ঈদে মিলাদুন্নবী

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(মিলাদুন্নবী থেকে পুনর্নির্দেশিত)
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
মুহাম্মাদ
বিষয়ের ধারাবাহিকের একটি অংশ
মুহাম্মাদ

ঈদ-এ-মিলাদুন্নবী (আরবি: مَوْلِدُ النَبِيِّ‎‎ মাওলিদু এন-নাবীয়ী, আরবি: مولد النبي মাওলিদ আন-নাবী, কখনো কখনো সহজভাবে বলা হয় مولد মাওলিদ, মেভলিদ, মেভলিট, মুলুদ আরো অসংখ্য উচ্চারণ; কখনো কখনো: ميلاد মিলাদ) হচ্ছে শেষ নবীর জন্মদিন হিসেবে মুসলমানদের মাঝে পালিত একটি উৎসব। মুসলিমদের মাঝে এ দিনটি বেশ উৎসবের সাথে পালন হতে দেখা যায়। তবে উৎসব নিয়ে ইসলামি পণ্ডিতদের মাঝে অনেক বিতর্ক রয়েছে। হিজরি বর্ষের তৃতীয় মাস রবিউল আউয়াল-এর বারো তারিখে এ উৎসব অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশি মুসলমানরা এই দিনকে ঈদ-এ-মিলাদুন্নবী বলে অভিহিত করেন। অপরদিকে পশ্চিমবঙ্গের মুসলমানদের কাছে এই দিন নবী দিবস নামে পরিচিত।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

হিজরী ৪র্থ শতাব্দীর মাঝামাঝি থেকে মিলাদুন্নবীর প্রচলন শুরু হয়। রাসূল(সা), আলী(রা), ফাতেমা(রা), হাসান ও হুসাইন(রা) এর জন্মদিন, এসবের মূল প্রর্বতক ছিল খলীফা আল মুয়িজ্জু লি-দীনিল্লাহ।

এখানে উল্লেখ্য যে, মিশরের এইসব অনুষ্ঠানাদি তখনো মুসলিম বিশ্বের অন্যত্র ছড়িয়ে পড়েনি।  পরবর্তীতে যিনি ঈদে মিলাদুন্নবীকে মুসলিমবিশ্বের অন্যতম উৎসব হিসেবে প্রতিষ্ঠা করেছেন, তিনি হলেন, ইরাক অঞ্চলের ইরবিল প্রদেশের  আবু সাঈদ কুকবুরী । সে হিসেবে জানা যায়, ৭ম হিজরী থেকে আনুষ্ঠানিক মিলাদ উদযাপন শুরু হয়। মিলাদের উপর সর্বপ্রথম গ্রন্থ রচনা করে আবুল খাত্তাব ওমর ইবনে হাসান ইবনে দেহিয়া আল কালবী ।


সমর্থনকারী সুন্নী পন্ডিতগণ[সম্পাদনা]

ঈদে মিলাদুন্নবী-এর সমর্থনকারী উলামায়ে দ্বীন ও ইসলামি চিন্তাবিদ সুন্নী পন্ডিতদের উল্লেখযোগ্য কিছু নাম এবং মিলাদুন্নবী সম্পর্কিত তাদের রচিত গ্রন্থের নাম এখানে সন্নিবেশিত হলো:

  • হুজ্জাতুদ্দীন ইমাম মুহাম্মদ বিন যুফার আল মাক্কী ( ৪৯৭ - ৫৬৫ হিজরি ) ।
  • ইমাম ইবনুল জাওযী (৫১০ - ৫৯৭ হিজরি ) । - মিলাদুন্নবী সম্পর্কে তার রচিত বইয়ের নাম : মাওলিদির রাসুল
  • হাফিজুল হাদিস ইমাম আবু শামাহ (৫৯৯ - ৬৬৫ হি.)। - তার প্রণীত বইয়ের নাম : আল বায়িছ আলা ইনকারিল বিদয়ে ওয়াল হাওয়াদিসি
  • হাফিজ আবুল খাত্তাব বিন দেহইয়া (৬৩৩ হি.)। - তার রচিত মিলাদুন্নবী সম্পর্কিত বই : আত-তানবির ফি মাওলিদিল বাশির ওয়ান নাযির
  • ইমাম জহির উদ্দিন জাফর আত্তাজামনুতী আশ-শাফেয়ী ( মৃতঃ ১২৮৩ খ্রিঃ) ।
  • পাশ্চাত্যের দুই ফকীহ আবুল আব্বাস ( মৃতঃ ৬৩৩ হি.) এবং আবুল কাসিম (মৃতঃ ৬৭৭ হি.) ।
  • ইমাম মুহাম্মদ বিন আবি ইসহাক বিন ইবাদ আন-নাফিজি (মৃতঃ ৭৩৩/৮০৫ হিজরি )।
  • শায়খুল ইসলাম সিরাজ উদ্দীন বালকিনি (মৃতঃ ৭২৪ হি.)।
  • হাফিজুল হাদিস ইমাম আবুল ফজল আহমদ বিন হাজার আল-আসক্বালানী (৭৭৩ - ৮৫২ হিজরি )। - মিলাদুন্নবী সম্পর্কিত তার রচিত গ্রন্থ : মাওলিদিল কাবির
  • আল্লামা ইমাম জালালুদ্দীন সুয়ুতী (৮৪৯ - ৯১১ হি.)।- তার রচিত মিলাদুন্নবী সম্পর্কিত বই : হুসনুল মাকসিদ ফি আমালিল মাওলিদ
  • ইমামুল কুররা আল হাফিজ আবুল খায়ের শামছ উদ্দিন বিন আবদুল্লাহ আল জাজরী শাফেয়ী ( ৬৭৩ - ৭৪৮ হি.) । - এই সম্পর্কে তার রচিত গ্রন্থের নাম : আরফুত তারীফ বিল মাওলিদিল মা'রিফ
  • হাফিজ শামছ উদ্দিন বিন নাসির উদ্দিন আদ-দিমাস্কী ( ৭৭৭ - ৮৪২ হিজরি ) । - তার রচিত : মাওরিদুস সাদি ফি মাওলিদিল হাদি
  • ইমাম কামাল আদফায়ী (৬৮৫)।
  • ইমাম শামসুদ্দিন আয-যাহাবী ( ১২৭৪ -১৩৪৮ খ্রিঃ) ।
  • ইমাম বুরহানুদ্দীন বিন জুমায়া (৭২৫ - ৭৯০ হিজরি ; ১৩২৫-১৩৮৮ খ্রিঃ) ।
  • ইমাম জৈনুদ্দীন বিন রজব হাম্বলী (৭৩৬ - ৭৯৫) ।
  • ইবনে বতুতা (৭৭৯ হি.) ।
  • লিছান উদ্দীন ইবনে খতিব তিলমিছানী
  • ইমাম যুরকানী
  • আল্লামা মোল্লা আলী ক্বারী (মৃত্যু: ১০১৪ হি.) । - মিলাদুন্নবী সম্পর্কিত তার রচিত বই : আল মাওরিদুর রাওয়ী ফি মাওলিদিন নাবী
  • ইমাম ইবনে তাইমিয়া (৭২৮ হি.) ।
  • ইমাম আবু যারআ আল ইরাকী
  • হাফিজে হাদিস ইমাম জায়নুদ্দীন ইরাকী (৮০৬ হি.)। - মিলাদুন্নবী সম্পর্কে রচিত তার বই : মাওলিদিল হানী ফিল মাওলিদিছ ছানি
  • ইমাম ইবনে হাজার আল কাস্তুলানী । - তার রচিত গ্রন্থ : মাওয়াহিবে লাদুনিয়া
  • হাফিজে হাদিস ইমাম সাখাবী (৯০২ হি.)। - তার রচিত বই : যুযউ ফি মাওলিদিশ শারীফ
  • হাফিজ ইবনে হাজার হায়তমী (৯৮৪ হি.)। - মিলাদুন্নবী বিষয়ক তার রচিত বইয়ের নাম : আন নি'মাতুল কুবরা ও তাহবিরুল কালাম ফিল কিয়ামি ইনদা জিকরি সাইয়িদে উলদে আদাম
  • আল্লামা আলী ইবনে বুরহান উদ্দীন হালবী । - তার রচিত বই : সিরাতে হালবী
  • ইমাম জাফর বিন হোসাইন বরজিঞ্জী (১১৭৭ হি.)। - তার প্রণীত বই : ইকদুল জাওহার
  • শায়খ আবদুল হক মুহাদ্দিস দেহলভী । তিনি এই সম্পর্কিত ফতোয়া লিখেন : মাসাবাতা বিস সুন্নাহ বই-এ ।
  • শাহ আবদুর রহিম মুহাদ্দেস দেহলভী
  • শাহ ওয়ালী উল্লাহ মুহাদ্দেস দেহলভী । - তিনি মিলাদুন্নবী সম্পর্কিত আমালিয়াত বর্ণনা করেন : ফুয়ুজুল হারামাইন গ্রন্থে ।
  • শাহ আবদুল আজিজ মুহাদ্দেস দেহলভী । - এই সম্পর্কিত ফতোয়া দেন তার উজালায়ে নাফেয়া বই-এ ।
  • শাহ ইসহাক মুহাদ্দেস দেহলভী । - মিলাদুন্নবী সম্পর্কে ফতোয়ার অবতারণা করেন : মিয়াতে মাসায়েল গ্রন্থে ।
  • আল্লামা সাইয়্যিদ আহমদ যাইনী মাক্কী । - এ সম্পর্কিত তার রচিত বই : সিরাতুন নাবাবিয়া ওয়া আসারুল মুহাম্মাদিয়া
  • আল্লামা সাইয়্যিদ মাযী আবুল আযায়েম আল মিশরী । - তার লিখিত বই : আল ইহতেফাল বি মাওলিদি আম্বিয়া ওয়াল আউলিয়া
  • আল্লামা আবদুর রহমান সিরাজ হানাফি মাক্কী । - তার লেখা বই : মুসতাযুল মুবতাদ
  • শাহ কারামাত আলী জৈনপুরী (১২৯০ হি.)। - তার লিখিত গ্রন্থ : মুলাখখাস ও কারামাতে হারামাইন
  • শাহ আবদুল আউয়াল জৈনপুরী হানাফি (১৩৩৯ হি.)। - মিলাদুন্নবী সম্পর্কিত তার প্রণীত গ্রন্থ : নুফহাতুল আম্বারিয়া লি ইসবাতিল কিয়াম ফি মাওলিদি খাইরিল বারিয়্যা
  • শাহ ওয়াজী উদ্দীন রামুপুরী হানাফি । -রচিত বই : মসলকে আরবাবে হক
  • হাজী ইমদাদুল্লাহ মুহাজিরে মক্কী । - মিলাদুন্নবী সম্পর্কে ফতোয়া তুলে ধরেছেন তার সাত-মাসআলার ফয়সালা সম্বলিত বই-এ । বইটির নাম : ফয়সালায়ে হাফত মাসায়েল
  • আবদুল হাই লাখনবী হানাফি (১৩০৪ হি.)। - তার রচিত ফতোয়ার বই : মজমুয়ায়ে ফতওয়া
  • আল্লামা আবেদ হুসাইন হানাফি । - মিলাদুন্নবীর আমল বর্ণিত বই : আদ-দুররুল মুনাজ্জাম
  • ইয়াকুব নানতুবী হানাফি । - এই সম্পর্কিত আমল বর্ণনায় রচিত : আদ-দুররুল মুনাজ্জাম
  • আবদুল হক এলাহাবাদী হানাফি । - মিলাদুন্নবী সম্পর্কে প্রণীত বই : আদ-দুররুল মুনাজ্জাম
  • ইমাম ইউসুফ বিন ইসমাইল নাবেহানী । - তার রচিত মিলাদুন্নবী বিষয়ক গ্রন্থ : তানজিমুল বাদিয় ফি মাওলিদিন নাবাবী[১][২][৩]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. যুগে যুগে দেশে দেশে পবিত্র মিলাদ শরীফ - সংকলনে: মোঃ আবুল খায়ের ইবনে মাহতাবুল হক ; প্রথম প্রকাশ - জুলাই ২০১২ ইং ; পরিবেশেনায় : রশিদ বুক হাউস, বাংলাবাজার ঢাকা । মোহাম্মাদীয়া কুতুবখানা চট্টগ্রাম । আল মদীনা কুতুবখানা চট্টগ্রাম ।
  2. جشن میلادالنبی کی شرعی حیثیت : ڈاکٹر محمد طاھر القادری ۔
  3. প্রফেসর ডক্টর আল্লামা তাহের আল কাদেরী : শরিয়তের আলোকে জশনে মিলাদুন্নবী পঞ্চম অধ্যায় , বাংলা অনুবাদ - মাওলানা মুহাম্মদ জয়নুল আবেদীন জুবাইর । প্রকাশনায় : ছিরাতুল মুস্তাকীম প্রকাশনী, কুঞ্জে সোলেমান , এন.এম.সি হাউস , খাজা রোড , চান্দগাঁও , চট্টগ্রাম । প্রকাশকাল : ১২ রবিউল আউয়াল - ১৪১৯ হিজরি ; ৭ জুলাই ১৯৯৮ খ্রিস্টাব্দ ।