কুকি
উপবিভাগ
গ্লোটোলগkuki1246  (Kuki-Chin)[১]
karb1240  (Karbic)[২]
mani1292  (মনিপুরি)[৩]

কুকি ভাষাকুকি চিন, মিজো/কুকি/চিন অথবা কুকি নাগা নামে পরিচিত, বাংলাদেশের পূর্বাংশে, বার্মার পশ্চিমাংশে এবং উত্তর-পশ্চিম ভারতে প্রচলিত সিনো-তিব্বতীয় ভাষা পরিবারের অন্তঃর্ভূক্ত একটি ভাষা। এই ভাষাভাষী অধিকাংশ জনগোষ্ঠী আসামে কুকি জনগোষ্ঠী, বার্মায় চিন জনগোষ্ঠী নামে পরিচিত। অনেকে স্থানে এরা নাগা জনগোষ্ঠী নামেও পরিচিত। তবে মিজো জনগোষ্ঠী নৃতাত্ত্বিকভাবেই আলাদা।

ভাষাতাত্ত্বিক দলীয় বিভাজনের তুলনায় ভৌগোলিক বিভাজনকে মূখ্য ধরে কুকি ভাষাকে অনেক সময় কুকি-চিন-নাগা ভাষা বলা হয়।

উপশ্রেনী[সম্পাদনা]

ভাষার সাধারণ বিন্যাস থেকে বলা যায় করবি ভাষা কুকি ভাষার অংশ অথবা কুকি ভাষার সাথে সম্পর্কিত। থুরগুড(২০০৩) এবং ভ্যান ড্রিয়েম (২০১১) করবি ভাষাকে সিনো তিব্বতী ভাষাগোষ্ঠীর মধ্যে অশ্রেণীবদ্ধ হিসেবে রেখে দিয়েছেন।[৪][৫] কুকি ভাষার উপভাষাসমূহের মধ্যে পার্থক্য খুবই ক্ষীণ। একদা ম্রো ভাষাকে কুকি ভাষার উপশ্রেণী হিসেবে তালিকাবদ্ধ করা হতো।

বই[সম্পাদনা]

আরো পড়ুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. হ্যামারস্ট্রোম, হারাল্ড; ফোরকেল, রবার্ট; হাস্পেলম্যাথ, মার্টিন, সম্পাদকগণ (২০১৭)। "Kuki-Chin"গ্লোটোলগ ৩.০ (ইংরেজি ভাষায়)। জেনা, জার্মানি: মানব ইতিহাস বিজ্ঞানের জন্য ম্যাক্স প্লাংক ইনস্টিটিউট। 
  2. হ্যামারস্ট্রোম, হারাল্ড; ফোরকেল, রবার্ট; হাস্পেলম্যাথ, মার্টিন, সম্পাদকগণ (২০১৭)। "Karbic"গ্লোটোলগ ৩.০ (ইংরেজি ভাষায়)। জেনা, জার্মানি: মানব ইতিহাস বিজ্ঞানের জন্য ম্যাক্স প্লাংক ইনস্টিটিউট। 
  3. হ্যামারস্ট্রোম, হারাল্ড; ফোরকেল, রবার্ট; হাস্পেলম্যাথ, মার্টিন, সম্পাদকগণ (২০১৭)। "মনিপুরি"গ্লোটোলগ ৩.০ (ইংরেজি ভাষায়)। জেনা, জার্মানি: মানব ইতিহাস বিজ্ঞানের জন্য ম্যাক্স প্লাংক ইনস্টিটিউট। 
  4. Thurgood, Graham (2003) "A subgrouping of the Sino-Tibetan languages: The interaction between language contact, change, and inheritance." In G. Thurgood and R. LaPolla, eds., The Sino-Tibetan languages, pp. 13–14. London: Routledge, আইএসবিএন ৯৭৮-০-৭০০৭-১১২৯-১.
  5. —— (২০১১a), "Tibeto-Burman subgroups and historical grammar", Himalayan Linguistics Journal, 10 (1): 31–39, ১২ জানুয়ারি ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা, সংগ্রহের তারিখ ৫ জুন ২০১৫. 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]