রণবিজয়পুর মসজিদ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
রণবিজয়পুর মসজিদ

রণবিজয়পুর মসজিদ বাংলাদেশের এক গুম্বজ বিশিষ্ট মসজিদের মধ্যে সর্ববৃহৎ মসজিদ। এটি বাগেরহাট জেলার সদর উপজেলায় অবস্থিত। এটি বাংলাদেশের একটি প্রত্নতাত্ত্বিক স্থাপনা

অবস্থান[সম্পাদনা]

বাগেরহাট জেলা সদর থেকে প্রায় ৩.৫ কিলোমিটার পশ্চিমে এবং ষাটগুম্বজ মসজিদ থেকে ১.৫০ কি.মি. পূর্বে ষাটগুম্বজ ইউনিয়নের রনবিজয়পুর গ্রামে এক গুম্বজ বিশিষ্ট মসজিদটি রণবিজয়পুর মসজিদ।

নির্মানশৈলী[সম্পাদনা]

অনেকের মতে মসজিদটির আদি নাম দরিয়া খাঁ'র মসজিদ। দরিয়া খাঁ ছিলেন হযরত খান জাহান আলীর সহচর।[১] ধারণা করা হয় রণবিজয়পুর মসজিদ হযরত খানজাহান আলীর সময়কালে (১৪৫৯) সালে নির্মিত হয়েছে। রণবিজয়পুর মসজিদে বাংলাদেশের বৃহত্তম গম্বুজ অবস্থিত। ইটের তৈরী মসজিদের দেয়ালগুলো বেশ পুরু। পশ্চিম পাশের দেয়াল ব্যতিত বাকী তিনটি দেয়ালের প্রতিটিতে তিনটি করে দরজা আছে। পশ্চিম দেয়ালে তিনটি মেহরাব আছে। মাঝের মেহরাবটি অন্য দুটি মেহরাবের তুলনায় বড়। বাইরে থেকে মসজিদের আয়তন ৫৬ বর্গফুট এবং ভেতরের দিকে ৩৬ বর্গফুট। মসজিদের প্রাচীর দশ ফুটের মত চওড়া। মসজিদের কার্নিশ সামান্য বাঁকানো এবং চারকোনার বাইরের বুরুজ কার্নিশের উপর পর্যন্ত বিস্তৃত।

বাংলাদেশের বৃহত্তম গম্বুজ (১১ মিটার) রয়েছে এই মসজিদে। এর মূল মিহরাবে ফুলের নকশা রয়েছে। মসজিদের উত্তর, পূর্ব ও দক্ষিণ দিকে রয়েছে ৩টি প্রবেশদ্বার এবং এর দেওয়ালে রয়েছে তিনটি পোড়ামাটির অলংকরন। খান জাহানের স্থাপত্যশৈলী অনুসরণ করে এই মসজিদটি নির্মাণ করা হয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]