খান জাহান আলী সেতু

স্থানাঙ্ক: ২২°৪৬′৪০″ উত্তর ৮৯°৩৫′০২″ পূর্ব / ২২.৭৭৭৬৫° উত্তর ৮৯.৫৮৪০০° পূর্ব / 22.77765; 89.58400
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
খান জাহান আলী সেতু
Rupsha bridge.jpg
খান জাহান আলী সেতু
স্থানাঙ্ক২২°৪৬′৪০″ উত্তর ৮৯°৩৫′০২″ পূর্ব / ২২.৭৭৭৬৫° উত্তর ৮৯.৫৮৪০০° পূর্ব / 22.77765; 89.58400
অতিক্রম করেরূপসা নদী
স্থানখুলনা
অন্য নামরূপসা সেতু
রক্ষণাবেক্ষকবাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষ লিমিটেড
বৈশিষ্ট্য
মোট দৈর্ঘ্য১.৬০ কি.মি.
প্রস্থ১৬.৪৮ মি.
ইতিহাস
চালু২১ মে ২০০৫
অবস্থান

খানজাহান আলী সেতু রূপসা নদীর উপর নির্মিত একটি সেতু। এটি রূপসা সেতু নামেও পরিচিত। এই সেতুর বিশেষ বৈশিষ্ট্য হলো দুই প্রান্তে দুটি করে মোট চারটি সিড়ি রয়েছে যার সাহায্যে মূল সেতুতে উঠা যায়। প্রতিদিন প্রচুর দর্শনার্থী সেতুটি পরিদর্শন করতে আসেন।

অবস্থান[সম্পাদনা]

খুলনা শহরের রূপসা থেকে ব্রিজের দূরত্ব ৪.৮০ কি.মি। এই সেতুকে খুলনা শহরের প্রবেশদ্বার বলা যায় কারণ এই সেতু খুলনার সঙ্গে দক্ষিণাঞ্চলের জেলাগুলির বিশেষত মংলা সমুদ্র বন্দরের সঙ্গে সড়ক যোগাযোগ স্থাপিত হয়েছে। সেতুটির দৈর্ঘ্য প্রায় ১.৬০ কি.মি.।[১] সেতুটিতে পথচারী ও অযান্ত্রিক যানবাহনের জন্য বিশেষ লেন রয়েছে। বর্তমানে এটি খুলনার একটি দর্শনীয় স্থানে পরিণত হয়েছে। রাতে সেতুর উপর থেকে খুলনা শহরকে অপূর্ব সুন্দর মনে হয়। উৎসবের দিনগুলোতে এই সেতুতে তরুণ-তরুণীরা ভিড় করেন ও আনন্দ করেন। জাপানী সহায়তায় নির্মিত সেতুটির ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেন তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং উদ্বোধন করেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগমখালেদা জিয়া

চিত্রশালা[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "LeftNavigation"rhd.gov.bd। ১২ জুন ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১২ আগস্ট ২০১৪ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]