অলি পোপ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
অলি পোপ
Ollie Pope.jpg
২০১৯ সালের সংগৃহীত স্থিরচিত্রে অলি পোপ
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামঅলিভার জন ডগলাস পোপ
জন্ম (1998-01-02) ২ জানুয়ারি ১৯৯৮ (বয়স ২৩)
চেলসী, লন্ডন, ইংল্যান্ড
উচ্চতা৫ ফুট ৯ ইঞ্চি (১.৭৫ মিটার)
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
ভূমিকাব্যাটসম্যান, উইকেট-রক্ষক
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ৬৮৭)
৯ আগস্ট ২০১৮ বনাম ভারত
শেষ টেস্ট৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ বনাম ভারত
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
২০১৬–বর্তমানসারে (জার্সি নং ৩২)
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট এফসি এলএ টি২০
ম্যাচ সংখ্যা ১৪ ৪৪ ২৮ ৩৬
রানের সংখ্যা ৭০৭ ৩,০৩৪ ৭৫১ ৭৩৬
ব্যাটিং গড় ৩৭.২১ ৫৪.১৭ ৩৭.৫৫ ২৮.৩০
১০০/৫০ ১/৫ ৯/১২ ০/৫ ০/০
সর্বোচ্চ রান ১৩৫* ২৫১ ৯৩* ৪৮
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ১৬/০ ৫২/০ ৮/০ ১৫/০
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ১২ ফেব্রুয়ারি ২০২১

অলিভার জন ডগলাস পোপ (ইংরেজি: Ollie Pope; জন্ম: ২ জানুয়ারি, ১৯৯৮) লন্ডনের চেলসী এলাকায় জন্মগ্রহণকারী পেশাদার ইংরেজ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার।[১] ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য তিনি। ২০১০-এর দশকের শেষদিক থেকে ইংল্যান্ডের পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করছেন।

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর ইংরেজ কাউন্টি ক্রিকেটে সারে দলের প্রতিনিধিত্ব করেন অলি পোপ। দলে তিনি মূলতঃ ডানহাতে নিচেরসারিতে ব্যাটিং করে থাকেন। এছাড়াও, মাঝে-মধ্যে উইকেট-রক্ষক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন তিনি।[২]

শৈশবকাল[সম্পাদনা]

ক্রানলেই স্কুলে অধ্যয়ন করেছেন অলি পোপ। ঐ বিদ্যালয়ের প্রথম প্রধানশিক্ষক যোসেফ মেরিম্যান সম্পর্কে তার আত্মীয় হন।[৩] গিল্ডফোর্ড ও ক্রানলেই - উভয় ক্লাবের পক্ষেই ক্লাব ক্রিকেটে অংশ নিয়েছেন এবং সারের বয়সভিত্তিক দলের সদস্য ছিলেন তিনি।

২৬ আগস্ট, ২০১৬ তারিখে সারে দলের পক্ষে পেশাদারী পর্যায়ে খেলার জন্যে দুই বছরের চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন।[৪] দুই দিন পর সারে দলের পক্ষে লিস্ট এ ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। ২০১৬ সালে অলি পোপ ৫০-ওভারের খেলায় প্রথম অংশ নেন। হেডিংলিতে রয়্যাল লন্ডন ওয়ান-ডে কাপের প্রথম সেমি-ফাইনালে দলের প্রতিপক্ষ ছিল ইয়র্কশায়ার দল।[৫] ঐ খেলায় তার দল জয় পায়। তিনি গ্লাভস হাতে নামেননি। সারে দলের পাঁচজন উইকেট-রক্ষকের অন্যতম ছিলেন; ষষ্ঠ উইকেট-রক্ষক ছিলেন কোচ অ্যালেক স্টুয়ার্ট। তাকে ব্যাট হাতে ব্যস্ত থাকতে দেখা যায়।

২০১৭ সালের গ্রীষ্মে ৫০-ওভারের চূড়ান্ত খেলায় অ্যালেক্স হেলসের ক্যাচ তালুবন্দী করতে না পারায় দলকে খেসারত গুণতে হয় ও নতুন জীবন পেয়ে তিনি অপরাজিত ১৮৭ রানের রেকর্ড ভঙ্গকারী ইনিংস খেলেন।

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

২০১৭ সাল থেকে অলি পোপের প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবন চলমান রয়েছে। ২৮ মার্চ, ২০১৭ তারিখে সারের পক্ষে প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে অলি পোপের। মেরিলেবোন ক্রিকেট ক্লাবের (এমসিসি) উদ্যোগে বিশ্ববিদ্যালয়ের খেলা আয়োজনের অংশ হিসেবে প্রতিপক্ষ অক্সফোর্ড এমসিসিইউ’র বিপক্ষে খেলেন তিনি।[৬]

৭ মে, ২০১৭ তারিখে সাসেক্সের বিপক্ষে লিস্ট এ ক্রিকেটে নিজস্ব প্রথম অর্ধ-শতরানের ইনিংস খেলেন তিনি।[৭] ৭ জুলাই, ২০১৭ তারিখে ন্যাটওয়েস্ট টি২০ ব্ল্যাস্ট প্রতিযোগিতায় সারের সদস্যরূপে টুয়েন্টি২০ ক্রিকেটে প্রথম খেলেন।[৮] ২০১৭ সালের শেষদিকে হ্যাম্পশায়ারের বিপক্ষে প্রথমবারের মতো প্রথম-শ্রেণীর খেলায় অংশ নেন।

২০১৭-১৮ মৌসুমের শীতকালে ইসিবি’র বিদেশী স্থলাভিষিক্ত পরিকল্পনার আওতায় অস্ট্রেলিয়া গমনের সুযোগ পান। সেখানে এনএসডব্লিউ প্রিমিয়ার ক্রিকেটে ক্যাম্পবেলটাউন-ক্যামডেন ডিস্ট্রিক্ট ক্রিকেট ক্লাবের পক্ষে খেলেন।[৯] এ পর্যায়ে তিনটি শতরানের ইনিংসসহ ৯৯৪ রান তুলেন। ক্লাবের সহঃসভাপতি ও নিউ সাউথ ওয়েলসের সংসদ সদস্য ক্রিস প্যাটারসনের কাছ থেকে মাঠ ও মাঠের বাইরে উচ্ছ্বসিত প্রশংসা পান।[১০]

স্বর্ণালী সময়[সম্পাদনা]

২০১৮ সাল শেষে ৭০.৪৩ গড়ে ৯৮৬ রান তুলে সারে দলের শিরোপা বিজয়ে জোড়ালো ভূমিকা রাখেন। তন্মধ্যে, ওভালে ইয়র্কশায়ারের বিপক্ষে দর্শনীয় ১৫৮ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেছিলেন তিনি। ঐ সময়ে এটিই তার সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত সংগ্রহ ছিল। পাশাপাশি সীমিত ওভারের খেলায়ও বেশ ভালো খেলেন। খণ্ডকালীন উইকেট-রক্ষক হিসেবে থাকলেও ব্যাটিংয়ের দিকেই অধিক মনোনিবেশ ঘটান। ২০১৭ সালে সারে দলের পক্ষে তিন স্তরের ক্রিকেটের সবকটিতেই দূর্দান্ত ভূমিকা রাখেন।

নিজস্ব তৃতীয় চ্যাম্পিয়নশীপের খেলায় অ্যাজিয়াস বোলে হ্যাম্পশায়ারের বিপক্ষে শতক হাঁকান। পূর্ণাঙ্গ শক্তিমত্তায় কাট ও পুলে শেষদিনে হ্যাম্পশায়ারের জয়ের স্বপ্ন বানচাল করে দেন। ইংরেজ ব্যাটসম্যান ও খণ্ডকালীন বোলার জেমস ভিন্সের এক ওভারে যথেচ্ছ রান তুলেন। এরফলে, খেলাটি ড্রয়ে পরিণত হয়। চ্যাম্পিয়নশীপে তার অভিষেক পর্বটিও ঐতিহাসিক মুহূর্ত ছিল। সারে দল চারজন কিশোরকে ওভালে মিডলসেক্সের বিপক্ষে মাঠে নামায়। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর চ্যাম্পিয়নশীপের খেলায় এটিই প্রথম ঘটনা ছিল।

২০১৮ মৌসুমে দূর্দান্ত খেলেন। সারের কাউন্টি চ্যাম্পিয়নশীপের শিরোপা বিজয়ী দলে থেকে ৭০ গড়ে রান তুলেন। ফলশ্রুতিতে, পিসিএ কর্তৃক বর্ষসেরা তরুণ খেলোয়াড়ের পুরস্কার লাভ করেন।[১১] ২০১৯ সালেও এ ধারা অব্যাহত রাখেন। সারের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক হন। মাত্র ৯ ইনিংসে ১০১ গড়ে ৮১২ রান তুলেন।

২০১৯ সালের শুরুতে এসেক্সের বিপক্ষে ফিল্ডিংকালে বল থামাতে গিয়ে কাঁধে চোট পান। অস্ত্রোপচারের প্রয়োজন পড়লেও পরবর্তীতে আর তার প্রয়োজন হয়নি। ব্যাটিংয়ের অবস্থানের পরিবর্তন ঘটিয়ে মাঝারিসারিতে চলে আসেন। দলে ফিরে আসার পরপরই চ্যাম্পিয়নশীপের প্রথম খেলায় ২২১ রানের অপরাজিত ইনিংস উপহার দেন।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে তেরোটি টেস্টে অংশগ্রহণ করেছেন অলি পোপ। ৯ আগস্ট, ২০১৮ তারিখে লর্ডসে সফরকারী ভারত দলের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। ৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ তারিখে চেন্নাইয়ে একই দলের বিপক্ষে সর্বশেষ টেস্টে অংশ নেন তিনি। এখনো তাকে কোন ওডিআইয়ে অংশগ্রহণ করার সুযোগ দেয়া হয়নি।

টি২০ খেলা থেকে শুরু করে চ্যাম্পিয়নশীপে ব্যাপকভাবে রান সংগ্রহে তৎপর থাকায় ইংল্যান্ডের জাতীয় দল নির্বাচকমণ্ডলীর সদস্য এড স্মিথের সুনজরে পড়েন। ফলশ্রুতিতে, ২০১৮ সালের গ্রীষ্মে ভারতের বিপক্ষে ব্যাটসম্যান হিসেবে তাকে টেস্ট দলে খেলার সুযোগ দেয়া হয়। মাত্র ১৫টি প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট খেলার অভিজ্ঞতা নিয়ে তিনি চার নম্বরে ব্যাটিংয়ে নামেন। দুই টেস্ট খেলে তেমন সুবিধে করতে পারেননি।

আগস্ট, ২০১৮ সালে সফরকারী ভারত দলের বিপক্ষে সিরিজের দ্বিতীয় টেস্ট খেলার জন্যে তাকে ইংল্যান্ড দলে যুক্ত করা হয়।[১২] লর্ডসের ঐ টেস্টে তিনি দাউদ মালানের স্থলাভিষিক্ত হয়েছিলেন। ৯ আগস্ট, ২০১৮ তারিখে ভারতের বিপক্ষে তার টেস্ট অভিষেক পর্ব সম্পন্ন হয়।[১৩]

ঐ মৌসুমের শেষদিকে শ্রীলঙ্কা গমনার্থে তাকে ইংল্যান্ড দলের সদস্য করা হয়।[১৪] তবে, ইংল্যান্ডের প্রথম টেস্টে তাকে খেলানো হয়। ফলশ্রুতিতে, সংযুক্ত আরব আমিরাতে ইংল্যান্ড লায়ন্স দলের সদস্যরূপে তাকে যোগদানের অনুমতি দেয়া হয় ও পাকিস্তান এ দলের বিপক্ষে খেলেন।[১৫]

অ্যাশেজ সিরিজে অংশগ্রহণ[সম্পাদনা]

২০১৯ সালের গ্রীষ্মের অ্যাশেজ সিরিজে অতিরিক্ত খেলোয়াড় হিসেবে তাকে রাখা হয়। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে খেলার সুযোগ না পেলেও শীতকালে নিউজিল্যান্ড গমনার্থে তাকে দলে ফিরিয়ে আনা হয়। ছয় নম্বরে খেলার জন্যে তাকে রাখা হয়। দ্বিতীয় টেস্টে জস বাটলারের আঘাতের কারণে অপ্রত্যাশিতভাবে তাকে উইকেট-রক্ষণে এগিয়ে আসতে হয়। এছাড়াও, জো রুটের সাথে ৭৫ রানের জুটি গড়েন।

২০১৯ সালে দূর্দান্ত মৌসুম খেলাকালে হেডিংলিতে অ্যাশেজ সিরিজের তৃতীয় টেস্টের পূর্বে জেসন রয়ের শূন্যতা পূরণে তাকে দলে নেয়া হয়।[১৬] তবে, জেসন রয়ের শারীরিক সুস্থতা নিশ্চিত হবার ফলে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে অংশগ্রহণ থেকে বিরত থাকতে হয়।

এক মাস পর স্বাগতিক নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে খেলার জন্যে তাকে পুনরায় দলে নিয়ে আসা হয়।[১৭] জনি বেয়ারস্টো’র স্থলাভিষিক্ত হন তিনি। হ্যামিল্টনে সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টে ইংল্যান্ডের একমাত্র ইনিংসে তিনি ৭৫ রান তুলেন।[১৮] ঐ টেস্টের পর জো রুট তার খেলায় পরিপক্কতা আনয়ণে উচ্ছ্বসিত প্রশংসা করেন।

দক্ষিণ আফ্রিকা গমন[সম্পাদনা]

২০১৯-২০ মৌসুমে দলের সাথে দক্ষিণ আফ্রিকা গমন করেন। তবে, অসুস্থতার কারণে সিরিজের প্রথম টেস্ট খেলতে পারেননি। কেপ টাউনে দ্বিতীয় টেস্টের প্রথম ইনিংসে অপরাজিত ৬১ রান তুলে দলের শীর্ষ রান সংগ্রাহক হন। এরপর, পোর্ট এলিজাবেথের সেন্ট জর্জেস পার্ক ক্রিকেট গ্রাউন্ডে অনুষ্ঠিত সিরিজের তৃতীয় টেস্টে দলের জয়ে ভূমিকা রাখেন। প্রথম শতরানের ইনিংস খেলেন।[১৯] অ্যালাস্টেয়ার কুকের পর ইংল্যান্ডের সর্বকনিষ্ঠ শতরানকারীর সম্মাননা পান। এছাড়াও, উইকেটের কাছাকাছি এলাকায় ফিল্ডিং করে সুনাম কুড়ান। হেলমেট ব্যবহার করে বেশ কিছু ক্যাচ তালুবন্দী করেন তিনি।

২৯ মে, ২০২০ তারিখে কোভিড-১৯ মহামারী পরবর্তী সময়ে আন্তর্জাতিক সময়সূচীকে ঘিরে প্রশিক্ষণ শুরু করার উদ্দেশ্যে ৫৫ জন খেলোয়াড়ের অন্যতম হিসেবে তাকে রাখা হয়।[২০][২১] ১৭ জুন, ২০২০ তারিখে সফরকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজকে কেন্দ্র করে ৩০-সদস্যের অন্যতম হিসেবে নিবীড় অনুশীলনের জন্যে তাকে রাখা হয়।[২২][২৩] ৪ জুলাই, ২০২০ তারিখে সিরিজের প্রথম টেস্টের জন্যে ইংল্যান্ডের ১৩-সদস্যের তালিকায় তাকে রাখা হয়।[২৪][২৫]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "20 cricketers for the 2020s"The Cricketer Monthly। সংগ্রহের তারিখ ৬ জুলাই ২০২০ 
  2. "Player profile: Ollie Pope"। ESPNcricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৮ আগস্ট ২০১৬ 
  3. Richardson, Charles (২৪ জানুয়ারি ২০২০)। "How School Provided a Firm Foundation for Pope's Rise"। Daily Telegraph 
  4. "Ollie Pope signs two year deal"। Surrey County Cricket Club। ২৬ আগস্ট ২০১৬। ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ আগস্ট ২০১৬ 
  5. "Royal London One-Day Cup, 1st Semi-Final: Yorkshire v Surrey at Leeds, 28 August 2016"। ESPNcricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৮ আগস্ট ২০১৬ 
  6. "Marylebone Cricket Club University Matches, Oxford MCCU v Surrey at Oxford, Mar 28-30, 2017"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৯ মার্চ ২০১৭ 
  7. "Chris Nash leads way as Sussex see off Surrey"ESPNCricinfo। ESPNCricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২ জুলাই ২০১৭ 
  8. "NatWest t20 Blast, South Group: Essex v Surrey at Chelmsford, Jul 7, 2017"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ৭ জুলাই ২০১৭ 
  9. "Pope given overseas placement in Sydney"। Surrey County Cricket Club। সংগ্রহের তারিখ ৫ অক্টোবর ২০১৭ 
  10. "Ollie Pope: How the Vatican, snakes and laundry made England's new batsman"। BBC Sport। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০১৮ 
  11. "Pope Wins PCA Young Player Of The Year - Kia Oval"www.kiaoval.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-১০-১৩ 
  12. "England v India: Ollie Pope replaces Dawid Malan for second Test at Lord's"BBC Sport। ৫ আগস্ট ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ৫ আগস্ট ২০১৮ 
  13. "2nd Test, India tour of Ireland and England at London, Aug 9-13 2018"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ১০ আগস্ট ২০১৮ 
  14. James, Steve (২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮)। "England call up Rory Burns and Olly Stone and select Stuart Broad for Sri Lanka tour" – www.thetimes.co.uk-এর মাধ্যমে। 
  15. "Ollie Pope to leave England tour to join up with Lions and face Pakistan A"The Independent। ১১ নভেম্বর ২০১৮। 
  16. "Pope called up as cover for Ashes Test"Surrey CCC। ২১ আগস্ট ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 
  17. "Bairstow dropped from England Test squad for New Zealand series"ICC Cricket। ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 
  18. "England's Joe Root praises Ollie Pope's maturity after second Test stand"The Guardian। London, UK। ২ ডিসেম্বর ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ১৭ জানুয়ারি ২০২০ 
  19. "Ollie Pope scores maiden Test hundred as England dominate South Africa on day two"Sky Sports। সংগ্রহের তারিখ ১৭ জানুয়ারি ২০২০ 
  20. "England Men confirm back-to-training group"England and Wales Cricket Board। সংগ্রহের তারিখ ২৯ মে ২০২০ 
  21. "Alex Hales, Liam Plunkett left out as England name 55-man training group"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৯ মে ২০২০ 
  22. "England announce 30-man training squad ahead of first West Indies Test"International Cricket Council। সংগ্রহের তারিখ ১৭ জুন ২০২০ 
  23. "Moeen Ali back in Test frame as England name 30-man training squad"ESPN Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ১৭ জুন ২০২০ 
  24. "England name squad for first Test against West Indies"England and Wales Cricket Board। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুলাই ২০২০ 
  25. "England v West Indies: Dom Bess in squad, Jack Leach misses out"BBC Sport। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুলাই ২০২০ 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]